Mir cement
logo
  • ঢাকা রোববার, ২০ জুন ২০২১, ৬ আষাঢ় ১৪২৮

প্রস্তাবিত বাজেটে শিক্ষা খাতে কর প্রত্যাহারের দাবি

Demand for tax repeal in the education sector in the proposed budget
জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে মানববন্ধনে ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের কেন্দ্রীয় প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় বিভাগ

বেসরকারি কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের ওপর ১৫ শতাংশ কর আরোপের প্রতিবাদ জানিয়ে অবিলম্বে তা প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছে ‘ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের কেন্দ্রীয় প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় বিভাগ’। শুক্রবার (৪ জুন) দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে আয়োজিত মানববন্ধন থেকে এ দাবি জানানো হয়।

গতকাল বৃহস্পতিবার (৩ জুন) জাতীয় সংসদে ২০২১-২২ অর্থবছরের বাজেটে এই প্রস্তাব রাখেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মোস্তফা কামাল।

মানববন্ধনে ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সেক্রেটারি জেনারেল শেখ মুহাম্মাদ আল-আমিন বলেন, ‘বিশ্বব্যাপী করোনা পরিস্থিতিতে শিক্ষা ব্যবস্থার যখন বেহাল অবস্থা, ঠিক তখনই প্রস্তাবিত বাজেটে বেসরকারি কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের আয়ের ওপর ১৫ শতাংশ কর আরোপের প্রস্তাব করে সরকার কাটা ঘাঁয়ে নুনের ছিটা দিচ্ছে। দেশে সরকারিভাবে প্রর্যাপ্ত উচ্চশিক্ষার ব্যবস্থা না থাকায় বেসরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোতে শিক্ষার্থীরা তুলনামূলক বেশি টাকা ব্যয় করে পড়াশোনা করছেন। কিন্তু সেখানে সরকারের লোভাতুর দৃষ্টি সচেতন ছাত্র সমাজসহ দেশবাসীকে ভাবিয়ে তুলেছে।’

প্রস্তাবিত বাজেটকে ‘আকাশচুম্বী ও উচ্চাভিলাসী’ উল্লেখ করে তিনি বলেন, প্রবৃদ্ধিকেন্দ্রীক আমলাতান্ত্রিক এই বিপুল পরিমাণ বাজেটের ঘাটতি মেটাতে অন্য সব কিছুর মতো সরকার বেসরকারি কলেজ ও প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ের কাছে ১৫ শতাংশ কর আদায়ের প্রস্তাব করছে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এই কর পরিশোধের জন্য শিক্ষার্থীরদের কাছ থেকে অতিরিক্ত টাকা নেওয়ার জন্য চাপ প্রয়োগ করবে। দিন শেষে ছাত্ররাই ক্ষতিগ্রস্ত হবে।

ইশা ছাত্র আন্দোলনের কেন্দ্রীয় প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয় সম্পাদক মুহাম্মাদ মাহবুব হোসেন তার বক্তব্যে বলেন, শিক্ষার যাবতীয় ব্যয়ভার রাষ্ট্রকেই বহন করতে হবে। শিক্ষার ব্যয় কমানোর উপায় না খুঁজে উল্টো কর আরোপের প্রস্তাব অবিবেচনাপ্রসূত। চুরি, দুর্নীতি ও অর্থপাচার বন্ধ করে দেশের শিক্ষার্থী তথা ভবিষ্যত প্রজন্মের কথা ভাবুন। যথাযথ স্বাস্থ্যসুরক্ষা নিশ্চিত করে দ্রুত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ারও দাবি জানান তিনি।

মানববন্ধনে আরো বক্তব্য দেন ইশা ছাত্র আন্দোলনের জয়েন্ট সেক্রেটারি জেনারেল গাজী মুহাম্মাদ ওসমান গণী, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এম এম শোয়াইব, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক কে এম শরীয়াতুল্লাহ, পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় সম্পাদক এম এ হাসিব গোলদার, ড্যাফোডিল বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধি আবির হোসেন, ইন্ডিপেন্ডেন্ট বিশ্ববিদ্যালয়রে প্রতিনিধি কাজী রুহীন, এশিয়ান ইউনিভার্সিটির প্রতিনিধি সাইফুল ইসলাম ইমরান প্রমুখ।

কেএফ

RTV Drama
RTVPLUS