logo
  • ঢাকা সোমবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২১, ৪ মাঘ ১৪২৭

লাইফস্টাইল ডেস্ক, আরটিভি নিউজ

  ২৪ নভেম্বর ২০২০, ১৬:১৪
আপডেট : ২৪ নভেম্বর ২০২০, ১৬:৫৫

যে সব কারণে ছেলেদের ছেড়ে যায় মেয়েরা

Symbolic image
প্রতীকী ছবি
যে কোনও সম্পর্কে ঝগড়া, ভাঙন থাকেই। অনেক সময় ভুল বোঝাবুঝি হয়। কিন্তু এসবের পরও প্রতারিত হতে হয়। মানুষ চেনা এমনই কঠিন কাজ। স্বামী যেমন স্ত্রীকে ঠকায় তেমন প্রেমিককে ঠকায় প্রেমিকা। তবে সম্পর্ক থেকে বেরিয়ে আসার ক্ষেত্রে কিছু সময় বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ কারণ থাকে মেয়েদের হাতে। স্রেফ ভালো লাগছে না বলেও অনেকে বেরিয়ে আসেন। কিন্তু কখন মেয়েরা ঠকায়, জানতে চান?

যথাযোগ্য ভালোবাসা না পেলে

অনেক ছেলে আছেন যারা বছর দুই প্রেমের পর প্রেমিকাকে ফোন করা কিংবা খোঁজ নেওয়া এসব তাদের মধ্যে থাকে না। এমনকি প্রেমিকাকে সময় না দিয়ে বন্ধুদের সঙ্গে সময় দিতে ভালোবাসেন। স্ত্রী কিংবা প্রেমিকা ছাড়া বন্ধুরা তাদের কাছি দামি। কিন্তু কখন এই সত্যিটা তারা স্বীকার করতে চান না। এমনকি স্ত্রী বা প্রেমিকাকে আর পাঁচজনের মতো তারা দেখেন। আলাদা করে খেতে, ঘুরতে যেতে চান না। বেশ কয়েক বার বলার পর মেয়েরা চুপচাপ সেই সম্পর্ক থেকে বেরিয়ে আসতে বাধ্য হন। নিজের শূন্যতা পূরণ করতে অন্য কোনও সঙ্গী খুঁজে নেন।

নতুন সঙ্গীর খোঁজে

ইদানিং অনেক মেয়েকে দেখা যায় যারা একজন সঙ্গীতে খুশি হতে পারেন না। কিছুদিন যেতে না যেতে তাদের সবকিছু একঘেঁয়ে লাগতে শুরু করে। সম্পর্কে থাকতে থাকতেই তারা অন্য সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন। খুব বেশি ২ বছর তাঁরা একটি সম্পর্কে থাকতে পারেন। তারপর নানা সমস্যার দোহাই দিয়ে সেই সম্পর্ক থেকে বেরিয়ে আসেন। সঙ্গীকে ঠকিয়ে নতুন সঙ্গী খুঁজে নেয়াই এদের উদ্দেশ্য।

প্রতিশোধ নিতে

অনেকের মধ্যে মারাত্মক প্রতিশোধ স্পৃহা থাকে। যদি মেয়েটিকে আগে কেউ ঠকিয়ে থাকে সেই মানসিক যন্ত্রণা থেকেই তার মধ্যে প্রতিশোধ স্পৃহা জেগে ওঠে। এমনকি তখন ঠাণ্ডা মাথায় পুরোটা পরিকল্পনা করে এই প্রতিশোধের চেষ্টা করে। 

সম্পর্কে সুখী না হলে

একটি সম্পর্কে উভয়ের সুখী হওয়া প্রয়োজন। শারীরিক ও মানসিক দুদিক থেকেই। কথায় কথায় ঝগড়া, অশান্তি, ঝামেলা এসব কেউই পছন্দ করে না। সব থাকা সত্ত্বেও কীসের যেন অভাবে সম্পর্কে একটা টানহীন ভাব অনুভূত হতে থাকে। এইরকম অবস্থায় মেয়েরা বেশিদিন মানিয়ে চলতে পারে না। তখনই সম্পর্ক থেকে বেরিয়ে আসতে চায়। 

যৌন সম্পর্কে সমস্যা থাকলে

যে কোনও সম্পর্কে মানসিক চাহিদার পাশাপাশি শারীরিক চাহিদাও থাকে। মুখে যে যাই বলুক সম্পর্কে যৌনতা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। স্বামী-স্ত্রী একে অপরের থেকে যৌনতৃপ্তি পেতে চান। অনেক সময় প্রেমিক-প্রেমিকাও তাই চান। অনেকক্ষেত্রে দেখা যায় ছেলেটি মেয়েটির সঠিক যৌন চাহিদা পূরণ করতে পারছে না। দিনের পর দিন কোনও মেয়ে বিষয়টি সহ্য করবেন না। তাই বুঝতে পারলে তারা সেখান থেকে সরে আসেন। সূত্র: এই সময়

আরও পড়ুন...
প্রতিদিন যে কাজগুলো করলে আপনার সন্তান উৎপাদন ক্ষমতা কমবে
বিচ্ছেদের পর এই বোকামিগুলো আপনিও করেন?
রাতে বালিশের নীচে রসুন রাখলে যে শক্তি বাড়ে

জিএ

RTV Drama
RTVPLUS