• ঢাকা বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪, ৯ শ্রাবণ ১৪৩১
logo
হাসপাতালে ভর্তি ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী
হামাসের হামলায় ইসরায়েলি সেনাবাহিনীর মেজর নিহত
গাজার দক্ষিণে রাফাহ এলাকায় অভিযানের সময় হামাসের হামলায় ইসরায়েলি সেনাবাহিনীর এক মেজর নিহত হয়েছেন। দেশটির সেনাবাহিনী তার নিহতের কথা ঘোষণা করেছে।  রোববার (৭ জুলাই) রাফাতে প্রাণ হারান এই সেনা কর্মকর্তা। ইসরায়েলি সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইসরায়েল এ খবর জানিয়েছে। নিহত মেজরের নাম জালা ইব্রাহিম (২৫)। তিনি কমব্যাট ইঞ্জিনিয়ারিং কোরের ৬০১তম ব্যাটালিয়নের একজন কোম্পানি কমান্ডার ছিলেন। তার বাড়ি ছিল ড্রুজ সম্প্রদায়ের শহর সাজারে। তার মৃত্যুর মাধ্যমে গাজায় স্থল হামলায় নিহত ইসরায়েলি সেনার সংখ্যা ৩২৬ জনে দাঁড়িয়েছে।  এর আগে, ৭ অক্টোবর হামাসের হামলায় আরও প্রায় ৩০০ সেনা প্রাণ হারিয়েছিলেন। এতে করে চলমান এ যুদ্ধে হামাসের হামলায় ইসরায়েলের ছয়শরও বেশি সেনার মৃত্যু হয়েছে। গত বছরের ৭ অক্টোবর হামাস ও ইসরায়েলের মধ্যে যুদ্ধ শুরু হয়। এতে এখন পর্যন্ত ৩৮ হাজারের বেশি ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। এ ছাড়া আহত হয়েছেন আরও এক লাখেরও বেশি মানুষ। এদিকে ১০ মাস ধরে চলা এ যুদ্ধ থামাতে চেষ্টা চালাচ্ছে মধ্যস্থতাকারীরা। গত কয়েকদিন ধরে হামাস ও ইসরায়েলের মধ্যে যুদ্ধবিরতি হওয়ার সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে। তবে ইসরায়েলি সংবাদমাধ্যম কান নিউজ আজ রোববার এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, যুদ্ধবিরতির চুক্তি হতে দেরি হতে পারে। কারণ ইসরায়েল এতে নতুন কিছু শর্ত যুক্ত করতে চাচ্ছে।
কুয়েতে প্রবাসী গৃহকর্মীদের জন্য সুখবর
ইরানের নতুন প্রেসিডেন্ট কে এই মাসুদ পেজেশকিয়ান
মোসাদপ্রধানের কাতার সফর, গাজায় যুদ্ধবিরতি নিয়ে আশার আলো
ইরানের নতুন প্রেসিডেন্ট মাসুদ পেজেশকিয়ান
যেসব বিদেশিদের নাগরিকত্ব দেবে সৌদি আরব
মধ্যপ্রাচ্যের অন্যতম প্রভাবশালী দেশ সৌদি আরব বিদেশিদের নাগরিকত্ব প্রদানের বিষয়ে একটি ঘোষণা দিয়েছে। সৌদি প্রেস এজেন্সির (এসপিএ) খবরে বলা হয়েছে, বিদেশি বিজ্ঞানী, চিকিৎসক, গবেষক, উদ্ভাবক, উদ্যোক্ত এবং অনন্য দক্ষতা ও বিশেষত্বের অধিকারী প্রতিভাবানদের নাগরিকত্ব প্রদান করবে সৌদি আরব। স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার (৪ জুলাই) একটি রাজকীয় ডিক্রির মাধ্যমে এই ঘোষণা দেওয়া হয়। এটা সৌদি আরবের বৈশ্বিক প্রতিভা অনুসন্ধানের প্রতিশ্রুতি প্রমাণ করে। দেশটি তার ভিশন ২০৩০ লক্ষ্যে পৌঁছানোর জন্য বিভিন্ন সেক্টরে উন্নয়নে অবদান