• ঢাকা শুক্রবার, ২৪ মে ২০১৯, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬

মিশন ইম্পসিবল পূরণে বার্সার সামনে লিভারপুল

স্পোর্টস ডেস্ক, আরটিভি অনলাইন
|  ০৭ মে ২০১৯, ১২:৩১ | আপডেট : ০৭ মে ২০১৯, ১২:৩৭
ছবি-সংগৃহীত
আগের মৌসুমের স্মৃতি যাতে না আসে এ কামনা করেই অ্যানফিল্ডে পা রেখেছে বার্সেলোনা। যদিও ঘটনাটা গত মৌসুমে কোয়ার্টারে ঘটেছিল প্রতিপক্ষ ছিল রোমা কিন্তু কাকতালীয়ভাবে তো গোলের সংখ্যা মিলে গেছে। সেবার প্রথম লেগে ক্যাম্প ন্যু তে ৪-১ গোলে এগিয়ে থাকলেও দ্বিতীয় লেগে স্তাদিও অলিম্পিকোতে ৩-০ গোলে পরাজিত হয়ে অ্যাওয়ে গোলের সুবিধা নিয়ে সেমিতে যায় রোমা।

whirpool
তাই এমন বারুদে ম্যাচের আগে আত্মতুষ্টিতে ভুগতে নারাজ বার্সা শিবির। যেমনটা বলছিলেন বার্সা বস- লিভারপুল এমন এক দল, যাদের সামর্থ্য রয়েছে যেকোনো প্রতিপক্ষকে ভোগানোর। আমাদের জন্য প্রথম লেগের ফল ভালো হয়েছে। কিন্তু আমার মনে কোনও সন্দেহ নেই যে, ফাইনালে যাওয়ার লড়াইটা এখনও উন্মুক্ত।

আজ লিভারপুলকে জিততে হলে অনেকটা অসাধ্যই সাধন করতে হবে। কারণ আজ অল রেডসদের জিততে হবে কমপক্ষে ৩-০ গোলে। পক্ষান্তরে বার্সা যদি একটি দিয়ে বসে সেক্ষেত্রে অতিরিক্ত দুটি গোল বেশি করতে হবে লিভারপুলকে।

তবে ইতিহাসের সেরা কামব্যাকের উদাহরণ কিন্তু লিভারপুল দিয়েছে ২০০৫ সালে ইস্তাম্বুলে। এসি মিলানের সঙ্গে ফাইনালে প্রথমার্ধে ৩ গোলে পিছিয়ে পড়েও পরে ৩ গোল দিয়েছিল তারা। পরে টাইব্রেকারে সেসময়ের ফেভারিট মিলানকে স্তব্ধ করে দিয়ে চ্যাম্পিয়নস লিগে জেতে লিভারপুল।

আবার ঐতিহাসিক কামব্যাকের জলন্ত উদাহরণ তো বার্সার কাছেও আছে। পিএসজির কাছে ৪-০ গোলে হেরে দ্বিতীয় লেগে তারা ক্যাম্প ন্যুয়ে জিতেছিল ৬-১ গোলে।

তবে কামব্যাক যে সহজ হবে না মানছেন অল রেডস বস। কারণ দলের আপফ্রন্টের দুই প্রধান ভরসা মোহাম্মদ সালাহ ও রবার্তো ফিরমিনোকে ছাড়াই কঠিন লড়াইয়ে অবতীর্ণ হচ্ছে তারা। হাল না ছাড়ার ঘোষণা দিয়ে ক্লপ বলেন, বিশ্বের অন্যতম সেরা দুই স্ট্রাইকারকে আমরা পাচ্ছি না কাল (আজ) রাতে। এদিকে ফাইনালে উঠতে হলে ৯০ মিনিটের মধ্যে বার্সেলোনাকে চার গোল দিতে হবে। কাজটি মোটেই সহজ না। কিন্তু মাঠে যতক্ষণ ১১ জন থাকবে, আমরা চেষ্টা করে যাব।

এদিকে আগের ম্যাচেই লিভারপুলের বিপক্ষে গোল না পাওয়ার গেরো খুলেছিলেন মেসি। এবারও তেমন কিছু তার কাছে থেকে আশা করবে বার্সা। তবে মেসিকে ছাড়িয়ে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে থাকতে পারেন সুয়ারেজ-কুতিনহোরাও। কারণ এরা দুজনই লিভারপুলের সাবেক খেলোয়াড়। তাই দর্শকদের দুয়োধ্বনি নিয়েই খেলতে হতে পারে তাদের।

আজকের ম্যাচের আগে পরিসংখ্যানেও সমানে সমান বার্সা-লিভারপুল। সরাসরি ৯ দেখায় বার্সেলোনা ৩টিতে, লিভারপুল ৩টি জয় পেয়েছে। বাকি তিন ম্যাচ হয়েছে ড্র। যদিও সবশেষ ম্যাচে জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে বার্সেলোনা।

এএ/পি

 

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়

আজকের প্রশ্ন :

  • হ্যাঁ
    ক্লিক করুন
  • না
    ক্লিক করুন
  • মন্তব্য নেই
    ক্লিক করুন
মোট ভোট সংখ্যা : ৩০