logo
  • ঢাকা রবিবার, ২৫ আগস্ট ২০১৯, ১০ ভাদ্র ১৪২৬

বাংলাদেশে জুলাইয়ে চালু হচ্ছে আমিরাতের অনটাইম সার্ভিস

মাহাবুব হাসান হৃদয়, ইউএই প্রতিনিধি
|  ২৮ মে ২০১৯, ১৫:৫৪
আমিরাতের জনপ্রিয় সরকারি অনটাইম সার্ভিস এই প্রথম আমিরাতের বাইরে বাংলাদেশের ঢাকা ও চট্টগ্রামে দুটি সার্ভিস সেন্টার চালুর জন্য স্বাক্ষর করেছে। আগামী জুলাইয়ের প্রথম সপ্তাহে কার্যক্রম শুরু হতে যাচ্ছে। সোমবার দুবাইয়ে এ বিষয়ে দুবাই অনটাইম অফিসে এক প্রেস কনফারেন্স অনুষ্ঠিত হয়।

bestelectronics
এ সময় অনটাইম এর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ওয়ালিদ বিন আব্দুল কারীম বলেন, আমরা আপনাদের অনটাইম সরকারি এই সার্ভিসের প্রতিষ্ঠানের সার্বিক কার্যক্রমের ব্যাপারে জানাতে চাই। এই প্রতিষ্ঠান মূলত যেমন- দুবাই কোর্ট, ইজারি, দুবাই ইকোনমি, এমপ্লোয়ারদের ভিসা প্রসেসিং, মেডিকেল, নতুন আইডি, ডকুমেন্ট ক্লিয়ারিং, নতুন ব্যবসা শুরুসহ সরকারি নানা কাজসমূহ ওয়ান স্টপ সার্ভিসের মাধ্যমে প্রদান করে থাকে। তিনি আর বলেন, এই প্রতিষ্ঠান সম্পূর্ণ স্বচ্ছ এবং সরকারি নির্ধারিত ফি এর মাধ্যমে কাজ করে থাকে। তবে আপনাদের মনে রাখতে হবে এই সংস্থা জনশক্তি রপ্তানি করে না।

বিশেষ করে ভিসা ও চিকিৎসা পরীক্ষা প্রক্রিয়াকরণসহ সরকারি অন্যান্য কার্যক্রম দুবাই ভিত্তিক এই ‘অনটাইম গভর্নমেন্ট সার্ভিসেস’ ২৭টি শাখার মাধ্যমে ২৩ লাখ গ্রাহককে সেবা দিয়ে যাচ্ছে। অনটাইম কার্যক্রম প্রক্রিয়াকরণ সেবা  প্রদানের ক্ষেত্রে বিশেষভাবে লক্ষ্য রাখে, যেন তার গ্রাহক অর্থাৎ অভিবাসীরা, ব্যবসায়ী ব্যক্তি এবং নিয়োগ এজেন্টগুলো সম্পূর্ণরূপে আইনানুগ এবং অনুমোদিত পরিবেশে ভিসা, চিকিৎসা, লাইসেন্সিং, নবায়ন এবং অন্যান্য পরিসেবাগুলো যথাযথভাবে করতে পারে। অনটাইম সম্প্রতি তার সেবাসমূহ গ্রাহকদের কাছে পৌঁছানোর লক্ষ্যে তাদের কার্যক্রম বিদেশে সম্প্রসারণের উদ্যোগ গ্রহণ করে। সেই লক্ষ্যে তারা সর্বপ্রথম বাংলাদেশে এই কার্যক্রম পরিচালনার জন্য  ঢাকা ও চট্টগ্রামে দুটি শাখা স্থাপনের জন্য চুক্তিবদ্ধ হয়েছে।

অনটাইম মূলত অনাবাসী ব্যক্তিদেরকে ফেয়ার মাইগ্রেশনে সাহায্য করার লক্ষ্যে তাদের কার্যক্রম বাংলাদেশে প্রসারিত করতে যাচ্ছে। এতে গ্রাহকদের ভিসা প্রক্রিয়াকরণের ক্ষেত্রে ভিসা বাবদ খরচ হ্রাস হবে, প্রতারণার হাত থেকে রক্ষা পাবে। এছাড়া বাংলাদেশে থাকা অবস্থায় মেডিকেলসহ অন্যান্য কার্যাদি সম্পাদন করতে পারবে। এক্ষেত্রে রিক্রুটিং এজেন্টসহ ব্যবসায়ীরা তাদের প্রয়োজনীয় আমিরাত ভিত্তিক সকল সরকারি কার্যক্রম বাংলাদেশে বসে সম্পাদন করতে পারবে। অনটাইম সেবা গ্রহণকারীকে আমিরাতের সরকারি কার্যক্রমসমূহ নিরাপদ, স্বচ্ছ ও জবাবদিহিমূলক সেবা প্রদানে ইতোমধ্যে বিশ্বস্ত প্রতিষ্ঠান বলে স্বীকৃত।

অনটাইম হচ্ছে মূলত অন্যান্য দেশের ভিসা প্রসেসিং (ভিএসএফ) করণের মতই একটি প্রতিষ্ঠান মাত্র। যারা মূলত সেই দেশের সরকার, ব্যুরো অব ম্যান পাওয়ার, রিক্রুটিং এজেন্ট সমূহকে ভিসা প্রক্রিয়াকরণে সহযোগিতা করে থাকে। এই প্রক্রিয়ায় শ্রমিক, ব্যবসায়ীসহ ভিসা গ্রহণকারীরা নিরাপদভাবে তাদের অধিকার সংরক্ষণ করতে পারবে, অন্যের দ্বারা প্রতারিত হওয়া থেকে রেহাইও পাবে।

প্রেস কনফারেন্স অনটাইম বাংলাদেশের প্রতিনিধি মোহাম্মদ খোরশেদ আলম বলেন, অনটাইম সরকারি এই সার্ভিসটি দুবাই সরকার বিদেশে অনটাইম শাখা করার যে পদক্ষেপ নিয়েছে এটি একটি সময় উপযোগী সিদ্ধান্ত। সংযুক্ত আরব আমিরাত বাংলাদেশিদের জন্য দ্বিতীয় শ্রম বাজার। দেশের একটি বড় অংশ এই আমিরাতে বিভিন্ন কাজ-কর্ম ব্যবসায় জড়িত আছেন। তাই তাদের সুবিধার্থে আগামী জুলাই মাসের প্রথম সপ্তাহে বাংলাদেশের ঢাকা ও চট্টগ্রামে অনটাইমের শাখা উদ্বোধন এর মধ্য দিয়ে গ্রাহকদের কাছে পৌঁছে যাবে দুবাইয়ের সরকারি অনটাইম সার্ভিস।

তিনি বলেন, অনটাইম সার্ভিস বাংলাদেশের মাধ্যমে আমাদের প্রবাসীরা খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে আমিরাত সরকারের সার্ভিসসমূহ পাবে। প্রতারক চক্রের হাত থেকে রেহাই পাবে এবং অনেক কিছুর খরচও সাশ্রয় হবে। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন অনটাইম সার্ভিসের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ওয়ালিদ বিন আব্দুল করীম, ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও অনটাইম বাংলাদেশের প্রতিনিধি মোহাম্মদ খোরশেদ আলম।

bestelectronics bestelectronics
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়