রাখতে সক্ষম প্রতিভাবান ও দক্ষ লোকদের সন্ধান করছে। ভিশন ২০৩০ উদ্যোগটি ব্যতিক্রমী সৃজনশীল মনন আকর্ষণ এবং বিনিয়োগের ক্ষেত্রে সৌদি আরবের গভীর আগ্রহকে প্রতিফলিত করে। সৌদি আরব তেল নির্ভর অর্থনীতি থেকে বেরিয়ে আসার জন্য ‘ভিশন-২০৩০’ প্রনয়ণ করেছে। এই প্রকল্প বাস্তবায়ন করতে দক্ষ ও চৌকস পেশাজীবীদের আকৃষ্ট করতে চায় দেশটি। এই পরিকল্পনার অংশ হিসেবে উল্লেখযোগ্য হলো 'নিওম', যেখানে ‘দ্য লাইন’ নামে অত্যাধুনিক মেগাসিটি নির্মাণ করা হবে। মরুভূমিতে কাচের কাঠামোর এই শহরের প্রস্থ হবে ৬৫০ মিটার এবং দৈর্ঘ্য ১০০ মাইল। এখানে নবায়নযোগ্য জ্বালানি ব্যবহার করা হবে এবং ৯০ লাখ মানুষ বসবাস করবে। সৌদি আরব বিশ্বের সবচেয়ে বড় তেল রপ্তানিকারক দেশ হলেও, তেল বহির্ভূত আয় বৃদ্ধির জন্য বৈশ্বিক বিনিয়োগের দিকে ঝুঁকছে। ভিশন ২০৩০-এর লক্ষ্য তেল বহির্ভূত রপ্তানি জিডিপির ১৬ শতাংশ থেকে ৫০ শতাংশে উন্নীত করা।  ভিশন ২০৩০-এর আওতায় ২০টির বেশি প্রকল্প রয়েছে, যার মধ্যে লোহিত সাগরের তীরে অবকাশযাপন কেন্দ্র এবং কিদিয়া নামে একটি বিনোদন ও শিল্পকলার শহর অন্তর্ভুক্ত। এই কর্মযজ্ঞের অর্থায়ন করা হচ্ছে পাবলিক ইনভেস্টমেন্ট ফান্ড থেকে, যার মূল্যমান ৭০ হাজার কোটি ডলার। এই তহবিল থেকে সারা বিশ্বে বিনিয়োগ করা হচ্ছে, যেমন সফটব্যাংক, নিউ ক্যাসল ফুটবল ক্লাব, এবং টেসলার প্রতিদ্বন্দ্বী লুসিড। সূত্র : জিও
ইরানের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে দ্বিতীয় ধাপের ভোটগ্রহণ শুরু
ইরানের ১৪তম প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের রান-অফ বা দ্বিতীয় ধাপের ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। নির্বাচনে বিদেশে অবস্থানকারী ইরানিরাও ভোট দিতে পারবেন নিজ নিজ অবস্থান থেকে। শুক্রবার (৫ জুলাই) ইরানের স্থানীয় সময় সকাল আটটায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। এতে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন মাসুদ পেজেশকিয়ান এবং সাঈদ জালিলি। ভোট শুরু হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে নিজের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছেন দেশটির সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ আলী খামেনি। নিয়ম অনুযায়ী, ১০ ঘণ্টা ভোটগ্রহণ চলবে। তবে প্রয়োজনে ভোট গ্রহণের সময় বাড়তেও পারে। একই নিয়ম কার্যকর হচ্ছে বিদেশে অবস্থানরত ইরানিদের জন্যও।  