logo
  • ঢাকা মঙ্গলবার, ২১ জানুয়ারি ২০২০, ৮ মাঘ ১৪২৭

শঙ্কামুক্ত লিটন-নাঈম, বিশ্রামে মাহমুদুল্লাহ

আরটিভি অনলাইন
|  ২৬ নভেম্বর ২০১৯, ১৬:১৬
LITON DAS
ছবি- সংগৃহীত
ভারতের বিপক্ষে গোলাপি বলের টেস্ট খেলতে নেমে হেলমেটে বল লাগে লিটন দাস ও নাঈম হাসানের। এরপর আর মাঠে নামা হয়নি দুজনের। দ্বিতীয় ইনিংসে হ্যামিস্ট্রংয়ে চোটের কারণে মাঠ থেকে বিদায় নেন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। অন্যদিকে দীর্ঘদিন ক্রিকেটের বাইরে থাকা মাশরাফি বিন মুর্তজা কয়েকদিন আগেই অনুশীলন করতে গিয়ে চোট পেয়েছেন। বঙ্গবন্ধু বিপিএলের আগে দলের খেলোয়াড়দের ফিটনেস নিয়ে কথা বলেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান চিকিৎসক দেবাশীষ চৌধুরী।

আগামী ১১ ডিসেম্বর থেকে শুরু হতে চলা বিপিএলের সপ্তম আসরে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের হয়ে খেলার কথা রয়েছে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের। মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে ডা. দেবাশীষ জানিয়েছেন, আপাতত বিশ্রামে থাকতে হচ্ছে অভিজ্ঞ এই অলরাউন্ডারকে। 

‘মাহমুদুল্লাহর ইনজুরিটা হচ্ছে গ্রেড ওয়ান হ্যামস্ট্রিং ইনজুরি। তিনি গতকাল (সোমবার) স্ক্যান করিয়েছেন। আমরা এখনও রিপোর্ট হাতে পাইনি। এখানে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে খুব অল্প মাত্রার হ্যামস্ট্রিং হলেও আমরা ৭ দিনের বিশ্রাম বেঁধে দেই। রেস্ট নেয়ার জন্য রিহ্যাব করার জন্য। ফিট না হয়ে খেলায় ফিরলে আবার ইনজুরিতে পরার সম্ভাবনা থাকে। একই ইনজুরি ওই জায়গাতে হলে সারতে সময় নেয়। আমাদের প্রধান কাজ হচ্ছে তার দ্বিতীয় ইনজুরিটা আটকানো। কারণ একই জায়গায় দ্বিতীয়বার চোট পেলে ফিরতে দিগুণ সময় লাগতে পারে। এতে এক মাসের মতো সময় লেগে যায়। তৃতীয় বার লাগলে খেলোয়াড়ের ওই মৌসুম মিস করার একটা সম্ভাবনা থাকে। এক্ষেত্রে আমাদের প্রথম এবং প্রধান কাজ হচ্ছে ইনজুরিটা যেন দ্বিতীয়বার না হয় সেটার ব্যবস্থা করা।’ 

ইডেন গার্ডেনসে মাথায় চোট পাওয়া লিটন-নাঈম রয়েছেন শঙ্কামুক্ত এমনটাই জানিয়েছেন দেশের ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান চিকিৎসক।

দেবাশীষ বলেন, ‘প্রাথমিক ভাবে মাথায় চোট পাওয়ার পর তাদের সেখানেই (কলকাতায়) দেখা হয়েছে। পরে সেখানকার স্থানীয় হাসপাতালে স্ক্যান করানো হয় দুজনকে। স্ক্যানের রিপোর্টে কোন ব্লিডিং বা খারাপ কিছু পাওয়া যায়নি। ধরে নিচ্ছি ওদের কনকাশনটা তেমন মারাত্মক নয়। কিন্তু নিয়ম অনুযায়ী প্রথম দুই দিন তাদের সম্পূর্ণ বিশ্রামে থাকতে হবে। আইসিসির কিছু গাইডলাইন আছে মাথায় চোট পাওয়ার বিষয়ে। আঘাত লাগার দুই দিন পর ওরা স্বাভাবিকরূপে শারীরিকভাবে কাজ শুরু করতে পারে। এখন পর্যন্ত রিপোর্ট দেখে বলতে পারছি যে তারা শঙ্কামুক্ত। পরবর্তীতে তারা দেশে ফিরলে আমরা আবার দুজনকে রিভিউ করব। তবে সবার সহযোগিতায় এতটুক বলতে পারি যে শঙ্কামুক্ত রয়েছেন তারা।’

ভারতের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ শেষ করেই ইমার্জিং এশিয়া কাপ খেলতে দেশে ফেরেন আমিনুল ইসলাম বিপ্লব। যদিও ইনজুরির কারণে খেলানো হয়নি তাকে। জাতীয় দলের তরুণ এই লেগ স্পিনারকে নেপাল এসএ গেমসে পাঠানো হচ্ছে না।  
 
ডা. দেবাশীষ চৌধুরী বলেন. এসএ গেমসের জন্য দল শীগগিরই যাচ্ছে। সেখানে ইনজুরির কিছু সমস্যা আছে। বিপ্লব এবং শফিকুলকে সেখানে যেতে দেয়া হচ্ছে না। তাদের চোট এখনও পুরোপুরি সেরে ওঠেনি।’` 

বঙ্গবন্ধু বিপিএলে ঢাকা প্লাটুনসের হয়ে দেখা যাবে মাশরাফি বিন মুর্তজাকে। তার আগেই ইনজুরিতে পড়তে হয়েছে বিপিএলের সবচেয়ে সফলতম অধিনায়ককে।

‘মাশরাফি মোটামুটি চেষ্টা করছে নিজের রিহ্যাব প্রোগ্রামটা চালিয়ে নেয়ার জন্য। আজকেও সে ফিজিও থেরাপি এবং জিম সেশন করেছ। তবে আমরা যেভাবে চাচ্ছি তাকে সময় দিতে রিহ্যাবের জন্য সেভাবে সে সময় দিতে পারছে না। তার ব্যথা কমে আসছে আগে থেকে কিন্তু পুরোপুরি সেরে গেছে এটা বলা যাবে না। ও যদি ব্যস্ততার বাইরে আরেকটু সময় দিতে পারত তাহলে আরেকটু তাড়াতাড়ি সেরে উঠতো।’ যোগ করেন দেবাশীষ। 

বিসিবির চিকিৎসকের দাবি বিপিএলের আগে শতভাগ ফিট হয়ে উঠবেন মাশরাফি। 

‘আমরা আশা করছি তার ঠিক হয়ে যাওয়া উচিত। যে সময় তিনি আঘাত পেয়েছে, সেরে ওঠার জন্য যতটুক সময় পেয়েছে তাতে আশা করা যায় তিনি ঠিক হয়ে যাবেন। কিন্তু এখানে বড় ভূমিকা রাখবে তার পুনর্বাসন প্রক্রিয়াটা। যত বেশি সময় দিতে পারবেন তত বেশি তার জন্য সহজ হবে ফিরে আসাটা।

ওয়াই

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • বাংলাদেশের ভারত সফর এর সর্বশেষ
  • বাংলাদেশের ভারত সফর এর পাঠক প্রিয়