Mir cement
logo
  • ঢাকা বৃহস্পতিবার, ১৭ জুন ২০২১, ৩ আষাঢ় ১৪২৮

করোনা রোগীদের মৃতদেহ দাহ করতে এগিয়ে এলো তাবলিগ জামাত

প্রতীকী ছবি।

ভারতে করোনার প্রথম ঢেউয়ের সময় ধর্মীয় সমাবেশকে কেন্দ্র করে রাতারাতি ‘অপরাধী’ তকমা সেঁটে গিয়েছিল গায়ে। শুধু তাইনা দেশদ্রোহ এবং খুনের মামলা পর্যন্ত দায়ের হয়েছিল তাদের বিরুদ্ধে। সেই বিতর্ক পেছনে ফেলে করোনায় মৃতদের সৎকারে ঝাঁপিয়ে পড়লো সুন্নি ইসলামি সংগঠন তাবলিগ জামাত।

অন্ধ্রপ্রদেশের তিরুপতি অঞ্চল করোনায় দিশেহারা। এক চিতায় ১০ জনের দেহ তোলার পরিবর্তে ধর্মীয় আচার মেনে যাতে প্রত্যেক করোনা রোগীর সৎকার করা যায়, সেই কাজে হাত লাগাল তারা।

অন্ধ্রপ্রদেশের তিরুপতিতেই কোভিড রোগীদের সৎকারের কাজে হাত লাগিয়েছে তাবলিগ জামাত। সেখানে ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সকলেরই দেহ সৎকার করছে তারা।

ভারতীয় গণমাধ্যমের খবর, গত এপ্রিল মাসে ওই অঞ্চলে দৈনিক প্রায় ১৫টি করে শব দাহ করেছেন তাদের স্বেচ্ছাসেবকরা। আর অতিমারির একেবারে সূচনা পর্ব থেকে সবমিলিয়ে ৫৬৩টি শব দাহ করেছে তাবলিগ জামাত।

জানা গেছে, এই কাজটি করার জন্য তিরুপতি ইউনাইটেড মুসলিম অ্যাসোসিয়েশনের অধীনে কোভিড-১৯ জয়েন্ট অ্যাকশন কমিটি (জেএসি) গঠন করেছে তারা।

তাবলিগ জামাতের সদস্য জেএমডি গৌসে বলেন, ‘‘গত বছর করোনার দায় আমাদের ওপর চাপানো হয়েছিল। আর এখন আমাদের প্রশংসা শুনছি।’’

বর্তমানে তিরুপতিতে তাদের ৬০ জন স্বেচ্ছাসেবক তিনটি আলাদা আলাদা দল গড়ে কাজ করছেন। হিন্দু, মুসলিম কিংবা খ্রিস্টান— ধর্মবিশ্বাস অনুযায়ী রীতিনীতি মেনেই দেহ সৎকার করছে তাবলিগ জামাত।

এম

RTV Drama
RTVPLUS