• ঢাকা রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৮ আশ্বিন ১৪২৫

প্রোটিয়া টেস্ট দলে নতুন দুই মুখ

স্পোর্টস ডেস্ক
|  ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ১৭:০২ | আপডেট : ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ১৭:০৭
প্রায় দুই মাস ধরে ভারতের সঙ্গে চলছে টেস্ট, ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টির পূর্ণাঙ্গ সিরিজ। টেস্ট সিরিজে জয় পেলেও ওয়ানডেতে নাস্তানাবুদ হয় প্রোটিয়ারা। টি-টোয়েন্টিতে আজ সিরিজ নির্ধারণী ম্যাচে মাঠে নামছে স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকা ও ভারত। ৩ ম্যাচের টি-টোয়েন্টিতে সিরিজ ১-১ এ সমতা রয়েছে। তাই আজকের ম্যাচটি উভয় দলের জন্য গুরুত্বপূর্ণ। 

এদিকে এই সিরিজ শেষ হওয়া মাত্রই অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে নিজেদের মাটিতে চার ম্যাচের টেস্ট সিরিজে নেমে পড়বে প্রোটিয়ারা। এই সিরিজের প্রথম দুই টেস্টের জন্য ১৫ সদস্যের দলে দক্ষিণ আফ্রিকা রেখেছে ভারতের বিপক্ষে দারুণ পারফর্ম করা উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান হেনরিখ ক্লাসেনকে। দলে রাখা হয়েছে অলরাউন্ডার উইলেম মালডারকে। ইনজুরির কারণে দলে জায়গা পাননি গতিতারকা ডেল স্টেইন।
 
ক্লাসেনের আন্তর্জাতিক অভিষেক হয়েছে ভারতের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে। তৃতীয় ওয়ানডে থেকে সিরিজের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি পর্যন্ত সবগুলো ম্যাচেই খেলেছেন এই ২৬ বছর বয়সী ডানহাতি। এর মাঝে চতুর্থ ওয়ানডে ও দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে যথাক্রমে অপরাজিত ৪৩ ও ৬৯ রানের ইনিংস খেলে দলকে জিতিয়েছেন। দুই সিরিজে এখন পর্যন্ত প্রোটিয়াদের জয় এই দু'ম্যাচেই।

--------------------------------------------------------
আরও পড়ুন: বিতর্কিত স্টোকস নামছেন কিউইদের বিপক্ষে
--------------------------------------------------------

এছাড়া ঘরোয়া ফার্স্ট ক্লাস সানফয়েল টুর্নামেন্টে ৪৮.৬৬ গড়ে ২৯২ রান করেছেন ক্লাসেন। এসব পারফরম্যান্সের উপর ভিত্তি করেই তিনি দলে সুযোগ পেয়েছেন বলে জানিয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার নির্বাচক কমিটির আহ্বায়ক লিন্ডা জন্ডি, সাদা বলের ম্যাচে প্রোটিয়াদের হয়ে ক্লাসেন দুর্দান্ত খেলেছে। আমরা বিশ্বাস করি সে পাঁচদিনের ফরম্যাটেও ভাল করবে।

মালডারের আন্তর্জাতিক অভিষেক হয়েছিল বাংলাদেশের বিপক্ষে গেল বছর দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজের শেষ ওয়ানডেতে। ২০ বছর বয়সী এই অল রাউন্ডার তার প্রতিভা দিয়ে নজর কেড়েছিলেন প্রোটিয়া কোচ ওটিস গিবসনের।

একমাত্র ওয়ানডেতে তেমন কিছু করতে না পারলেও মালডার গত সানফয়েল টুর্নামেন্টে ৬১.৬৬ গড়ে ৩৭০ রান করেছেন, সাথে পেয়েছেন ১৫ উইকেট। দলে অলরাউন্ডারের সংখ্যা বাড়াতেই মালডার সুযোগ পেয়েছেন বলে জানিয়েছেন জন্ডি, 'শক্তিশালী প্রতিপক্ষের বিপক্ষে অলরাউন্ডারের সংখ্যা বাড়ানোর কৌশলের অংশ হিসেবে মালডার দলে সুযোগ পেয়েছে।'

এছাড়া ইনজুরির কারণে ওয়নডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজ সম্পূর্ণ বা আংশিক খেলতে না পারা অধিনায়ক ফ্যাফ ডু প্লেসি, কুইন্টন ডি কক, এবি ডি ভিলিয়ার্স ও টেন্ডা বাভুমা ফিরেছেন। বাদ পড়েছেন ক্রিস মরিস, আন্দিলে ফেহলুকওয়ায়ো ও ডুয়ানে অলিভিয়ের।

সিরিজের প্রথম টেস্ট শুরু হবে মার্চের ১ তারিখ থেকে।

দক্ষিণ আফ্রিকা স্কোয়াড(১৫ সদস্য)
ফ্যাফ ডু প্লেসি (অধিনায়ক), হাশিম আমলা, টেম্বা বাভুমা, কুইন্টন ডি কক, থিওনিস ডি ব্রুইন, এবি ডি ভিলিয়ার্স, ডিন এলগার, হেনরিখ ক্লাসেন, কেশব মহারাজ, আইডেন মারকরাম, মরনে মরকেল, উইলেম মালডার, লুনগি এনগিদি, ভারনন ফিলান্ডার ও কাগিসো রাবাদা।

আরও পড়ুন: 

এএ/ওয়াই

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়