Mir cement
logo
  • ঢাকা বুধবার, ০৪ আগস্ট ২০২১, ২০ শ্রাবণ ১৪২৮

ঈদ দুয়ারে কড়া নাড়লেও পোশাক মার্কেটে ক্রেতা কম

পোশাক মার্কেটে ক্রেতা কম

কঠোর লকডাউন শিথিল করলেও করোনাভাইরাসের কারণে আগের ঈদগুলোর মতো রাজধানীর দোকানপাট ও শপিংমলগুলোতে ক্রেতাদের ভিড় নেই। ঈদুল আজহা দুয়ারে কড়া নাড়লেও পোশাকের মার্কেটগুলোতে ক্রেতাদের আনাগোনা কম। ফলে বিক্রেতারা অলস সময় পার করছেন।

বিক্রেতারা বলছেন, কোরবানির ঈদে নতুন পোশাক খুব একটা বিক্রি হয় না। নতুন পোশাক যা বিক্রি রোজার ঈদে। এর মধ্যে আবার করোনা মহামারির কারণে মানুষের হাত ফাঁকা থাকায় বিশেষ প্রয়োজন ছাড়া মার্কেটে কেউ নতুন পোশাক কিনতে আসেন না। সেজন্য দিনের অধিকাংশ সময় অলস কাটাতে হচ্ছে।

শুক্রবার (১৬ জুলাই) রাজধানীর সবচেয়ে ব্যস্ততম মার্কেট নিউমার্কেট ও গুলিস্তান ঘুরে দেখা গেছে, অধিকাংশ পোশাক মার্কেটে ক্রেতা শূন্য। হাতেগোনা কয়েকজন ক্রেতা মার্কেটে এসেছেন। পোশাকের দোকানের মতো প্রায় ফাঁকা দেখা গেছে জুতা ও ইমিটেশন জুয়েলারির দোকানগুলো।

নিউমার্কেটের পোশাক ব্যবসায়ী আশরাফ হোসেন বলেন, একে তো কোরবানির ঈদ, মানুষ পশু কেনাকাটায় ব্যবস্থ থাকেন। এরমধ্যে আবার করোনা মহামারির থাবায় দোকানে বেচাকেনা কমেছে। দিনে দোকানে কিছু ক্রেতা এলেও অনেকেই পোশাক না কিনে শুধু দেখে যান। আমরা আগেই ধরে নিয়েছি, এই ঈদ খুব একটা বিক্রি হবে না। তাই ঈদ উপলক্ষে তেমন নতুন কালেকশন নিয়ে আসিনি। রোজার ঈদে যে মাল তোলা হয়েছিল, তার বেশিরভাগই রয়ে গেছে।

মার্কেটটির জুতার ব্যবসায়ী সালাম মিয়া বলেন, করোনা ব্যবসার বড় ক্ষতি করেছে। রোজার ঈদে অনেক নতুন মাল তুলেছিলাম। কিন্তু বিক্রি খুব একটা হয়নি। কোন রকমে আসল টাকা উঠাতে পেরেছিলাম। আর কোরবানির ঈদে বিক্রি কম হবে এটাই স্বাভাবিক। তারপরও যে টুকু বিক্রি হওয়ার কথা তাও হচ্ছে না। সালাম মিয়ার মতো সব পোশাক ব্যবসায়ী একই কথা বলছেন।

এফএ

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS