Mir cement
logo
  • ঢাকা রোববার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

আরটিভি নিউজ

  ২৩ নভেম্বর ২০২১, ১৯:১০
আপডেট : ২৩ নভেম্বর ২০২১, ১৯:২৮

কয়েকটি কারণে অবশ্যই গোসল করতে হয়

কয়েকটি কারণে অবশ্যই গোসল করতে হয়
ফাইল ছবি

গোসল শরীর ও মন চাঙ্গা করে। শরীর, স্বাস্থ্য ও মন ঠিক রাখতে গোসলের ভূমিকা অপরিসীম। গোসল শরিয়তের আদেশও বটে। তাই কোন কোন সময় গোসল ফরজ হয় এবং কখন গোসল করা আবশ্যক— তা জেনে নিন।

উত্তেজনার সঙ্গে বীর্যপাত হওয়া

জাগ্রত বা ঘুমন্ত অবস্থায় উত্তেজনার সঙ্গে বীর্যপাত হওয়া। ঘুমন্ত অবস্থায় উত্তেজনা অনুভব না হলেও গোসল ফরজ। কারণ ঘুমন্ত অবস্থায় স্বপ্নদোষ হলে— মানুষ অনেক সময় টের পায় না। তাই কোনো ব্যক্তি ঘুম থেকে ওঠার পর যদি তার কাপড়ে নাপাকের চিহ্ন দেখে, তাহলে তার স্বপ্নদোষ বা বীর্যপাতের কথা স্মরণ থাকুক বা না থাকুক— সর্বাবস্থায় গোসল ফরজ হবে। (হিদায়া : ১/৪৫, আন-নুতাফ ফিল ফাতাওয়া, পৃষ্ঠা : ২৯)

যৌন মিলন ও সহবাস করা

সহবাস ও যৌন মিলন করলে গোসল ফরজ হয়। বীর্যপাত না হলেও গোসল করতে হবে। (বুখারি, হাদিস : ২৯১; মুসলিম, হাদিস : ৩৪৩)

ঋতুস্রাব বা সন্তান প্রসবোত্তর স্রাবের পর

প্রতি মাসে নারীদের বিশেষ একটা সময়ে ঋতুস্রাব হয়। সেটি বন্ধ হওয়ার পর গোসল করা ফরজ। এছাড়া নেফাস (সন্তান প্রসবোত্তর স্রাব) বন্ধ হওয়ার পরও গোসল করা ফরজ। (রাদ্দুল মুহতার : ১/১৬৫)

এসএস

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS