logo
  • ঢাকা সোমবার, ০১ মার্চ ২০২১, ১৬ ফাল্গুন ১৪২৭

স্পোর্টস ডেস্ক, আরটিভি নিউজ

  ২৬ জানুয়ারি ২০২১, ১৮:২৭
আপডেট : ২৬ জানুয়ারি ২০২১, ১৮:৩৭

চট্টগ্রাম বলেই রোমাঞ্চটা বেশি রাব্বির

ইয়াসির আলী রাব্বি

দীর্ঘ দশ মাস পর দেশে ফিরেছে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট। তারও বেশি সময় পর চট্টগ্রামে অনুষ্ঠিত হয়েছে আন্তর্জাতিক ম্যাচ। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ১টি ওয়ানডে ও ১টি টেস্ট খেলতে বন্দর নগরীতে অবস্থান করছে টাইগাররা।

ওয়ানডে ম্যাচে উইন্ডিজদের হারিয়ে এবার লক্ষ্য টেস্ট সিরিজে। আগামী ৩ ফেব্রুয়ারি থেকে জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে শুরু হবে সিরিজের প্রথম টেস্ট। তার আগে ২৯ জানুয়ারি থেকে রয়েছে ৩ দিনের অনুশীলন ম্যাচ। এই ম্যাচের একাদশে রয়েছেন চট্টগ্রামের ছেলে ইয়াসির আলী রাব্বি।

আগামী ৩১ তারিখে হবে প্রথম টেস্টের দল ঘোষণা, তার আগে এই অনুশীলন ম্যাচটা দেখবেন নির্বাচকরা। মূল দলে রাব্বির জায়গা হবে কী না এমনটা নিশ্চিত না হলেও দলের সঙ্গে আছেন বলেই রোমাঞ্চিত এই ব্যাটসম্যান।

‘প্রায় এক বছর পর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরছি আর সেটা যদি হয় চট্টগ্রাম থেকে, আমার হোম টাউন তো অন্য রকম এক রোমাঞ্চ কাজ করছে। জানি না হয়তো একাদশে থাকার সুযোগ হবে কি হবে না কিন্তু এটা একটা ভালো লাগার বিষয় যে আমি দলের সঙ্গে আছি।’

শুধু যে দলে আছেন বলেই নয়, এই দলে সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবাল, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, মুশফিকের মতো অভিজ্ঞ আর দেশসেরা ক্রিকেটারদের সঙ্গে থাকছেন বলেই তার রোমাঞ্চের শেষ নেই।

‘ক্যাম্প শুরুর সময় থেকেই রোমাঞ্চিত আমি। কারণ আমি আগে কখনও সাকিব ভাই, মুশফিক ভাই, তামিম ভাই, রিয়াদ ভাই সবাইকে এক সঙ্গে কখনও পাইনি। প্রথম থেকেই ওয়ানডে সিরিজের ক্যাম্প থেকেই খুব রোমাঞ্চিত ছিলাম যে আমি তাদের সঙ্গে ড্রেসিংরুম ভাগাভাগি করে নিতে পারছি। এখন টেস্টে এসে দেখা যাচ্ছে উনাদের তিনজনকে আবার পাচ্ছি। হ্যাঁ, সত্যিই আমি রোমাঞ্চিত। সত্যি বলতে যেহেতু তামিম ভাই সাকিব ভাই এনাদেরকে ছোট থেকে দেখেই বড় হয়েছি ক্রিকেটে। আসলেই আমি রোমাঞ্চিত যেটা আমি বলতে পারব না ভাষায় প্রকাশ করতে পারব না।’

রাব্বি স্বীকার করছেন আগের থেকে অনেক উন্নতি হয়েছে তার ব্যাটিংয়ে। শুধু ব্যাটিংয়েই নয়, মানসিকতায়ও পরিবর্তন এসেছে বলেও জানান রাব্বি।

‘এক বছর ধরে যে জিনিসিটা বেশি উন্নতি হয়েছে ওেই জিনিসিটা হচ্ছে মানসিক দৃঢ়তা। অনেক বেশি উন্নতি হয়েছে। আগে দেখা যেত একটা দুইটা ইনিংস খারাপ খেললে বা খারাপ সময় আসলে ভেঙে পড়তাম কিন্তু এখন আল্লাহর রহমতে ওই রকম না। এখন জানি আমি যদি পরিশ্রম করি তবে ভালো সময়ে ফেরা যায়। আমি বলব মানসিকভাবে এই জিনিসটা অনেক উন্নতি হয়েছে।‘

প্রস্তুতি ম্যাচে ১৪ সদস্যের দল: নুরুল হাসান সোহান, মাহমুদুল হাসান জয়, আকবর আলী, তৌহিদ হৃদয়, মুকিদুল ইসলাম মুগ্ধ, শাহিন আলম, রিশাদ হোসেন, সাইফ হাসান, সাদমান ইসলাম অনিক, ইয়াসির আলী রাব্বি, শাহাদাত হোসেন দিপু, নাইম শেখ, শরিফুল ইসলাম ও সৈয়দ খালেদ আহমেদ।

এমআর/

RTV Drama
RTVPLUS