logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

স্পোর্টস ডেস্ক, আরটিভি নিউজ

  ৩০ অক্টোবর ২০২০, ২১:১০
আপডেট : ৩০ অক্টোবর ২০২০, ২১:১৪

হারের আগে পাকিস্তানকে কাঁপুনি ধরিয়েছে জিম্বাবুয়ে

Zimbabwe shook Pakistan before losing
ছবি- ক্রিকইনফো
গেলো মার্চে বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজ খেলে যাওয়ার পর আর কোনো ম্যাচ খেলেনি জিম্বাবুয়ে। এর মাঝে ইংল্যান্ড সফর করেছে পাকিস্তান। খেলার ভেতর না থেকেও কী দুর্দান্ত জিম্বাবুয়ে।

স্বাগতিক পাকিস্তানের বিপক্ষে ৩ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচে হারিয়েই দিচ্ছিল জিম্বাবুয়ে। ব্রেন্ডন টেইলরের দুর্দান্ত শতক কাঁপুনি ধরিয়ে দিয়েছিল পাকিস্তান শিবিরে। টেইলর যখন শাহীন আফ্রিদির বলে ক্যাচ দিয়ে বিদায় নেন তখন পিসিবি প্রধান এহসান মানির চেয়ার ছেড়ে উঠে আসাটাই হাঁফ ছেড়ে বাঁচার প্রমাণ।

রাওয়ালপিন্ডি স্টেডিয়ামে দুপুরে টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন স্বাগতিক অধিনায়ক বাবর আজম। ব্যাট করতে নেমে পাকিস্তানের দুই ওপেনারের দারুণ শুরু। ইমাম উল হক তুলে নেন অর্ধশতক। আবিদ আলী কার্ল মুম্বার বলে এলবিডব্লু হয়ে ২১ রানে সাজ ঘরে ফিরলে ওপেনিং জুটি ভাঙে ৪৭ রানে।

অধিনায়ক বাবর আজম ফিরেছেন মুজারাবানির বলে ক্যাচ দিয়ে ১৯ রান করে। দলীয় ১১৯ রানের মাথায় ইমাম উল হক ৫৮ রান করে ফেরেন রান আউট হয়ে।

টপ, মিডল অর্ডারে কম বেশি রান এসেছে সবার থেকেই। চার নম্বরে ব্যাট করতে নামা হারিস সোহেল খেলেন ইনিংসের সর্বোচ্চ ৭১ রান। এছাড়া ইমাদ ওয়াসিমের ৩৪ রানে ভর করে ৮ উইকেটে ২৮১ রান তোলে পাকিস্তান।

জিম্বাবুয়ের হয়ে ২টি করে উইকেট নেন টেন্ডাই চিসরো, ব্লেসিং মুজারাবানি। ১টি করে উইকেট নেন কার্ল মুম্বা ও সিকান্দার রাজা।

বড় লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে দুই ওপেনার হতাশ করেন জিম্বাবুয়েকে।  ব্রায়ান চারি ২ আর চামু চিবাবা ফেরেন ১৩ রানে। দুজনকেই ফেরান শাহীন আফ্রিদি।

এরপর ক্রেইগ আরভিন আর ব্রেন্ডন টেইলরের জুটি শক্ত ভিত এনে দেয় সফরকারীদের।আরভিন ৪১ রানে ফেরেন ইমাদ ওয়াসিমের বলে ক্যাচ দিয়ে। শেন উইলিয়ামসনকে ৪ রানে ফেরান ওয়াহাব রিয়াজ।

তবে ব্রেন্ডন টেইলরকে টলাতে বেশ বেগ পেতে হয়েছে পাকিস্তানি বোলারদের। ওয়েসলে মাধবেরের সঙ্গে জুটি গড়ে তুলে নেন শতক। দুজনের ব্যাটে জয়ের দ্বারপ্রান্তে পৌঁছে যায় জিম্বাবুয়ে।

মাধবেরে ৫৫ রানে সাজঘরে ফিরলেও টেইলরের ব্যাট তখনও শাসাচ্ছে আফ্রিদি, রিয়াজদের। তার ব্যাটে পাকিস্তান শিবিরের যখন কাঁপুনি ধরেছে ঠিক তখনই আফ্রিদিকে ছয় হাঁকাতে গিয়ে বল ভাসিয়ে দেন শূন্যে। দলীয় ২৪০ রানের মাথায় ১১৬ বলে ১১২ রানের দারুণ এক ইনিংস খেলে টেইলরের সাজঘরে ফেরার সঙ্গে জয়ের স্বপ্নও ফিকে হয়ে যায় জিম্বাবুয়ের।

লোয়ার-অর্ডারের ব্যাটিং ব্যর্থতায় বাকি ৪৮ রান আর তুলতে পারেনি। তাতে ৪৯ ওভার চার বলে ২৫৫ রান তুলতেই সব উইকেট হারিয়ে ফেলে সফরকারীরা। ২৬ রানের জয়ে হাঁফ ছেড়ে বাঁচে পাকিস্তান।

শাহীন আফ্রিদি তুলে নেন ৪৯ রান দিয়ে ৫ উইকেট। ৪ উইকেট নেন ওয়াহাব রিয়াজ আর বাকি ১ উইকেট নেন ইমাদ ওয়াসিম।

এমআর/এম 

RTVPLUS