logo
  • ঢাকা বুধবার, ১৬ অক্টোবর ২০১৯, ১ কার্তিক ১৪২৬

বিকেল ৫টার মধ্যে মতিয়া চৌধুরীকে ক্ষমা চাইতে শিক্ষার্থীদের আল্টিমেটাম

আরটিভি অনলাইন রিপোর্ট
|  ১০ এপ্রিল ২০১৮, ১৪:১৭ | আপডেট : ১০ এপ্রিল ২০১৮, ১৪:৩৮
কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরীকে আজ (মঙ্গলবার) বিকেল ৫টার মধ্যে ক্ষমা চাইতে আল্টিমেটাম দিয়েছেন কোটা সংস্কার আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা। আন্দোলনকারীদের উদ্দেশ্য করে সংসদে দেয়া তার বক্তব্য প্রত্যাহার করা না হলে কঠোর আন্দোলনের ঘোষণা দিয়েছেন তারা।

আজ মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে সংবাদ সম্মেলন থেকে এ ঘোষণা দেয়া হয়।

‘বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ’ এর ব্যানারে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন আন্দোলনের যুগ্ম-আহ্বায়ক রাশেদ খান। এসময় সেখানে কয়েকশ শিক্ষার্থী উপস্থিত ছিলেন।

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন : রামপুরা-কুড়িল-বনানী-প্রগতি সরণি শিক্ষার্থীদের রাস্তা অবরোধ
--------------------------------------------------------

রাশেদ খান বলেন, ‘ওবায়দুল কাদেরের আদেশ মেনে নিয়ে আমরা ৭ মে পর্যন্ত আন্দোলন স্থগিত করেছি। এই সময়ের মধ্যে সরকার কোটা সংস্কারের বিষয়টি পুনর্বিবেচনা করবে বলে আশ্বাস দিয়েছে। কিন্তু গতকাল (০৯এপ্রিল) জাতীয় সংসদে মেধাবী শিক্ষার্থীদের নিয়ে মতিয়া চৌধুরী যে বক্তব্য দিয়েছেন সেটি দুঃখজনক। তাকে এই বক্তব্য প্রত্যাহার করে নিতে হবে। এর জন্য তাকে জাতির কাছে ক্ষমা চাইতে হবে। বিকেল ৫টার মধ্যে মতিয়া চৌধুরী ক্ষমা চেয়ে বক্তব্য প্রত্যাহার করে না নিলে আমরা সারাদেশে অবরোধ কর্মসূচি পালন করব।’

উপাচার্যের বাসভবনে হামলাকারীরা বহিরাগত দাবি করে রাশেদ খান বলেন, আমরা এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি। তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেউ নয়। এসময় তিনি হামলাকারী পুলিশের শাস্তি ও হামলায় ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য ক্ষতি পূরণেরও দাবি জানান।

আন্দোলনকারীদের নতুন কমিটি নিয়ে তিনি বলেন, ‘যারা নতুন কমিটি করেছে তারা স্বার্থ হাসিলের জন্যই কমিটি করেছে। আমাদের ব্যানার ছাড়া কেউ যদি অন্য ব্যানারে আন্দোলন করে তাদেরকে আমরা প্রতিহত করব। এসময় আন্দোলন করার কারণে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হলগুলো থেকে যেন কোনো শিক্ষার্থীকে বের করে দেয়া না হয়।

উল্লেখ্য, গতকাল সোমবার (০৯ এপ্রিল) সন্ধ্যায় সংসদের অধিবেশন চলাকালীন কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী বলেন, ‘মুক্তিযোদ্ধাদের সন্তানরা সুযোগ পাবে না, রাজাকারের বাচ্চারা সুযোগ পাবে? তাদের জন্য মুক্তিযোদ্ধা কোটা সংকুচিত হবে?’

আরও পড়ুন :

পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়