logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ২৩ আগস্ট ২০১৯, ৮ ভাদ্র ১৪২৬

শুধু খামখেয়ালিতে ভাড়া করা বিমানে লোকসান বছরে ১২০ কোটি টাকা

জুলহাস কবীর, আরটিভি
|  ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৭:৪৯ | আপডেট : ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৭:৫৯
বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের কর্মকর্তাদের খামখেয়ালিপনায় ইজিপ্ট এয়ার থেকে লিজ নেয়া নষ্ট দুটি উড়োজাহাজের পেছনে প্রতিবছর ১২০ কোটি টাকা লোকসান হয়েছে। 

bestelectronics
মিশরের ইজিপ্ট এয়ার থেকে ২০১৪ সালে পাঁচ বছরের জন্য দুটি বোয়িং ৭৭৭-২০০ ইআর ড্রাই লিজ নেয় বিমান। লিজ নেয়ার মাত্র কয়েক মাসের মধ্যেই উড়োজাহাজ দুটি নষ্ট হয়ে যায়। 

চুক্তি অনুযায়ী, দুটি উড়োজাহাজের জন্য প্রতিমাসে ১০ কোটি করে বছরে ১২০ কোটি টাকা লোকসান দিতে হচ্ছে বিমানকে। ফলে রাষ্ট্রীয় পতাকাবাহী একমাত্র উড়োজাহাজ সংস্থাটির আয়ের বড় অংশই খরচ হয়ে যাচ্ছে।  

চুক্তি অনুযায়ী, যাত্রী পরিবহন করুক আর না করুক প্রতি মাসে উড়োজাহাজ প্রতি ৪ কোটি ৭০ লাখ ১৬ হাজার টাকা ভাড়া দিতে হবে বিমানকে। পাঁচ বছরের আগে চুক্তি বাতিল করা যাবে না, আবার লিজের মেয়াদ শেষে উড়োজাহাজ দুটি আগের অবস্থায় ফেরত দিতে হবে।  

বিমানের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোসাদ্দেক আহমেদ জানান, বিমানের যন্ত্রাংশ সহজলভ্য নয়। বর্তমানে মেরামতের জন্য উড়োজাহাজ দুটি ভিয়েতনামের বিমানবন্দরে রয়েছে।  

বিমান বিশেষজ্ঞ কাজী ওয়াহিদুল আলম বলেন, কর্তৃপক্ষ চাইলে আরও আগেই বিষয়টির সমাধান করতে পারতো নিজেদের স্বার্থ বিবেচনা না করে চুক্তি করায় উড়োজাহাজ দুটি বিমানের জন্য বোঝা হয়ে দাঁড়িয়েছে। যত দ্রুত সম্ভব এই বিমানগুলো ফেরত দিতে হবে। 

ইজিপ্ট এয়ারের সঙ্গে কথা বলে দ্রুত উড়োজাহাজ দুটি ফেরত দেয়ার ব্যাপারে বিমানকে নির্দেশ দিয়েছেন বিমান প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী। তিনি বলেন, এই ঘটনার সঙ্গে বিমানের কোনও কর্মকর্তা জড়িত থাকলে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে। আর বিমানের ভাবমূর্তি উদ্ধারে সেবার মান বাড়ানোর পাশাপাশি দুর্নীতি রোধ করা হবে।

এসএস

bestelectronics bestelectronics
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়