logo
  • ঢাকা বুধবার, ০১ এপ্রিল ২০২০, ১৮ চৈত্র ১৪২৬

করোনা আপডেট

  •     স্পেনে গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৮৪৯ জন, মোট মৃত্যু ৮১৮৯ জন, আক্রান্ত ৯৪৪১৭ জন: এএফপি। সৌদিতে গত ২৪ ঘণ্টায় আরো ১১০ আক্রান্ত, মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১৫৬৩ জন: সৌদি গেজেট। এই প্রথম কাতারে এক বাংলাদেশির মৃত্যু: কাতার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। গত ২৪ ঘণ্টায় বাংলাদেশে নতুন আক্রান্ত ২, মোট আক্রান্ত ৫১ জন, সুস্থ ৬ জন: আইইডিসিআর। যুক্তরাষ্ট্রে ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৫৬৫, আক্রান্ত ১৯৯৮৮, মোট মৃত্যু ৩০৪০, আক্রান্ত এক লাখ ৬৪২৭৪ জন, এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি ২৭৯ জনের মৃত্যু হয়েছে নিউইয়র্ক সিটিতে। গত ২৪ ঘণ্টায় স্পেনে মৃত্যু ৯১৩, জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে ৫২৩১ জন, আক্রান্ত ৭৮৪৬, সবচেয়ে বেশি মৃত্যু ইতালিতে ১১ হাজার ৫৯১, তারপর স্পেনে ৭৭১৬, ফ্রান্স ৩১৮৬: জনস হপকিন্স ইউনিভার্সিটি।

প্রবাসীকে নিয়েই অন্য প্রবাসীদের খুঁজছে ভ্রাম্যমাণ আদালত

ব্রাহ্মণবাড়িয়া  প্রতিনিধি, আরটিভি অনলাইন
|  ১৯ মার্চ ২০২০, ১৮:৩৮ | আপডেট : ১৯ মার্চ ২০২০, ১৮:৫৬
আদালত প্রবাসী ভ্রাম্যমাণ
ছবি: সংগৃহীত
হোম কোয়ারেন্টিনে আদেশ না মানা এক প্রবাসীকে সঙ্গে নিয়েই অন্য প্রবাসীদের বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করলেন আখাউড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা(ইউএনও)। বৃহস্পতিবার আখাউড়া পৌর শহরের দুর্গাপুরে এ ঘটনা ঘটে।

এনিয়ে সমালোচনা ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।  স্থানীয়রা জানান, ইউএনও তাহমীনা আক্তার রেইনা দুর্গাপুরে বাহরাইন প্রবাসী রাসেল মিয়াকে(৩৪) ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। হোম কোয়ারেন্টিনে নিয়ম না মানায় তাকে এই জরিমানা করা হয়। এ সময় ইউএনও’র সঙ্গে ছিলেন সদ্য লন্ডন থেকে আগত স্থানীয় জাহনারা হক মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ মো. শাহজাহান। তিনি স্বস্ত্রীক আট মার্চ লন্ডন থেকে ফেরেন। হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার নিয়ম না মেনেই চলছেন তিনি। বৃহস্পতিবার ইউএনও প্রবাসীদের খোঁজ-খবরে বের হলে অধ্যক্ষ শাহজাহান তার সঙ্গী হন।

 এদিকে করোনা আক্রান্ত দেশ থেকে ফিরে আসা ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নয় সহস্রাধিক প্রবাসীর খোঁজে তৎপর হয়েছে স্থানীয় প্রশাসন। বুধবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মেইল পাওয়ার পরই টনক নড়ে তাদের। ২৪ ঘণ্টায় কোয়ারেন্টিনে নেয়া হয় ২৮ জনকে। জরিমানা করা হয় তিনজনকে। জেলা পুলিশ নেমেছে প্রচার-প্রচারণায়।

 বুধবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার ৯২০৮ জন প্রবাসীর দেশে ফেরার তথ্য দিয়ে একটি মেইল পাঠানো হয় জেলা পুলিশের কাছে। ওইদিন এই প্রবাসীদের মধ্যে হোম কোয়ারেন্টিনে ছিলেন মাত্র ১৪ জন। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মেইল পাওয়ার পর ঘুম ভাঙ্গে জেলার স্বাস্থ্য বিভাগ ও প্রশাসনের। তার আগে বিপুল সংখ্যক প্রবাসীর ব্রাহ্মণবাড়িয়া ফিরে আসার খবর জানা ছিল না কারো। জেলায় সবচেয়ে বেশি প্রবাসী ৩০২৪ জন ফিরেছেন সদর উপজেলায়।

কিন্তু এই প্রবাসীদের বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে একেবারেই অন্ধকারে প্রশাসন। তবে বৃহস্পতিবার তাদের মধ্যে দুইজন ওমান থেকে আগত জেলা শহরের পাইকপাড়ার শম্ভু সাহাকে ২০ হাজার এবং সিঙ্গাপুর ফেরত দীপ্ত সাহাকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এর আগে বুধবার বাঞ্ছারামপুর ও আখাউড়ায় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে দুই প্রবাসীকে জরিমানা করা হয় হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার আদেশ না মানায়।

জেবি

corona
দেশ আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ ৫১ ১৯
বিশ্ব ৮৫৭৪৮৭ ১৭৮০৯১ ৪২১০৭
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • দেশজুড়ে এর সর্বশেষ
  • দেশজুড়ে এর পাঠক প্রিয়