মূলত গত শুক্রবারের নির্বাচনে কোনো প্রার্থীই প্রদত্ত ভোটের শতকরা ৫০ ভাগের বেশি ভোট পাননি। তাই  ইরানের আইন অনুযায়ী রান-অফ বা দ্বিতীয় রাউন্ডে গড়িয়েছে নির্বাচন। গত সপ্তাহে অনুষ্ঠিত প্রথম রাউন্ডে ইরানের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ইতিহাসে সর্বনিম্ন ভোট পড়েছিল। ইরানের সংবিধান অনুযায়ী, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে যেসব প্রার্থী অংশ নেবেন তাদের মধ্যে কেউ যদি সরাসরি প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হতে চান, তাহলে তাকে মোট ভোটের ৫০ শতাংশ বা তার বেশি ভোট পেতে হবে। কোনো প্রার্থীই এই ভোট না পেলে নির্বাচন গড়াবে রান-অফে। প্রথম রাউন্ডে সর্বোচ্চ ও দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ভোট পাওয়া দুই প্রার্থীর মধ্যে প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে এ রাউন্ডে। রানঅফে যে প্রার্থী সর্বোচ্চ ভোট পাবেন তিনিই প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হবেন।
দুবাইতে ভ্রমণকারীদের বিনামূল্যে পাঁচতারকা হোটেলে রাখার ঘোষণা
দুবাই শহরে ভ্রমণকারী বা যাত্রাবিরতিতে যাওয়া যাত্রীদের বিনামূল্যে পাঁচতারকা হোটেলে রাখার ঘোষণা দিয়েছে এমিরেটস এয়ারলাইনস। এই বিশেষ সুযোগটি পাবেন চলতি মাসের ১ থেকে ২১ তারিখের মধ্যে কেনা টিকিটধারীরা। খালিজ টাইমসের খবরে বলা হয়েছে, যে সকল ভ্রমণকারীরা এমিরেটস রিটার্ন টিকিট ক্রয় করে প্রথম শ্রেণীতে বা বিজনেস ক্লাসে দুবাইয়ে যাত্রা করেন তারা দুবাইয়ের জেডব্লিউ ম্যারিয়ট মারকুইস হোটেল দুই রাত থাকার সুযোগ পাবেন। যারা প্রিমিয়াম ইকোনমি বা ইকোনমিতে বুকিং করেছেন তারা বিনামূল্যে এক রাত থাকার সুবিধা উপভোগ করতে পারবেন। এমিরেটস এয়ারলাইনের ডেপুটি প্রেসিডেন্ট এবং চিফ কমার্শিয়াল অফিসার আদনান কাজিম জানিয়েছেন, এই বিশেষ অফারটি ৪ জুলাই থেকে ১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে ভ্রমণকারী গ্রাহকদের জন্য প্রযোজ্য হবে যারা দুবাইতে ট্রানজিট হিসেবে ২৪ ঘণ্টার বেশি সময় অবস্থান করেছেন। টিকিট ইস্যু হলে, ওই যাত্রীদের তাদের অবস্থান নিশ্চিত করতে  বিস্তারিত তথ্যসহ [email protected] ইমেল করতে হবে। ওই পাঁচতারকা হোটেলে না রুম না পাওয়া গেলে, এয়ারলাইন কর্তৃপক্ষ সমমানের পাঁচতারকা হোটেলে যাত্রীদের রাখার ব্যবস্থা করে দেবেন। 
ইসরায়েলের শপিং সেন্টারে সেনাদের ওপর ছুরি নিয়ে হামলা, নিহত ১
ইসরায়েলের উত্তরাঞ্চলীয় শহর কারমিয়েলে একটি শপিং সেন্টারে দুই সেনাসদস্যের ওপর হঠাৎ হামলা করে বসেন দেশটির এক নাগরিক। এ সময় তার ছুরিকাঘাতে প্রাণ হারান এক সেনা। অপরজন গুরুতর আহতাবস্থায় চিকিৎসাধীন।   বুধবার (৩ জুলাই) রাতে ইসরায়েলি প্রতিরক্ষা বাহিনী (আইডিএফ) ও পুলিশের বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি। আইডিএফ জানিয়েছে, নিহত সৈনিকের নাম সার্জেন্ট আলেকজান্ডার ইয়াকিমিনস্কি। ১৯ বছর বয়সী এই সেনা ইসরায়েলের নাহারিয়ার বাসিন্দা। হামলাস্থল শপিং সেন্টার থেকে প্রায় ৩০ কিলোমিটার (২০ মাইল) দূরে অবস্থিত ওই এলাকাটি।  