logo
  • ঢাকা শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ৪ বৈশাখ ১৪২৮

রাত তিনটায় লিচুবাগানে গিয়ে স্কুলছাত্রী দেখলো প্রেমিক নয় লাবু দাঁড়িয়ে আছে

ভুয়া×প্রেমিকা×ছাত্রী×ধর্ষণ×বাগান×মেয়ে×সন্ধ্যা×ভিকটিম×
ছবি আরটিভি নিউজ

দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটে প্রেমিকের ছদ্মবেশে ফোনে কথা বলে প্রেমের সম্পর্ক তৈরি করে রাতের আঁধারে এক আদিবাসী কিশোরীকে গণধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় থানায় কিশোরীর মা থানায় এসে অভিযোগ করেন। অভিযোগ পাওয়ার এক ঘণ্টার মধ্যে থানা পুলিশের পৃথক কয়েকটি টিম অভিযান চালিয়ে তিন ধর্ষককে আটক করে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ঘোরাঘাট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আজিম উদ্দিন।

এজাহার সূত্রে জানা যায়, ঘোড়াঘাট পৌর এলাকার বাউপুকুর গ্রামের মৃত চুরকা হাসদার দশম শ্রেণির ছাত্রীর সঙ্গে প্রায় দেড় বছর আগে রাজু নামে এক যুবকের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। মাঝে মধ্যেই ফোনে যোগাযোগ হতো রাজুর সঙ্গে ভিকটিমের। এমনই একপর্যায়ে তাদের প্রেমের সম্পর্কের কথা জানতে পারে লাবু নামের এক যুবক। কৌশলে মেয়েটির মোবাইল নম্বর সংগ্রহ করে সে।

আরও পড়ুন : মেয়েটিকে কয়েক দফা ধর্ষণ শেষে মার্কেটের দোতলায় আটকে রাখা হয়

পরে সে মেয়েটিকে কল করে রাজু পরিচয় দিয়ে একাধিক বার কথা বলার একপর্যায়ে গেলো শনিবার রাত তিনটার সময় কিশোরীর বাড়ির পাশে আব্দুর রহমানের লিচু বাগানে তাকে দেখা করতে ডাকে। ছদ্মবেশী প্রেমিক লাবুর কথা অনুযায়ী বাগানে গিয়ে সে প্রেমিক রাজুর পরিবর্তে অন্য এক যুবককে দেখে চিৎকার করে এবং দৌঁড়ে বাড়িতে পালানোর চেষ্টা করে। এ সময় লাবুর সঙ্গে বাগানে আগে থেকেই অবস্থান নেয়া দুই সহযোগী ওমর ফারুক এবং আশরাফুল মেয়েটিকে আটকে মুখ চেপে ধরে। পরে লিচু বাগানেই পালাক্রমে ওই তিনজন কিশোরীকে গণধর্ষণ করে বাগানে ফেলে রেখে চলে যায়।

আরও পড়ুন : খানকা শরীফে গিয়ে ধর্ষণের শিকার প্রবাসীর স্ত্রী এখন অন্তঃসত্ত্বা

ঘোড়াঘাট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আজিম উদ্দিন জানান, গতকাল রোববার সন্ধ্যায় ভিকটিমকে নিয়ে তার মা থানায় এসে অভিযোগ দায়ের করলে, তাৎক্ষণিক পৃথক পৃথক স্থান থেকে তিন ধর্ষককে আটক করি। আসামিদের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে গণধর্ষণের অভিযোগে মামলা রুজু হয়েছে। আসামিদেরকে আজ সোমবার সকালে দিনাজপুরের বিজ্ঞ আদালতে পাঠানো হয়েছে।

তিনি আরও জানান, আসামিদের আদালতে জবানবন্দি দেওয়ার কথা রয়েছে। ভিকটিমকে মেডিকেল করানোর জন্য দিনাজপুর মেডিকেলে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। সেইসঙ্গে আমরা অধিকতর তদন্তের জন্য উভয়ের ডিএনএ টেস্ট করানো হবে।

আরও পড়ুন : ইউল্যাব শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ ও হত্যা: দুই বন্ধু রিমান্ডে

আটককৃতরা হলেন, ঘোড়াঘাট উপজেলার ঘুঘুরা (ভোতরা পাড়া) গ্রামের মৃত লাল মিয়ার ছেলে ছদ্মবেশী প্রেমিক লাবু মিয়া (২৮), একই গ্রামের আহাম্মদ আলীর ছেলে আশরাফুল ইসলাম (৩৫) ও ঘোড়াঘাট পৌর এলাকার বাউপুকুর গ্রামের বেল্লাল হোসেনের ছেলে ওমর ফারুক (২১)।

জেবি

RTV Drama
RTVPLUS