logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ১৬ এপ্রিল ২০২১, ৩ বৈশাখ ১৪২৮

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, আরটিভি নিউজ

  ০২ এপ্রিল ২০২১, ১১:৪৪
আপডেট : ০২ এপ্রিল ২০২১, ১১:৫২

একসঙ্গে এত টাকা চুরি করে হার্ট অ্যাটাক, চুরির টাকাতেই চিকিৎসা

Overjoyed after stealing Rs 7 lakh, thief suffers heart attack; spends loot on treatment in UP
প্রতীকী ছবি

একসঙ্গে এত বেশি টাকা চুরি করতে পারবেন স্বপ্নেও ভাবেননি তারা। কিন্তু স্বপ্নাতীত পরিমাণ টাকা চুরি করার পর আনন্দের আতিশয্যে একজন হার্ট অ্যাটাক করেন। পরে চুরি করা টাকা দিয়েই নিজের চিকিৎসা করান ওই চোর। গত মাসে ভারতের উত্তরপ্রদেশের মীরুটের বিজনোরের কোতোয়ালি দেহাত এলাকায় এই চুরির ঘটনা ঘটে। সম্প্রতি ওই দুই চোরের একজন পুলিশের হাতে ধরা পড়ে। এরপরই এই চাঞ্চল্যকর ঘটনা সামনে আসে।

বিজনোরের পুলিশ সুপার ধর্ম বীর সিং বলেছেন, ওই দুই চোর নওয়াব হায়দার নামে এক ব্যক্তির মালিকানাধীন পাবলিক সার্ভিস সেন্টারে গত ১৬ ও ১৭ ফেব্রুয়ারি রাতে চুরি করে। পরে হায়দার পুলিশে এক অভিযোগে জানায় যে, সেন্টারটি থেকে ৭ লাখ রুপি চুরি গেছে। পরে পুলিশ অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে তদন্ত শুরু করে।

তবে বুধবার পুলিশ জানায়, তারা এই মামলার দুই আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে। তাদের নাম- নওশাদ ও আজাজ। তাদের বয়স ৩০-র কোঠায়। এই দুইজনকে নাগিনা পুলিশ স্টেশনের আওতাধীন আলিপুর থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। একটি রেস্টুরেন্ট থেকে এই দুইজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানান বিজনোরের পুলিশ সুপার।

ধর্ম বীর সিং বলেন, এই দুইজন দাগী আসামি। তাদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় মামলা রয়েছে। তারা এই চুরির কথা স্বীকার করেছে। তারা জানিয়েছে, তারা ভেবেছিল যে হয়তো আলমারিতে কয়েক হাজার রুপি আছে। কিন্তু এত বিপুল পরিমাণ রুপি পেয়ে তারা খুব খুশি হয়। টাকা সমানভাবে ভাগও করে নেয় দুজন। কিন্তু খুশির আতিশয্যে আজাজের হার্ট অ্যাটাক হয়। তারপর তাকে একটি প্রাইভেট হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে চুরির টাকা দিয়েই তার চিকিৎসা হয়। আর নওশাদ তার টাকা দিয়ে জুয়া খেলে।

RTV Drama
RTVPLUS