ইসরায়েলের ম্যাগেন ডেভিড অ্যাডম অ্যাম্বুলেন্স পরিষেবা বলেছে, তাদের প্যারামেডিকরা শপিং সেন্টারের ভেতরে শরীরে ক্ষত নিয়ে আহত দুই ব্যক্তির চিকিৎসা করেছে। পরে তাদের দুজনকেই নাহারিয়ার গ্যালিলি মেডিকেল সেন্টারে নেওয়া হয়। কিন্তু হাসপাতালে নেওয়ার পর মারা যান সার্জেন্ট আলেকজান্ডার ইয়াকিমিনস্কি। হাসপাতাল সূত্র জানিয়েছে, হামলায় বেঁচে যাওয়া সেনা সদস্যকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক।  সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায়, ইউনিফর্ম পরা এবং রাইফেল নিয়ে সজ্জিত দুই ব্যক্তিকে বারবার ছুরিকাঘাত করেন একজন ব্যক্তি। এরপর সেখান থেকে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন তিনি। কিন্তু সেনাদের গুলিতে গুলিবিদ্ধ হয়ে মাটিতে পড়ে যান ওই হামলাকারী। কিছুক্ষণ পর ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় তার।  পুলিশ জানিয়েছে, তারা ঘটনাটিকে ‘সন্দেহজনক সন্ত্রাসী হামলা’ হিসাবে বিবেচনা করছে এবং হামলাকারীর বেশ কয়েকজন আত্মীয়কে আটক করা হয়েছে। তবে এখন পর্যন্ত এ ঘটনায় তাৎক্ষণিক কোনো দায় স্বীকার করা হয়নি কোনো গ্রুপের পক্ষ থেকে। এদিকে ঘটনাটিকে একটি  ‘বীরোচিত অভিযান’ বলে অভিহিত করেছে ফিলিস্তিনি ইসলামিক জিহাদ। ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী সশস্ত্র গোষ্ঠী হামাসের মতে, হামলাটি ছিল গাজা এবং দখলকৃত পশ্চিম তীরে ইসরায়েলের ‘অপরাধের’ একটি ‘স্বাভাবিক প্রতিক্রিয়া’।   উল্লেখ্য, ফিলিস্তিনের গাজায় ইসরায়েলি আগ্রাসন শুরু হওয়ার পর থেকে অধিকৃত পশ্চিম তীর এবং ইসরায়েলে সহিংসতা বৃদ্ধি পেয়েছে। জাতিসংঘ বুধবার জানিয়েছে, গত ১ জুলাই পর্যন্ত ইসরায়েল এবং পশ্চিম তীরে ফিলিস্তিনিদের হামলায় ৯ জন নিরাপত্তা কর্মীসহ ২২ জন ইসরায়েলি নিহত হয়েছে। একই সময়ের মধ্যে পশ্চিম তীরে নিহত হয়েছেন ৫৩৯ জন ফিলিস্তিনি, যাদের বেশিরভাগই প্রাণ হারিয়েছেন ইসরায়েলি বাহিনীর হাতে।  
ইসরায়েলে ফের মুহুর্মুহু রকেট হামলা
ইসরায়েলের ভূখণ্ড লক্ষ করে ফের মুহুর্মুহু রকেট হামলা চালিয়েছে ফিলিস্তিনি সশস্ত্র গোষ্ঠী ‘ইসলামিক জিহাদ’। রয়টার্সের খবরে বলা হয়েছে, সোমবার (১ জুলাই) স্থানীয় সময় অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকা থেকে ইসরায়েলে দফায় দফায় ওই রকেট হামলা চালানো হয়েছে। ইসরায়েলের সামরিক বাহিনী বলেছে, গাজা থেকে ইসরায়েলি বিভিন্ন প্রান্তে প্রায় ২০টি রকেট নিক্ষেপ করা হয়েছে। এই রকেট হামলায় হতাহতের কোনো ঘটনা ঘটেনি। তবে হামলার মাধ্যমে গোষ্ঠীটি ৯ মাস ধরে চলা যুদ্ধের পরও