Mir cement
logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১, ৪ আষাঢ় ১৪২৮

১৬ বিয়েতে মন ভরেনি, ১০০ বিয়ে করে ১ হাজার সন্তানের বাবা হতে চান তিনি

Zimbabwe man marries 16 wives to help increase the country's population
প্রতীকী ছবি

যুবক বয়সে দেশের স্বাধীনতার জন্য যুদ্ধ করেছেন। এখন বৃদ্ধ বয়সে নেমেছেন অন্য এক যুদ্ধে। দেশের জনসংখ্যা বাড়ানোর যুদ্ধে নেমেছেন ৬৬ বছর বয়সী মিশেক নিয়াডোরো। আর তাই ১৬টি বিয়ে করেছেন তিনি। হয়েছেন ১৫১ সন্তানের বাবা। আরও দুজনের জন্ম হবে শিগগিরই।

জিম্বাবুয়ের স্বাধীনতার জন্য রোডেশিয়ান বুশ যুদ্ধে লড়াই করা নিয়াডোরো বলেন, এ বছরের শেষ নাগাদ ১৭তম স্ত্রীকে বিয়ে করবেন তিনি। তিনি জানান, মরার আগে ১০০টি বিয়ে করতে চান তিনি। বাবা হতে চান ১ হাজার সন্তানের।

জিম্বাবুয়ের দ্য হেরাল্ডকে দেয়া সাক্ষাৎকারে নিয়াডোরো বলেন, সন্তান বাড়াতে আমি প্রতি রাতে চারবার স্ত্রীদের সঙ্গে মিলিত হই। মাশোনাল্যান্ড সেন্ট্রাল প্রভিন্সের এমবিরে জেলার বাসিন্দা নিয়াডোরো বলেন, আমি প্রতি রাতে নিয়ম মেনে বেডরুমে যাই। তারপর এক স্ত্রীর বিছানা থেকে অন্য স্ত্রীর বিছানায় যাই।

নিয়াডোরো এখন বেকার। বরং স্ত্রীদের সন্তুষ্ট করাই নাকি তার কাজ। আর তার স্ত্রীরাও রাস্তা, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা এবং অন্যভাবে নিয়াডোরোর সব চাহিদা পূরণ করে। এই পরিবারের আয়ের মূল উৎস হচ্ছে কৃষিকাজ। সম্প্রতি ৯৩ হেক্টর কৃষি জমি বরাদ্দও পেয়েছেন নিয়াডোরো।

এদিকে নিয়াডোরোর স্ত্রীদের বয়স কত জানা যায়নি। তবে অপেক্ষাকৃত কম বয়সী নারীদের বিয়ে করেন নিয়াডোরো। কেননা বয়স্ক নারীরা নাকি তার যৌন চাহিদা পূরণে হিমশিম খায়। নিয়াডোরো বলেন, আমি আমার স্ত্রীদের বয়স অনুযায়ী বেডরুমে আমার আচরণ বদল করি।

১৯৮৩ সাল থেকে বহু বিবাহ শুরু করা নিয়াডোরো বলেন, বয়স্কদের সঙ্গে যেমন আচরণ করি আমি, তরুণ স্ত্রীদের সঙ্গে তেমন আচরণ করি না। নিয়াডোরোর দেড় শতাধিক সন্তানের মধ্যে ৫০ জন এখন স্কুলে পড়ে। বাকিদের মধ্যে ৬ জন সেনাবাহিনীতে, দুই পুলিশে এবং ১১ জন অন্য পেশায় কাজ করেন। ১৩ মেয়ের বিয়েও দিয়েছেন তিনি।

RTV Drama
RTVPLUS