logo
  • ঢাকা সোমবার, ০৮ মার্চ ২০২১, ২৩ ফাল্গুন ১৪২৭

কক্সবাজারে পর্যটকদের উপচে পড়া ভিড়, থাকার জায়গা নেই

কক্সবাজারে পর্যটকদের উপচে পড়া ভিড়, থাকার জায়গা নেই
ফাইল ছবি

সাপ্তাহিক ছুটি ও একুশে ফেব্রুয়ারিসহ টানা তিনদিনের ছুটি পাওয়ায় পর্যটকদের ভিড় জমছে কক্সবাজার। হোটেল-মোটেলগুলোতেও জায়গা পাচ্ছে না পর্যটকরা। শুক্রবার (১৯ ফেব্রুয়ারি) পর্যন্ত প্রায় তিন লাখ পর্যটক সৈকতে এসেছেন বলে ধারণা করছেন টুরিস্ট পুলিশ।

আজ শনিবার (২০ ফেব্রুয়ারি) এই সংখ্যা আরও বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। রোববার পর্যন্ত প্রায় সাড়ে চার শতাধিক হোটেল, মোটেল, রিসোর্ট ও কটেজ ভরপুর থাকবে পর্যটকদের উপস্থিতিতে।

এদিকে শুক্রবার সৈকতের সুগন্ধা, কলাতলী পয়েন্ট ও লাবণীতে দেখা যায় পর্যটকরা সৈকতে নেমে গোসল করছেন। অনেকে আবার বালুচরে দৌড়-ঝাপ করছেন। কেউ কেউ দ্রুতগতির জেডস্কি নিয়ে বিশাল সমুদ্রের পাশে দুরন্ত গতিতে ছুটে চলছেন। আর অনেক অভিভাবকরা ছেলেমেয়েদের উচ্ছ্বাস দেখে মুগ্ধ হচ্ছেন।

সাধারণত সাপ্তাহিক ছুটির সময় থেকে এবার যেন পর্যটকদের মাঝে আমেজ একটু বেশিই। টানা তিনদিনের ছুটিতে কক্সবাজারে এখন বিরাজ করছে উৎসব।

টানা তিনদিনের ছুটিতে পর্যটকদের উপস্থিতি অন্যান্য দিনের থেকে তুলনামূলক বেশি হওয়ায় জায়গা হচ্ছে না হোটেল-মোটেলগুলোয়। অনেক পর্যটক কক্ষ না পেয়ে সমুদ্রসৈকত ও সড়কে পায়চারি করছেন। তবে এই সুযোগে রেস্তোরা, যানবাহনে কিছুটা বাড়তি টাকা গুণতে হচ্ছে বলেও অভিযোগ করেছেন কিছু পর্যটকরা।

টুরিস্ট পুলিশের পরিদর্শক মো. সাকের আহমদ বলেন, পর্যটকদের নিরাপত্তায় সকল ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। সকল পয়েন্ট, পর্যটন স্পট ও বালিয়াড়িতে টুরিস্ট পুলিশের নজরদারি জোরদার করা হয়েছে। পর্যটকদের নিরাপত্তা ও সুবিধার জন্য টুরিস্ট পুলিশের সঙ্গে জেলা প্রশাসনের একজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটও রয়েছেন। পর্যটকদের হয়রানি রোধে যথাযথ ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও জানান তিনি।

এসআর/এসএস

RTV Drama
RTVPLUS