ইসরায়েলে হামলা চালাতে সক্ষম, সেটি ফুটে উঠেছে। ইসলামিক জিহাদের সশস্ত্র শাখা বলেছে, ফিলিস্তিনি জনগণের বিরুদ্ধে ইহুদিবাদী শত্রুর অপরাধের প্রতিক্রিয়ায় গাজা সীমান্ত লাগোয়া ইসরায়েলি কয়েকটি সম্প্রদায়ের দিকে রকেট নিক্ষেপ করেছে তাদের যোদ্ধারা। দক্ষিণ গাজার খান ইউনিসের পূর্বাঞ্চলীয় কয়েকটি বসতির বাসিন্দারা বলেছেন, তারা ইসরায়েলি ফোন নম্বরগুলো থেকে বাড়িঘর ছেড়ে যাওয়ার নির্দেশ সংক্রান্ত কিছু ক্ষুদেবার্তা পেয়েছেন।  কেউ কেউ বলেছেন, এর অর্থ হতে পারে ইসরায়েলি বাহিনী ওই এলাকায় ফিরে আসবে। কারণ কয়েক সপ্তাহ আগে এলাকাটি ছেড়ে চলে গেছে ইসরায়েলি বাহিনী। যদিও ইসরায়েলের সামরিক বাহিনী এই বিষয়ে কোনও মন্তব্য করেনি। এদিকে, সোমবার ইসরায়েলি অধিকৃত পশ্চিম তীরেও সহিংসতা ছড়িয়ে পড়েছে। ফিলিস্তিনের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় বলেছে, সোমবার তুলকারম শহরে ইসরায়েলি বাহিনীর অভিযানে এক নারী ও এক শিশু নিহত হয়েছে। একই এলাকায় একদিন আগে ইসরায়েলি হামলায় ইসলামিক জিহাদের এক সদস্য নিহত হন। গাজার কিছু এলাকা থেকে উপত্যকার ক্ষমতাসীন গোষ্ঠী হামাস ও ইসলামিক জিহাদের সদস্যরা ইসরায়েলি বাহিনীর ওপর হামলা অব্যাহত রেখেছে। ইসরায়েলি সেনাবাহিনী কয়েক মাস আগে এসব এলাকা ত্যাগ করেছে। গত বছরের ৭ অক্টোবর থেকে গাজায় নির্বিচার হামলা চালাচ্ছে ইসরায়েলি বাহিনী। স্থানীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, এ হামলায় এখন পর্যন্ত ৩৭ হাজার ৮৭৭ ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছেন। আহতের সংখ্যা ৮৭ হাজার ছুঁই ছুঁই। ফিলিস্তিনি শরণার্থীবিষয়ক জাতিসংঘের সংস্থা ইউএনআরডব্লিউএ বলেছে, ‘অসহনীয়’ দুর্দশার মধ্যে রয়েছেন গাজার বাসিন্দারা।  
লেবানন ও ইরাক থেকে ইসরায়েলে হামলা
হামাস নির্মূলের নামে ফিলিস্তিনের অবরুদ্ধ গাজায় ইসরায়েলি আগ্রাসনের ৯ মাস হতে চলল। নির্বিচার এ আগ্রাসন থামাতে জাতিসংঘ কিংবা পরম মিত্র যুক্তরাষ্ট্র, কারও কথাতেই কর্ণপাত করছে না দখলদার রাষ্ট্রটির শীর্ষ নেতৃত্ব। ফলশ্রুতিতে ক্রমেই অস্থিতিশীল হয়ে উঠছে মধ্যপ্রাচ্য পরিস্থিতি। সবশেষ ইসরায়েলি সামরিক বাহিনীর গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনাগুলো লক্ষ্য করে লেবানন ও ইরাক থেকে হামলার খবর পাওয়া গেছে একই দিনে।  