Mir cement
logo
  • ঢাকা সোমবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

গাড়ি চালিয়ে রিকশা গুঁড়িয়ে দেওয়া সেই কিশোরের রিমান্ড নামঞ্জুর

The remand of the teenager who drove the rickshaw was rejected
ঘটনাস্থলের চিত্র

রাজধানীর বেইলি রোডে বেপরোয়াভাবে গাড়ি চালিয়ে রিকশাচালক, আরোহী বাবা ও তার শিশুসন্তানকে আহত করা কিশোর তাসকিন আহম্মেদ শাফির রিমান্ড নামঞ্জুর করে টঙ্গীর কিশোর উন্নয়ন কেন্দ্রে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত। সোমবার (২২ নভেম্বর) ঢাকার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৬ এর বিচারক আল.মামুন এ আদেশ দেন। একইসঙ্গে কিশোর উন্নয়ন কেন্দ্রের কর্মকর্তার সামনে তাকে ১ দিনের জন্য জিজ্ঞাসাবাদের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

এদিন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা রমনা মডেল থানার উপ-পরিদর্শক শ্রী বিপ্লব সরকার কিশোর তাসকিন আহম্মেদকে আদালতে হাজির করে পাঁচদিনের রিমান্ড আবেদন করেন। এ সময় আদালত রিমান্ড নামঞ্জুর করে কিশোর উন্নয়ন কেন্দ্রে তাকে একদিন জিজ্ঞাসাবাদের নির্দেশ দেন।

গত ১৯ নভেম্বর বিকেলে রাজধানীর মগবাজার এলাকার বাসিন্দা শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের কর্মকর্তা ফখরুল হাসান তার ৫ মাসের শিশুপুত্রকে নিয়ে বের হন। তিনি একটি রিকশা নিয়ে মগবাজার থেকে বেইলি রোড হয়ে রমনা পার্কের দিকে যাচ্ছিলেন। পথে বেইলি রোডে একটি বেপরোয়া গতির প্রাইভেটকার তাদের বহনকারী রিকশাকে পেছন থেকে ধাক্কা দেয়।

ওই সময়েই রিকশাচালক আনোয়ার ইসলামসহ গুরুতর আহত হন ব্যাংক কর্মকর্তা ও তার ৫ মাসের শিশু ইব্রাহিম মোহাম্মদ বিন হাসান। দুর্ঘটনার পর জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯-এ কল পেয়ে ৩ জনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে পুলিশ।

পরের দিন সকাল সাড়ে ৭ টার দিকে তাসকিন তার মাকে নিয়ে বাসে করে মেহেরপুর জেলার গাংনী উপজেলায় তার দাদার বাড়ি চলে যায়। সেখান থেকে আবার চুয়াডাঙ্গা জেলার আলমডাঙ্গায় তার খালার বাড়িতে গিয়ে আত্মগোপনে থাকে। পরে দুই উপজেলার থানা পুলিশের সহায়তায় তাসকিনকে গ্রেপ্তার করে ডিএমপির তেজগাঁও বিভাগ পুলিশ।

কেএফ/এসকে

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS