Mir cement
logo
  • ঢাকা সোমবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

গয়না চুরি নিয়ে ঝগড়া, ছেলের হাতে ‘খুন’ বাবা

গয়না চুরি নিয়ে ঝগড়া, ছেলের হাতে ‘খুন’ বাবা
ফাইল ছবি

উত্তরপাড়ার পর বীরভূম। ফের খুন বাবা। হত্যাকারী হিসাবে চিহ্নিত সন্তানই। এবার নিজের বাড়িতেই ‘খুন’ হলেন বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তারক্ষী। শুক্রবার গভীর রাতে ওই ব্যক্তিকে তাঁর ছেলে খুন করেছে বলে অভিযোগ ওঠে। গয়না নিয়ে বিবাদের জেরে ধারাল অস্ত্রের আঘাতে ওই ব্যক্তির প্রাণহানি হয়েছে বলেই খবর। ঘটনার পর থেকেই পলাতক অভিযুক্ত যুবক। তার ছেলের খোঁজ শুরু করেছে পুলিশ।

নিহত বয়স ৫৩। সাবির আলি বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তারক্ষী ছিলেন। ভারতের বীরভূমের মল্লারপুরের হাজিপুরের বাসিন্দা ছিলেন তিনি। তিন ছেলে এবং স্ত্রী রয়েছে তার। বড় ছেলে কর্মসূত্রে বাড়ি ছেড়ে দূরে থাকেন। মেজো এবং ছোট ছেলে একসঙ্গেই বসবাস করেন। দিনকয়েক আগে বিশ্বভারতীর নিরাপত্তারক্ষীর মেজো ছেলে আবু তাহের আলি দাবি করেন তার সোনার গয়না চুরি গিয়েছে। অভিযোগ, তার ছোট ভাই চুরি করেছে। মল্লারপুর থানায় অভিযোগ দায়েরও করেন তিনি।

শুক্রবার রাতে বাড়িতে তা নিয়ে আলোচনা শুরু হয়। তবে কথাবার্তা চলাকালীন দুই ভাই বচসায় জড়িয়ে পড়েন। অভিযোগ, ছোট ভাই সাহাবুদ্দিন আলি তার দাদাকে মারধর করতে শুরু করে। তাতেই বাধা দেন সাবির আলি নামে বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তারক্ষী। অভিযোগ, সেই সময় ওই ব্যক্তির হাতে ভোজালি দিয়ে আঘাত করে তার ছোট ছেলে। রক্তাক্ত অবস্থায় লুটিয়ে পড়েন ওই ব্যক্তি।

পরিস্থিতি বেগতিক বুঝে পালিয়ে যায় বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তারক্ষীর যুবক। মল্লারপুর থানায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে। পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। তবে এখনও গ্রেপ্তার হয়নি ওই যুবক। সূত্র: সংবাদ প্রতিনিধি।

এসএস/এসকে

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS