logo
  • ঢাকা সোমবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৩ আশ্বিন ১৪২৭

ভোলায় ঝড়ো বাতাসে উত্তাল মেঘনা, ভেসে গেছে ফেরিঘাট 

  ভোলা প্রতিনিধি, আরটিভি নিউজ

|  ০৫ আগস্ট ২০২০, ১৯:৪০ | আপডেট : ০৫ আগস্ট ২০২০, ২০:০৬
Meghna in the wind in Bhola, the ferry has been washed away
ভোলায় ঝড়ো বাতাসে উত্তাল মেঘনা, ভেসে গেছে ফেরিঘাট 
ভোলায় আজ বুধবার দুপুরের পর থেকে বেড়ে যায় ঘূর্ণি দমকা বাতাসে গতি। রুদ্রমূর্তি ধারণ করা মেঘনার ঢেউ একের পর এক আঁচড়ে পড়ায় ইলিশা ফেরিঘাট, লঞ্চঘাট ভেসে গেছে। তলিয়ে গেছে ওই এলাকা। ধনিয়া, তুলাতুলি, ইলিশা, রাজাপুর এলাকার শহর রক্ষা বাঁধে ধস দেখা দেয়। রাজাপুর জোরখালে ভয়াবহ ভাঙন শুরু হয়। বাঁধের ভাঙন ঠেকাতে স্থানীয়রা দিশেহারা হয়ে পড়েছেন। 

এদিকে ফেরি চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। এতে ঢাকা ও চট্টগ্রামগামী কয়েক হাজার মানুষ আটকা পড়েছে। ঘাটে এসে এমন পরিস্থিতি দেখে ফিরে যেতে বাধ্য হয় ওই যাত্রীরা। 

অপরদিকে দুপুরে ডুবে গেছে ৪টি ট্রলার। এর মধ্যে মনপুরা দক্ষ্ণি সাকুচিয়ার তালতলি এলাকায় ডুবে যাওয়া দুই ট্রলারের ১৮ জেলেকে জীবিত উদ্ধার করা সম্ভব হয়েছে। অন্যদিকে ভোলার ইলিশা ও তুলাতুলি এলাকায় নদীর পাড় এলাকায় ডুবে যায় আরও দুটি ট্রলার। 

সকালে ভোলার ইলিশা ঘাট থেকে ৫ শতাধিক যাত্রী নিয়ে লক্ষ্মীপুর মজুচৌধুরী ঘাটের উদ্দেশ্যে ছেড়ে সি-ট্রাক খিজির-৫ ঝড়ের তোড়ে ডুবে ডুবো অবস্থা সৃষ্টি হয়। পরে মাঝ নদীতে একটি চরে আশ্রয় নিয়ে রক্ষা পায়। অপরদিকে ইলিশা ঘাট থেকে যাত্রী নিয়ে ছেড়ে যেতে পারেনি এমভি পারিজাত, দোয়েল পাখি ও সি-ট্রাক-৮। 

--------------------------------------------------------------
 আরও পড়ুন: ছয়দিনের ছুটি শেষে খুলল আখাউড়া স্থলবন্দর
--------------------------------------------------------------

এদিকে ঢাকা ও চট্টগ্রামগামী কয়েক হাজার যাত্রী ইলিশা ঘাটে আটকা পড়েছে। ভোলা নদী বন্দরের সহকারী পরিচালক মো. কামরুজ্জামান জানান, নদী হঠাৎ উত্তাল হওয়ায় নৌযানগুলোকে সতর্ক চলাচল করতে বলা হয়েছে। 

পানি উন্নয়ন বোর্ডের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী আব্দুল মান্নান জানান, শহর তলির তুলাতলি এলাকায় শহর রক্ষা বাঁধের উপর মেঘনার ঢেউ আঁচড়ে পড়ছে। বাঁধ রক্ষায় তারা কাজ করছেন। তুলাতুলির বাঁধের উপরের একটি ওয়ার্কশপ ভাসিয়ে নিয়ে গেছে। 
রাজাপুর ও ইলিশা হাজিকান্দি শহর রক্ষা বাঁধের বিকেল ৫টার মধ্যে তিন ভাগের ২ ভাগ ধসে গেছে। বাতাস অব্যাহত থাকলে ওই বাঁধ ধসে জেলা সদর তলিয়ে যাওয়ার আশংকা করছেন স্থানীয়রা।

এসএস

RTVPLUS
bangal
corona
দেশ আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ৩৫৫৪৯৩ ২৬৫০৯২ ৫০৭২
বিশ্ব ৩,২১,৯৬,৬৫৫ ২,৩৭,৫১,১৩৪ ৯,৮৩,৬০৯
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • দেশজুড়ে এর সর্বশেষ
  • দেশজুড়ে এর পাঠক প্রিয়