logo
  • ঢাকা সোমবার, ০৮ মার্চ ২০২১, ২৩ ফাল্গুন ১৪২৭

বাংলাকে দাপ্তরিক ভাষা করতে জাতিসংঘের টাকা দাবি

UN demands money to make Bengali the official language
পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন এমপি

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন এমপি বলেছেন, ‘বাংলাকে দাপ্তরিক ভাষা করতে বিরাট অংকের টাকা দাবি করছে জাতিসংঘ। শুধু খরচের বিষয়ে সমাধানে না পৌঁছানোর কারণে প্রস্তাবটি আটকে আছে।’

রাজধানীর ফরেন সার্ভিস একাডেমিতে রোববার (২১ ফেব্রুয়ারি) আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘১৯৯৯ সালে দিবসটি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষার মর্যাদা লাভ করে। রফিক ও সালাম নামে দুই প্রবাসীর চেষ্টায় প্রস্তাবটি জাতিসংঘ হয়ে ইউনেস্কোয় আসে। পরে সদস্য রাষ্ট্রের পক্ষ থেকে প্রস্তাব পাঠানোর কথা এলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়ার উদ্যোগ নেন। সব মাতৃভাষাকে সংরক্ষণ বিকাশে দিবসটি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষার স্বীকৃতি পায়।’

মোমেন বলেন, ‘শান্তি বজায় রাখার সংস্কৃতি বাংলাদেশ বিশ্বাস করে। রোহিঙ্গা ইস্যু ও অপরের প্রতি শ্রদ্ধা প্রদর্শনে আমরা বিশ্বাসী। আমাদের এখানকার মানুষের দৃষ্টিভঙ্গি শান্তি প্রতিষ্ঠার সংস্কৃতিকে বিশ্বাস করে। সারা বিশ্বের মানুষকে এই যাত্রায় শামিল হতে আমরা আহ্বান জানাই।’

এ সময় ভাষা আন্দোলনের প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, ‘বিভিন্ন দেশের শাসনের সময় বাঙালি ভাষা নিয়ে অনেক বেশি ভোগান্তি পার করেছে। মানুষের প্রত্যাশাকে দমিয়ে রাখা যায় না। মানুষের আকাঙ্ক্ষার প্রতিফলন ঘটেছে ভাষা আন্দোলনের মধ্য দিয়ে। পরে যা স্বাধীনতার স্বপ্নকে ত্বরান্বিত করে। ৯৯ শতাংশ মানুষ এই অনুভূতির প্রতি একাত্মতা জানিয়েছিল বলেই এটা সম্ভব হয়েছিল। ভাষা আন্দোলনে বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বের যেমন প্রতিফলন দেখা গেছে, তেমনি একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধে আমরা তার পরিপূর্ণতা দেখি।’

পি

RTV Drama
RTVPLUS