logo
  • ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০, ৯ আশ্বিন ১৪২৭

বেশি দামে পেঁয়াজ কিনে বিপাকে খুচরা বিক্রেতারা

  আরটিভি নিউজ

|  ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৩:১৮ | আপডেট : ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৪:২৮
Peyaj
পেঁয়াজ
ভারত হঠাৎ পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ করে দেওয়ার খবরে আতঙ্ক ছড়িয়েছিল বাজারে। হঠাৎ করেই দাম বেড়েছিল দ্বিগুণ। খুচরা বিক্রেতারাও মুনাফার আসায় প্রয়োজনের অতিরিক্তই কিনেছিলেন। কিন্তু একদিন পরেই পেঁয়াজের দাম পাইকারিতে কমতে শুরু করেছে। এতে বিপাকে পড়ে গেছেন তারা। লোকসানের শঙ্কায় দামও কমাতে পারছেন না।  

পাইকাররা বলছেন, বাজারে নতুন করে পেঁয়াজ আসায় কেজিপ্রতি পাঁচ টাকা পর্যন্ত দাম কমেছে, তবে খুচরার বিষয়ে তথ্য জানা নেই। আর খুচরা বিক্রেতারা বলছেন, পাইকারদের কাছ থেকে বেশি দামে পেঁয়াজ কেনা। এখন বেশি দামেই বিক্রি করতে বাধ্য হচ্ছেন তারা। কম দামে পেলে তারাও দাম কমিয়ে বিক্রি করবেন।

বৃহস্পতিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) রাজধানীর কারওয়ান বাজার, কাঁঠালবাগান, মগবাজার চারুলতা মার্কেট, মালিবাগ ও খিলগাঁও বাজার ঘুরে দেখা গেছে, 
কারওয়ান বাজারের আড়তে পাইকারি দেশি পেঁয়াজ প্রতিপাল্লা (পাঁচ কেজি) বিক্রি হচ্ছে ৪৩০ টাকা বা ৮৬ টাকা কেজি দরে, দেশি (কিং) বিক্রি হচ্ছে ৪শ টাকা পাল্লা (পাঁচ কেজি) বা ৮০ টাকা কেজি। আর আমদানি করা (এলসি) পেঁয়াজ প্রতিপাল্লা ৩১০ টাকা বা ৬২ টাকা কেজি দরে।

অন্যদিকে কাঠালবাগান, মগবাজার চারুলতা মার্কেট, মালিবাগ ও খিলগাঁও বাজার খুচরা প্রতিকেজি দেশি (কিং) পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৯৫ থেকে ১০০ টাকা, দেশি পেঁয়াজ ১০০ থেকে ১১০ টাকা, আর আমদানি করা পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৮০ থেকে ৯০ টাকার মধ্যে।

পেঁয়াজের দাম বাড়ায় সরকারিভাবে টিসিবির ট্রাকসেলে ৩০ টাকা কেজিদরে পেঁয়াজ বিক্রি অব্যাহত রয়েছে। বাজার পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত সরকারিভাবে বন্ধের দিন ছাড়া প্রতিদিন এ বিক্রি অব্যাহত থাকবে।

ইয়াসির আরাফাত নামের এক খুচরা বিক্রেতা আরটিভি নিউজকে বলেন, 'ভাই কিনেছিলাম তো লাভের আশায়। এখন তো বিপদে পইড়া গেছি। বেচতেও পারছি না। দামও কমাইতে পারতেসি না। কিন্তু পাইকাররা আরামেই আছে।


এসজে

RTVPLUS
bangal
corona
দেশ আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ৩৫৩৯৫৩ ২৬২৯৫৩ ৫০৪৪
বিশ্ব ৩,১৮,২৪,৯০৮ ২,৩৪,২৭,৯১৮ ৯,৭৬,১৫৫
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • অর্থনীতি এর সর্বশেষ
  • অর্থনীতি এর পাঠক প্রিয়