logo
  • ঢাকা শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ৪ বৈশাখ ১৪২৮

‘পাকিস্তান-আফগানিস্তান অখণ্ড ভারতের অংশ’

akhand bharat possible will be good for pakistan says bhagwat
সংগৃহীত

রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংস্থার (আরএসএস) প্রধান মোহন ভগত বলেছেন, অখণ্ড ভারতের প্রয়োজনীয়তা রয়েছে। আর ভারত থেকে আলাদা হয়ে যাওয়া পাকিস্তানের মতো দেশগুলোর জন্য এটা খুব ভালো হবে। এক সংস্কৃতি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে এমন মন্তব্য করেছেন তিনি। খবর টাইমস অব ইন্ডিয়ার।

মোহন ভগত বলেন, হিন্দু ধর্মের মাধ্যমেই অখণ্ড ভারত প্রতিষ্ঠা সম্ভব। আমরা পাকিস্তান ও আফগানিস্তানের মতো দেশগুলোকে আমাদের অংশ মনে করি। এক সময় তারা আমাদের অংশ ছিল। তাদের ধর্ম কি বা তারা কি খায় তা কোনও বিষয় নয়। এটা উপনিবেশবাদ নয়। বিশ্ব একটা পরিবার এটা বিশ্বাস করে ভারত।

আরও পড়ুন : গণধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে কলেজছাত্রীর গায়ে কেরোসিন ঢেলে আগুন দিলো দুর্বৃত্তরা

পাকিস্তান ও গান্ধার (আফগানিস্তান) সৃষ্টি হওয়ার পর থেকে সেখানে শান্তি এবং বিশ্বাস রয়েছে কিনা জানতে চান আরএসএস প্রধান। তিনি বলেন, কারণ তারা সঞ্জীবনী (ভারত) থেকে আলাদা হয়ে গেছে, আমরা তাদের আগের মতোই নিজেদের অংশ হিসেবে গুরুত্বপূর্ণ দেবো।

তিনি বলেন, অখণ্ড ভারত সম্ভব কারণ ভারত ভাগ হওয়ার ছয় মাস আগে অনেকেই এটা নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করেছিলেন। মোহন ভগত বলেন, এটা বোকাদের স্বপ্ন বলে উড়িয়ে দিয়েছিলেন। ব্রিটিশ শাসনামলে লর্ড ওয়েভেল ব্রিটিশ পার্লামেন্টে বলেছিলেন, ঈশ্বর ভারত এক করেছে এবং কে এটাকে ভাগ করবে।

আরও পড়ুন : গ্রিনকার্ড, ওয়ার্ক ভিসা খুলে দিলেন বাইডেন

তবে অখণ্ড ভারত বলতে তিনি উপনিবেশবাদের কথা বলছেন না বলেও উল্লেখ করেছেন আরএসএস প্রধান। আমরা যখন অখণ্ডতার কথা বলি, তখন ক্ষমতার কথা বলি না বরং মানুষের কথা বলি। তারা ‘সনাতন ধর্ম’ বা হিন্দু ধর্ম দিয়ে একসূত্রে গাথা।

RTV Drama
RTVPLUS