• ঢাকা শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১
logo
বিদ্যালয়ের মাঠে পড়ে ছিল যুবকের মরদেহ
কিশোরীকে ধর্ষণ, বৃদ্ধের বিরুদ্ধে ভ্রুণ হত্যার অভিযোগ
নরসিংদীর শিবপুরে ১৪ বছরের এক কিশোরীকে ধর্ষণ ও ভ্রুণ নষ্টের অভিযোগে ৬০ বছরের এক বৃদ্ধের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।  শনিবার (১৮ মে) কিশোরীর বাবা বাদী হয়ে এ মামলা করেন।  অভিযুক্ত বৃদ্ধ উপজেলার বাঘাব ইউনিয়নের পাঁচ পাইকা গ্রামের মৃত আবদুর রহমানের ছেলে মো. হিরণ (৬০)। তারা সম্পর্কে প্রতিবেশী দাদা-নাতি। থানায় অভিযোগের পর থেকে অভিযুক্ত হিরণ পালাতক। মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন শিবপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ফরিদ উদ্দিন।   জানা যায়, ওই কিশোরীকে বিভিন্নভাবে ভয়ভীতি ও প্রলোভন দেখিয়ে তার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক স্থাপন করেন বৃদ্ধ হিরণ। এতে ৬ মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে ওই কিশোরী। পরে হিরণের বাড়িতে ওই কিশোরীর গর্ভপাত ঘটানোর জন্য ওষুধ খাওয়ানো হলে অসুস্থ হয়ে পড়ে সে। আশপাশের সহায়তায় তাকে দ্রুত ঢাকা মেডিকেলে নিয়ে গেলে সেখানে তার গর্ভপাত করানো হয়।  এ বিষয়ে স্থানীয় ইউপি সদস্য মনির বলেন, ‘কিশোরীর বাবা একজন দিনমজুর ও মা অন্যের বাড়িতে কাজ করেন। অসচেতন পরিবার। মেয়ে ৬ মাসের অন্তঃসত্ত্বা বুঝতে পারেনি তারা। গত ২৯ এপ্রিল হিরণের বাড়িতে তার গর্ভপাত ঘটানোর জন্য ওষুধ খাওয়ানোর পর মেয়েটি অসুস্থ হয়ে পড়লে বিষয়টি জানাজানি হয়। পরে অসুস্থ অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেলে প্রেরণ করি আমরা।’  ইউপি সদস্য মনির আরও বলেন, ‘ওষুধ খাওয়ানোর ফলে গর্ভের বাচ্চা নষ্ট হয়ে যায় ওই কিশোরীর। চিকিৎসা দিয়ে সেখান থেকে বাড়িতে নিয়ে আসা হয়। এ ঘটনার পরে হিরণ পালিয়ে যান। এ ঘটনাকে আপস-মীমাংসা করার জন্য তার ছেলে আল আমিন ও তার মামা মোকলেসের সঙ্গে বিভিন্নভাবে চেষ্টা করে এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিরা। ব্যর্থ হয়ে থানায় অভিযোগ দিতে বলেন তারা। এ অবস্থায় সুষ্ঠু বিচার দাবি করেন এলাকাবাসী।’
বিয়ের দাবিতে প্রেমিক তরিকুলের বাড়িতে তরুণী, অতঃপর...
কেন্দ্রে হামলা-ভাঙচুর, শিবপুরে পুলিশের গুলির পর ভোট বাতিল