Mir cement
logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ১৫ জুন ২০২১, ১ আষাঢ় ১৪২৮

ক'রোনাভাইরাসে ভারত ফেরত বৃদ্ধের মৃ'ত্যু

করোনাভাইরাসে ভারতফেরত বৃদ্ধের মৃত্যু
ফাইল ছবি

যশোরে করোনায় আক্রান্ত হয়ে খন্দকার জহুরুল হক (৭৪) নামে ভারতফেরত এক বৃদ্ধ মারা গেছেন। এছাড়া করোনাভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে ২ জনের মৃত্যু হয়েছে।

মঙ্গলবার (৮ জুন) রাতে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. আরিফ আহম্মেদ।

মৃতরা হলেন, ভারতফেরত খন্দকার জহুরুল হক (৭৪) তার বাড়ি ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার জিন্নানগর গ্রামে। অন্য দু’জন ঝিকরগাছা উপজেলার কৃষ্ণনগর গ্রামের মৃত সৈয়দ আলীর ছেলে আবুল কাশেম (৫৫) ও সদর উপজেলার ঝুমঝুমপুর এলাকার মৃত আফসার আলীর ছেলে লিয়াকত আলী (৫৬)।

জানা গেছে, মঙ্গলবার (৮ জুন) রাত সাড়ে ৯টার দিকে খন্দকার জহুরুল হক, ইয়োলো জোনে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার (৭ জুন) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে লিয়াকত আলী এবং মঙ্গলবার (৮ জুন) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে আবুল কাশেমের মৃত্যু হয়।

যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. আরিফ আহম্মেদ জানান, হাসপাতালের রেড জোনে খন্দকার জহুরুলের মৃত্যু হয়। গত ৫ জুন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালের রেড জোনে ভর্তি হন তিনি। মঙ্গলবার (৮ জুন) রাত সাড়ে ৯টার দিকে ডা. ফারজানা ইয়াসমিন তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

লিয়াকত আলী দীর্ঘদিন জ্বরসহ বিভিন্ন সমস্যায় চিকিৎসাধীন ছিলেন। সোমবার সকালে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে স্বজনরা হাসপাতালের ইয়েলো জোনে ভর্তি করেন। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সকাল সাড়ে নয়টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

আবুল কাশেম বাড়িতে জ্বরসহ বিভিন্ন রোগে ভুগছিলেন। পরে মঙ্গলবার (৮ জুন) সকালে শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে স্বজনরা তাকে দ্রুত হাসপাতালে আনেন। এ সময় জরুরি বিভাগের চিকিৎসক আহম্মেদ তারেক শামস কোভিড-১৯ সন্দিগ্ধ হওয়ায় তাকে ইয়েলো জোনে ভর্তি করেন। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বেলা ১১টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

জিএম/পি

RTV Drama
RTVPLUS