logo
  • ঢাকা সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি, আরটিভি নিউজ

  ১৯ নভেম্বর ২০২০, ১১:৫১

স্বামীর বটির কোপে স্ত্রীর মৃত্যু

The death of the wife, due to the beating, rtv news
ব্রাহ্মণবাড়িয়া
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জে কোহিনুর খানম নিতু (৩০) নামের এক গৃহবধূকে ধারালো বটি দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে হত্যা করেছে মাদকাসক্ত স্বামী।

গতকাল বৃহস্পতিবার ভোরে উপজেলার চরচারতলা এলাকার আনু সর্দারের বাড়ির পাশের আলগা বাড়ির মো. আবু চান মিয়ার ঘর থেকে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।নিহত কোহিনুর একই এলাকার আবুল হোসেন মিয়ার মেয়ে।

ঘটনার পর থেকে নিহতের ঘাতক স্বামী জুয়েল (৩২) পলাতক রয়েছে। এই ঘটনায় জুয়েলের পরিবারের পাঁচজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে পুলিশ।

আটককৃতরা হলেন, জুয়েলের বাবা আবু চান মিয়া (৬৮), মা রহিমা বেগম (৫৫), বড় ভাইয়ের স্ত্রী তানিয়া বেগম (২৯), ছোটভাই কামরুল ইসলাম (২৮) ও কামরুলের স্ত্রী আর্জিনা বেগম (২৪)।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, প্রায় ছয় মাস আগে প্রেমের সম্পর্কের মাধ্যমে আদালতে গিয়ে বিয়ে করেন কোহিনুর এবং জুয়েল। দুজনেরই এটি দ্বিতীয় বিয়ে। বিয়ের পর উভয়ের পরিবার তাদের বিয়ে মেনে নেয়। তবে জুয়েল প্রতিদিন ইয়াবা সেবন করতো।

ওয়ার্কসপে নতুন করে বিনিয়োগ করার জন্য দুই মাস আগে কোহিনুরের কাছে দুই লাখ টাকা যৌতুক চায় জুয়েল। তবে কোহিনুর টাকা দিতে অপারগতা জানায়।

গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় কোহিনুর বাবার বাড়িতে গিয়ে নিজ পরিবারের সঙ্গে দেখা করে আসেন। এরই মধ্যে বুধবার দিনগত রাতে জুয়েল বটি দিয়ে কোহিনুরকে  কুপিয়ে হত্যা করে কম্বল দিয়ে লাশ ঢেকে রেখে পালিয়ে যান। পরে রাতেই পরিবারের লোকজন দেখতে পেয়ে পুলিশকে জানায়।

পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে বটি উদ্ধার করেন এবং জিজ্ঞাসাবাদের জন্য জুয়েলের পরিবারের পাঁচজনকে আটক করেছে।

কোহিনুরের বাবা মো. আবুল হোসেন জানান, বুধবার রাতেও তার সঙ্গে কোহিনুরের দেখা হয়। তবে সে সময়ে সে তাকে কোনও সমস্যার কথা জানাননি। তিনি তার মেয়ে কোহিনুর হত্যাকারীর বিচার চান।

আশুগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শ্রীবাস চন্দ্র বিশ্বাস আরটিভি নিউজকে জানান, মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। মরদেহের পাশ থেকে একটি রক্তমাখা বটি উদ্ধার করা হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পরিবারের পাঁচজনকে আটক করা হয়েছে। ঘাতক জুয়েলকে আটক করার জন্য বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালানো হচ্ছে।

জেবি

RTVPLUS