logo
  • ঢাকা বুধবার, ০৩ মার্চ ২০২১, ১৮ ফাল্গুন ১৪২৭

লাইফস্টাইল ডেস্ক, আরটিভি নিউজ

  ২০ ডিসেম্বর ২০২০, ১৭:১৪
আপডেট : ২০ ডিসেম্বর ২০২০, ১৭:২০

চেহারায় দীর্ঘদিন যৌবন ধরে রাখবে যে শাক

Spinach
পালং শাক

সময়টা শীতকাল। এই সময় হাটে-বাজারে ভরপুর পালং শাক। শীতকালে নিয়মিত পালং শাক খেলে সারা বছর চিন্তা নাই। কিছু জটিল অসুখ ধারেকাছে ঘেঁষবে না। এক কাপ পালং শাক শরীরের দৈনিক ফাইবার চাহিদার ২০% পূরণ করে। পাশাপাশি, ভিটামিন এ ও কে-তে ভরপুর এই শাক। এছাড়া এতে রয়েছে প্রোটিন, পটাশিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম, ভিটামিন সি, ভিটামিন ই, আয়রন, ক্যালসিয়াম, ম্যাঙ্গানিজ, জিংক, ফলিক অ্যাসিড ও সেলেনিয়াম। সুস্থ থাকার জন্য এই উপাদানগুলো জরুরি।

পালং শাকে ক্যালোরির পরিমাণ কম। কাজেই ওজন বাড়ার চিন্তা নাই। ১০০গ্রাম পালং শাকে থাকে মাত্র ৭ কিলোক্যালোরি। পালং শাকে থাকা ম্যাগনেসিয়াম যা হাই ব্লাড প্রেশার কমায়।

পালং শাক আয়রন-এ ভরপুর যা দেহে অক্সিজেন উৎপাদনের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। পালং শাক ডায়াবেটিস-এর মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে, শরীরের ক্লান্তিভাব দূর করে।

যাদের জয়েন্টে ব্যথা, তারা অবশ্যই প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় পালং শাক রাখার চেষ্টা করবেন।

এতে রয়েছে ভিটামিন এ, যা লিম্ফোসাইট বা রক্তের শ্বেত কণিকার মাত্রা ঠিক রাখে। এটি দেহের প্রতিরোধ ক্ষমতা বা ইমিউনিটি বৃদ্ধি পায়, শরীরকে বিভিন্ন সংক্রমণ ও রোগ থেকে বাঁচায়।

পালং শাকে ১০টিরও বেশি ভিন্ন ধরনের ফ্ল্যাভোনয়েড আছে যা ক্যানসারের ঝুঁকি কমায়। এতে থাকা পলিনিউট্রিয়েন্টস শরীর থেকে ফ্রি র‍্যাডিক্যাল বের করে দেয়।

সবুজ শাক সবজিতে লুটেনসহ কিছু গুরুত্বপূর্ণ ফাইটোকেমিক্যাল থাকে যা দৃষ্টি শক্তি উন্নত করে। পালং শাকে থাকা উচ্চ মাত্রার বিটা ক্যারোটিন যা চোখে ছানি পড়ার ঝুঁকি কমায়।

এই শাকে থাকা ভিটামিন-এ ত্বকের বাইরের স্তরের আর্দ্রতা বজায় রাখে, ব্রণ, বলিরেখা দূর করে, ত্বককে বার্ধক্য যেতে দেয় না, নরম-মসৃণ রাখে।

সূত্র- নিউজ এইটিন

জিএ

RTV Drama
RTVPLUS