• ঢাকা সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ১০ আষাঢ় ১৪৩১
logo

শুধু বাজেট প্রণয়ন করেই চলমান সংকট মোকাবিলা সম্ভব নয়

সাদিয়া কানিজ

  ১০ জুন ২০২৪, ১২:৪৩

শুধু বাজেট প্রণয়ন করেই চলমান অর্থনৈতিক সংকট মোকাবিলা সম্ভব নয়। এমনকি প্রস্তাবিত বাজেট বাস্তবতার সঙ্গে অসামঞ্জস্যপূর্ণ বলেও মত অর্থনীতিবিদদের। অর্থনৈতিক স্থিতিশীলতা আনতে রেমিট্যান্স প্রবাহ, রপ্তানি প্রবৃদ্ধিসহ অভ্যন্তরীণ অর্থনৈতিক ব্যবস্থাপনায় উন্নয়ন জরুরি বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা।

করোনা পরবর্তী অর্থনৈতিক চাপে ২০২১ সালের সেপ্টেম্বর থেকে বাংলাদেশে কমতে থাকে বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ। রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ বাধলে বিশ্বজুড়ে বেড়ে যায় জ্বালানির দাম, দ্রব্যমূল্য আর পরিবহন ভাড়া। এতে দেশে দেখা দেয় ডলার সংকট। গেল মাসে বাংলাদেশের রিজার্ভ ছিল ১৮ দশমিক ৪২ বিলিয়ন ডলার।

এমন পরিস্থিতিতে ২০২৪-২৫ অর্থবছরের বাজেটে ডলার সংকট কাটাতে বিদেশি বিনিয়োগ টানার আভাস দিয়েছে সরকার। তবে ঠিক কীভাবে রিজার্ভ বাড়বে তার সুনির্দিষ্ট কোনো পরিকল্পনা নেই বলে মনে করছেন অর্থনীতিবিদরা।

ডলার সংকট ছাড়াও ঋণ ও কর খেলাপি, অর্থ পাচারসহ নানা কারণে অর্থনৈতিক অস্থিরতা বিরাজ করছে। সেজন্য বাজেট বহির্ভূত অর্থনৈতিক ব্যবস্থাপনার ওপর নির্ভরশীলতা আরও বাড়ানোর পরামর্শ সিপিডির বিশেষ ফেলো ডক্টর মোস্তাফিজুর রহমানের।

ডলার সংকট কমাতে অফশোর ব্যাংকিং ইউনিটে আমানতকারীদের হিসাবের ওপর আরোপিত আবগারি শুল্ক অব্যাহতির প্রস্তাব করা হয় বাজেটে। এতে বৈদেশিক মুদ্রার প্রবাহ বৃদ্ধি, রিজার্ভ ও এলসি খোলার সংকট সমাধানসহ বিদেশি বিনিয়োগকে উৎসাহিত করবে বলে মনে করছেন অর্থনীতিবিদরা।

তবে শুধু কর অব্যাহতি দিয়ে নয়, এর জন্য মানুষের মধ্যে আস্থা তৈরি করা জরুরি বলে অভিমত সিপিডির নির্বাহী পরিচালক ফাহমিদা খাতুনের।

মন্তব্য করুন

daraz
  • বিশেষ প্রতিবেদন এর পাঠক প্রিয়
আরও পড়ুন
‘চলমান অর্থনৈতিক সঙ্কটের মধ্যেও জনকল্যাণমুখী বাজেট’
কারও প্রেসক্রিপশন মেনে বাজেট প্রণয়ন করা হয়নি: কাদের