এর মধ্যে লেবানন থেকে সেখানকার ইসলামি প্রতিরোধ আন্দোলন সংগঠন হিজবুল্লাহর ড্রোন হামলায় ইসরায়েলের ১৮ সেনা আহত হয়েছেন বলে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে ইসরায়েলি সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইসরায়েল। আহত সেনাদের মধ্যে একজনের অবস্থা গুরুতর বলে জানা গেছে। রোববার (৩০ জুন) এই হামলা চালানো হয় বলে নিশ্চিত করেছে ইসরায়েলি প্রতিরক্ষা বাহিনী (আইডিএফ)। টাইমস অব ইসরায়েলের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রোববার বিকেলে গ্যালিলি এবং উত্তর গোলানে একাধিক ড্রোন পাঠায় হিজবুল্লাহ। এর মধ্যে বিস্ফোরক বোঝাই একটি ড্রোন মেরোম গোলান অঞ্চলে আঘাত হানে। এতে ১৮ সেনাসদস্য আহত হয়। তাদের মধ্যে একজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। প্রতিবেদন অনুযায়ী, সকালে লেবাননে ইসরায়েলি বাহিনীর হামলার পাল্টা জবাব দিতেই হিজবুল্লাহ এই হামলা চালিয়েছে বলে জানিয়েছে। বিস্ফোরক বোঝাই ড্রোন দিয়ে ইসরায়েলি সেনাবাহিনীর একটি অবকাঠামোতে এ হামলা চালানো হয়েছে। একইদিন লোহিত সাগরের তীরে অবস্থিত ইলা নামে ইসরায়েলের আরেকটি শহরে হামলা চালানো হয়েছে ইরাক থেকে। দ্য ইসলামিক রেজিসটেন্স নামের একটি সংগঠন এ হামলার দায় স্বীকার করেছে। খবর আল জাজিরার।  এর আগেও ইসরায়েলের গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা লক্ষ্য করে ড্রোন হামলা চালিয়েছে ইসলামিক রেজিসটেন্স। জুনের শুরুর দিকে এসব হামলা চালানো হয়। সে সময় সংগঠনটি জানায় যে, তারা দখলদার ইসরায়েলের গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনাগুলোকে ধ্বংস করে দেবে। গাজায় ইসরায়েলি বাহিনীর হামলাকে কেন্দ্র করেই এসব হামলা চালানো হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এ বিষয়ে বিস্তারিত আর কোনো তথ্য জানা যায়নি। উল্লেখ্য, গত বছরের ৭ অক্টোবর হামাসের এক হামলার প্রেক্ষিতে ফিলিস্তিনের অবরুদ্ধ গাজায় সামরিক অভিযান শুরু করে ইসরায়েল। ৯ মাস হতে চলল, হামাস নির্মূলের নামে গাজার নিরপরাধ মানুষের ওপর নির্বিচার হামলা চালিয়ে যাচ্ছে ইসরায়েলি সেনারা। এ পর্যন্ত ৩৮ হাজারেরও বেশি সাধারণ ফিলিস্তিনি প্রাণ হারিয়েছে ইসরায়েলের আগ্রাসনের শিকার হয়ে। অনতিবিলম্বে গাজা ভূখণ্ডে ‘যুদ্ধবিরতি’ দিতে ইসরায়েলের প্রতি বারবার আহ্বান জানিয়ে আসছে জাতিসংঘ ও বিশ্বের বিভিন্ন রাষ্ট্র। কিন্তু সেদিকে কোনো কর্ণপাত করছে না ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু ও তার সরকার। এমনকি নিজেদের পরম মিত্র মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকেও এক্ষেত্রে তোয়াক্কা করছে না দখলদার রাষ্ট্রটি।  এদিকে গাজায় আগ্রাসনের প্রতিক্রিয়ায় প্রতিদিনই ইসরায়েলি সেনাদের সঙ্গে সংঘাতে জড়াচ্ছে ইরান সমর্থিত বিভিন্ন সংগঠন ও হামাসের মিত্র গোষ্ঠীগুলো। ইয়েমেন, লেবানন এবং ইরান থেকে ইসরায়েলের বিভিন্ন লক্ষ্যে হামলা চালাচ্ছে সংগঠনগুলো। গাজায় নিয়মিত অভিযানের পাশাপাশি এসব দেশেও হামলা চালানো হচ্ছে ইসরায়েলের পক্ষ থেকে।   