logo
  • ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৯, ৮ কার্তিক ১৪২৬

বর্জ্য দিয়ে হাঁস-মুরগি ও মাছের খাবার তৈরি, জরিমানা-কারাদণ্ড

দীপ্ত চন্দ্র পাল, আরটিভি অনলাইন
|  ১৯ জুন ২০১৯, ১২:৫৮ | আপডেট : ১৯ জুন ২০১৯, ১৩:০২
চামড়া শিল্পের বর্জ্য দিয়ে পোল্ট্রি হাঁস-মুরগি ও মাছের বিষাক্ত খাবার তৈরির অপরাধে হাজারীবাগে তিন মালিকসহ ১০ জনকে কারাদণ্ড দিয়েছেন র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত। এছাড়া ছয়টি কারখানা সিলগালা করে তাদের মোট ২৪ লাখ টাকা জরিমানা ও ২৮০০ টন বিষাক্ত পোল্ট্রি ও ফিস ফিড জব্দ করা হয়েছে।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলমের নেতৃত্বে প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তর ও মৎস্য অধিদপ্তরের সহযোগিতায় এ অভিযান পরিচালিত হয়। এসময় তারা ৬টি কারখানায় অভিযান চালান।

ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলম আরটিভি অনলাইনকে বলেন, চলতি বছরে ট্যানারির বর্জ্য দিয়ে মৎস্য ও পোল্ট্রি খাবার তৈরির সকল কারখানা বন্ধের নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। কিন্তু অসাধু এই ব্যবসায়ীরা তা অমান্য করে রাতের অন্ধকারে এই কারখানা পরিচালনা করছেন।

ঢাকা জেলার প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা বলেন, এসব চামড়ার বর্জ্যে ক্রোমিয়ামসহ ভারী ধাতু বিষাক্ত মাত্রায় বিদ্যমান। যে কারণে এসব ব্যবহৃত পোল্ট্রি খাবার খুবই ক্ষতিকর। তা মানুষের স্বাস্থ্যের জন্য ভয়াবহ পরিণতি ডেকে আনতে পারে। হতে পারে ক্যানসার, লিভার সিরোসিসসহ মারাত্মক ব্যাধি।

এক কারখানার আটক মালিক নিজের ভুল স্বীকার করে আরো বলেন, পেটের দায়েই তিনি এই কর্মকাণ্ড পরিচালনা করতেন।

অনেকদিন ধরেই টেনারিতে এমন কারখানা পরিচালিত হচ্ছে। এরপর আর কোনো কারখানা এমন পাওয়া গেলে কারখানার মালিকসহ বাড়ির মালিককেও আইনের আওতায় আনা হবে বলে জানান ম্যাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলম।

পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়