logo
  • ঢাকা বুধবার, ০৩ মার্চ ২০২১, ১৮ ফাল্গুন ১৪২৭

যে কয়টি পদক্ষেপ নিলে মদিনা নগরীর মতো হবে ঢাকা

number, step, taken, make, Dhaka, city, Medina city
যে কয়টি পদক্ষেপ নিলে মদিনা নগরীর মতো হবে ঢাকা শহর

বিশ্বের দূষিত শহরের তালিকায় শীর্ষে ঢাকা হলেও সৌদি আরবের মদিনা নগরী বিশ্বের অন্যতম স্বাস্থ্যসম্মত শহর হিসেবে তালিকা প্রকাশ করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)। আর মদিনার মতো ঢাকাকে অন্যতম স্বাস্থ্যসম্মত নগরী হিসেবে গড়ে তুলতে বেশকিছু পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হবে।

বিশ্বের অন্য শহরগুলোর তুলনায় ঢাকায় জনঘনত্ব বেশি হওয়ায় অপকিল্পিতভাবে বহুতল ভবন গড়ে উঠেছে। ফলে ইউটিলিটি সার্ভিসগুলো পেতে বিভিন্ন সময়ে যতযত্র খোঁড়াখুড়ি চলছে। যা একটি শহরের বায়ু দূষণের অন্যতম কারণ। এছাড়া যেখানে সেখানে ফেলা হচ্ছে ময়লা-আবর্জনা।

রাজধানী ঢাকা জনঘনত্বপূর্ণ শহর হলেও বেশকিছু পদক্ষেপ নিলে এই দূষিত শহরও হতে পারে মদিনার মতো স্বাস্থ্যসম্মত শহর। মদিনা নগরী কেন বিশ্বের অন্যতম স্বাস্থ্যসম্মত নগরী স্বকৃতি পেয়েছে। মদিনা শহরের সেসব মাপ-কাঠি পর্যালোচনা করে দেখা গেছে ঢাকাও স্বাস্থ্যসম্মত নগরী হতে পারে।

ঢাকা শহর বিশ্বের অন্যতম স্বাস্থ্যসম্মত নগরী হিসেবে গড়ে উঠতে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে চারপাশের নদী। বুড়িগঙ্গা নদীর উত্তরপাশ থেকে শুরু করে উত্তরার উত্তরপাশ বা টঙ্গী খাল পর্যন্ত বিস্তৃত প্রায় ৩৬০ বর্গকিলোমিটারের এই শহরটি স্বাস্থ্য ও পরিবেশের মানদণ্ডে আদর্শে পরিণত করার আর সুযোগ আছে।

নগর পরিকল্পনাবিদ প্রফেসর নজরুল ইসলাম বলেন, ঢাকায় জনঘনত্ব বহুল শহর। এটিকে স্বাস্থ্যসম্মত শহর হিসেবে গড়ে তুলতে মহা-পরিকল্পনা প্রয়োজন। আর এই মহাপরিকল্পনায় কয়েকটি বিষয়ের ওপর বেশি জোর দিতে হবে। যার মধ্যে রয়েছে-

প্রথমত, অপরিকল্পিত রাস্তাঘাট খোঁড়াখুঁড়ি বন্ধ করতে হবে। ধূলাবালি, ধোঁয়া ইত্যাদির কারণে ঢাকার বাতাসকে অত্যন্ত দূষিত বলে ধরা হয়। নির্মাণ কাজ করতে ধুলা উড়বে এটি স্বাভাবিক। তবে এই দূষণ দূর করা সহজসাধ্য নয় বলে মনে করেন এই নগর পরিকল্পনাবিদ।

দ্বিতীয়ত, রাজধানীর চারপাশে দূষিত পানি ছড়িয়ে পড়ায় মানুষের রোগ-বালাই ছড়িয়ে পড়ে। পানিবাহিত নানা রোগ, মশা, ডেঙ্গু ও চিকুনগুনিয়া রোগের বিস্তার নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব।

তৃতীয়ত, রাজধানীর বর্জ্য ব্যবস্থার পদ্ধতি অনেক পুরনো। এই পুরনো সিস্টেম পরিবর্তন করে আধুনিক সিস্টেমে আসতে হবে। যারা বর্জ্য ব্যবস্থাপনা করেন তাদের যেমন স্বাস্থ্য সুরক্ষার কোন ব্যবস্থা নেই, ঠিক তেমনি বর্জ্য ব্যবস্থাপনা করা হয় যত্রতত্র। পচনশীল, কঠিন কিংবা নবায়নযোগ্য বর্জ্য আলাদাভাবে ব্যবস্থাপনার নিয়ম থাকলেও তা মানা হয় না।

চতুর্থত, ঢাকায় সবুজ পরিবেশের অভাব রয়েছে। মানুষের শারীরিক বিভিন্ন কর্মকাণ্ড যেমন ব্যায়াম বা হাঁটার জন্য সবুজ পরিবেশ যেমন পার্ক, ফুটপাত থাকার নিয়ম থাকলেও ঢাকায় এর ব্যবস্থা খুবই কম।

পঞ্চমমত, রাজধানীতে শব্দ দূষণ নিয়ন্ত্রণে নানা ধরণের নীতিমালা আছে কিস্তু বাস্তবায়ন হচ্ছে না। যার কারণে শ্রবণশক্তি হ্রাস পাচ্ছে। শব্দ দূষণ নিয়ন্ত্রণে আনতে হবে।

ডাব্লিউএইচও বলছে, স্বাস্থ্যসম্মত শহর শুধু একটি শহরের স্বাস্থ্যসেবার কাঠামোর উপর নির্ভর করে না।শহরটির পরিবেশের উন্নয়নের অঙ্গীকার এবং এর জন্য প্রয়োজনীয় রাজনৈতিক, অর্থনৈতিক ও সামাজিক পরিবর্তনের আগ্রহের উপরও নির্ভর করে। সব মিলে রাজধানী ঢাকাকে মদিনা নগরীর মতো গড়ে তুলতে হলে সবার আগে রাজনৈতিক, অর্থনৈতিক ও সামাজিক পরিবর্তনের পাশাপাশি নগরকে মহা-পরিকল্পনার আওতায় নিয়ে এসে ঢাকার চারপাশের নদীর পানি দূষণ মুক্ত করে, বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় শৃঙ্খলা ফেলাতে হবে।

এফএ

RTV Drama
RTVPLUS