সম্প্রতি হামলার লক্ষ্যবস্তু চিহ্নিত করে ইসরায়েলি বাহিনীর গুরুত্বপূর্ণ ও স্পর্শকাতর বিভিন্ন স্থাপনার ভিডিও ফুটেজ প্রকাশ করেছে হিজবুল্লাহ। এসব ফুটেজে যেসব গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনাকে চিহ্নিত করা হয়েছে তার মধ্যে রয়েছে নেগেভ মরুভূমিতে অবস্থিত ইসরায়েলের দিমোনা পরমাণু চুল্লি, তেল আবিবের বেন গুরিয়ন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর এবং নেভাতিম বিমানঘাঁটি। এর বাইরে আরও কিছু গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা রয়েছে যার মধ্যে রয়েছে হাকিরিয়া কমপ্লেক্স। সেখানে রয়েছে ইসরায়েলি সামরিক বাহিনীর জেনারেল স্টাফ এবং অনেক শীর্ষ সামরিক কর্মকর্তাদের আবাসস্থল। এছাড়া রয়েছে রামাত ডেভিড বিমান ঘাঁটি এবং লেবানন উপকূলের কারিশ গ্যাসক্ষেত্রও।
তুরস্কের মাটিতে জরুরি অবতরণের পর জ্বালানি পেল না ইসরায়েলি বিমান
তুরস্কের আন্তালিয়া বিমানবন্দরে ইসরায়েলি একটি বিমান জরুরি অবতরণ করার পর সেটিকে জ্বালানি দেননি বিমানবন্দরে কর্মরত কর্মীরা।  রোববার (৩০ জুন) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে টাইমস অব ইসরায়েল। প্রতিবেদন অনুযায়ী, জরুরি অবতরণ করা বিমানটি ইসরায়েলের জাতীয় বিমান সংস্থা ইএল এআই-এর। পরে সংস্থাটি এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, তাদের একটি ফ্লাইট আন্তালিয়া বিমানবন্দরে জরুরি অবতরণ করে। এই বিমানে মেডিকেল ইস্যু থাকলেও জ্বালানি দিতে অস্বীকার করেন বিমানবন্দরের কর্মীরা। তুরস্কের এমন আচারণে পরে অনেকটা বাধ্য হয়ে বিমানটি গ্রিসের রোডসের উদ্দেশে যাত্রা করে। সেখান থেকেই জ্বালানি নিয়ে ইসরায়েলে ফেরে বিমানটি।  তবে তুরস্কের একটি কূটনৈতিক সূত্র জানিয়েছে, ইসরায়েলের একজন অসুস্থ যাত্রীকে সরিয়ে নিতে বিমানটিকে জরুরি অবতরণের অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। মানবিক দিক বিবেচনায় বিমানটিতে জ্বালানি দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়। তবে সব ধরনের প্রাসঙ্গিক কাজ শেষ হওয়ার আগেই ক্যাপ্টেন অন্যত্র চলে যাওয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন। ফিলিস্তিনের অবরুদ্ধ গাজায় ইসরায়েলি আগ্রাসন শুরুর পর থেকেই সরব তুরস্ক। উপত্যকাটিতে ইসরায়েলের নির্বিচার হামলা ও অভিযানে ব্যাপক প্রাণহানি ও ধ্বংসের কারণে দেশটির প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর কঠোর সমালোচনা করে আসছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট এরদোয়ান। এমনকি ইসরায়েলের সঙ্গে চলতি মাসের শুরুর দিকে সব ধরনের ব্যবসা-বাণিজ্য বন্ধ করে দেন তিনি। আঙ্কারার এই সিদ্ধান্তে বেশ ভালো বিপাকে পড়েছে তেল আবিব।