• ঢাকা সোমবার, ১৭ জুন ২০১৯, ৩ আষাঢ় ১৪২৬

কিমের সঙ্গে দেখা গেলো ‘সাজা পাওয়া’ উত্তর কোরীয় কর্মকর্তাকে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
|  ০৩ জুন ২০১৯, ১১:৪৬ | আপডেট : ০৩ জুন ২০১৯, ১২:১৫
কিম ইয়ং-চোলকে কিম জং উনের ডান হাত মনে করা হয়
মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে আলোচনা ব্যর্থ হওয়ার পর বেশ কয়েকজন উত্তর কোরীয় কর্মকর্তাকে ‘সাজা’ দেয়া হয়েছে বলে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে খবর প্রকাশিত হয়। কিন্তু ওই খবর ভুল প্রমাণ করে ‘সাজা’ পাওয়া কর্মকর্তাদের একজনকে উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উনের সঙ্গে দেখা গেছে।

whirpool
উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম জানিয়েছে, দেশটির নেতা কিম জং উনের সঙ্গে একটি কনসার্ট দেখেছেন কিম ইয়ং-চোল। শুক্রবার প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, সাজা হিসেবে তাকে একটি পুনঃশিক্ষণ ক্যাম্পে পাঠানো হয়েছে।

কিন্তু রোববার উত্তর কোরিয়ার মিডিয়ায় দেখা যায়, অন্যান্য কর্মকর্তাদের সঙ্গে একটি মিউজিক্যাল অনুষ্ঠানে উপস্থিত রয়েছেন কিম ইয়ং-চোল। সাবেক এই গোয়েন্দা কর্মকর্তাকে উত্তর কোরিয়ার নেতার ডান হাত বলে বর্ণনা করা হয়।

এর আগে ভিয়েতনামে ট্রাম্প-কিমের দ্বিতীয় বৈঠকের প্রস্তুতির জন্য গত জানুয়ারি মাসে যুক্তরাষ্ট্র সফর করেন কিম ইয়ং-চোল। এদিকে রোববার তাকে কিমের সঙ্গে দেখা গেলেও কিম ইয়ং-চোলকে ‍শ্রম শিবিরে যে পাঠানো হয়নি এমন কোনও গ্যারান্টি নেই।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একটি সূত্রের বরাত দিয়ে শুক্রবার দক্ষিণ কোরিয়ার একটি পত্রিকা জানায়, পিয়ংইয়ং বিমানবন্দরে যুক্তরাষ্ট্রে উত্তর কোরিয়ার সাবেক রাষ্ট্রদূত কিম হিউয়ক-চোলের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়। এদিন প্রকাশিত খবরে বলা হয় কিম হিউয়ক-চোল ছাড়াও আরও কয়েকজন কর্মকর্তার মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করে উত্তর কোরিয়া।

এদিকে রোববারের ওই কনসার্টে কিম হিউয়ক-চোলকে দেখা যায়নি। কিন্তু তার শাস্তি বা মৃত্যুদণ্ড কিংবা তার অবস্থান নিয়ে কোনও কিছু জানায়নি রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম।

অতীতেও কিম জং-উন অনেকের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করেছেন। ২০১৩ সালে কিমের প্রভাবশালী ফুফা জং সং-থেককে রাষ্ট্রদ্রোহিতার অভিযোগে মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়। সেই খবরটি উত্তর কোরিয়া ঘোষণা দেয়ার আগেই দক্ষিণ কোরিয়ার গোয়েন্দা সংস্থাগুলো প্রকাশ করেছিল।

তবে কখনও কখনও এরকম খবর মিথ্যা বলেও প্রমাণিত হয়েছে। এর মধ্যে একটি হল গায়িকা হিউন সং-ওলের মৃত্যুর খবর। ২০১৩ সালে এই পত্রিকাই খবর প্রকাশ করেছিল, তার অর্কেস্ট্রার সদস্যের সামনেই তাকে মেশিনগানের গুলিতে মেরে ফেলা হয়েছে। কিন্তু গত বছর গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকের আগে উত্তর কোরিয়ার একটি প্রতিনিধি দলকে নেতৃত্ব দিয়ে সিউলে আসেন জীবিত গায়িকা হিউন সং-ওল।

এ/পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়