logo
  • ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০, ১১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

উদ্ধারকৃত ১১টি কষ্টিপাথর প্রত্নতাত্ত্বিক জাদুঘরে হস্তান্তর

The moment of handing over the stone
কষ্টিপাথর হস্তান্তরের মুহূর্ত
নওগাঁয় ১৬ বিজিবি কর্তৃক ২০১৯ ও ২০২০ সালের বিভিন্ন সময়ে টাস্কফোর্স ও বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে উদ্ধারকৃত ১১টি মূল্যবান কষ্টি পাথর এবং প্রত্নতাত্ত্বিক মান সম্পন্ন মূর্তি প্রত্নতাত্ত্বিক জাদুঘরে হস্তান্তর করা হয়েছে।

রোববার (১৫ নভেম্বর) বিকেলে সীমান্ত পাবলিক স্কুলে প্রধান অতিথি হিসাবে এগুলো হস্তান্তর করেন রাজশাহী সেক্টরের সেক্টর কমান্ডার কর্নেল তুহিন মোহাম্মদ মাসুদ বিপিএম জি।

হস্তান্তরকৃত ১১টি কষ্টি পাথর এবং প্রত্নতাত্ত্বিক মূর্তিগুলোর ওজন ২৭০ কেজি যার আনুমানিক মূল্যে ২ কোটি ৬ লাখ ৫৯ হাজার।

এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, ১৬ বিজিবির অধিনায়ক লে: কর্নেল এ,কে,এম আরিফুল ইসলাম পিএসসি, উপ-অধিনায়ক এটিএম আহসান হাবীব, রাজশাহী প্রত্নতাত্ত্বিক বিভাগের আঞ্চলিক পরিচালক নাহিদ সুলতানাসহ জেলা প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিক ও বিজিবির অন্যান্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। 

পরে জেলার বদলগাছী উপজেলার পাহাড়পুর প্রত্নতাত্ত্বিক জাদুঘরে সংরক্ষণে জন্য রাজশাহী প্রত্নতাত্ত্বিক বিভাগের আঞ্চলিক পরিচালক নাহিদ সুলতানা কাছে প্রধান অতিথি এসব কষ্টি পাথর হস্তান্তর করেন।

এসময় বিজিবির পক্ষ থেকে জানানো হয়, কিছু চোরাকারবারি তাদের অসৎ উদ্দেশ্য হাসিলের জন্য দেশের এ ধরনের দুর্লভ কষ্টি পাথর ও প্রত্নতাত্ত্বিক মান সম্পন্ন মূর্তিগুলো পার্শ্ববর্তী দেশে পাচার করে থাকে।

এ ধরনের দুর্লভ পাচার রোধে বিজিবি সীমান্তে কঠোর নজরদারি করে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় নওগাঁ ১৬ বিজিবি বিভিন্ন সময় বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে মূল্যবান কষ্টি পাথরের এবং প্রত্নতাত্ত্বিক মান সম্পন্ন মূর্তি উদ্ধার করে।

জিএম/জিএ  

RTVPLUS