• ঢাকা সোমবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০১৮, ৩ পৌষ ১৪২৬

প্রভাব খাটানোর অভিযোগ ওঠায় মন্ত্রীর পদত্যাগ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
|  ০৬ ডিসেম্বর ২০১৮, ২০:০০
ছবি: ডন

পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদের সাবেক আইজিপি জান মোহাম্মাদের বদলিতে প্রভাব খাটানোর অভিযোগ ওঠায় পদত্যাগ করলেন কেন্দ্রীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিমন্ত্রী আজম স্বাতি।

বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের কাছে তিনি তার পদত্যাগপত্র জমা দেন বলে জানিয়েছে দেশটির শীর্ষস্থানীয় গণমাধ্যম ‘ডন’।

এই বিষয়ে আজম স্বাতি বলেন, নৈতিকতার জায়গা থেকে আমি পদত্যাগ করেছি। প্রধানমন্ত্রীকে বলেছি যে এমন অবস্থায় আমি আমার দায়িত্ব পালন করতে পারবো না। এখন আমি মন্ত্রণালয় ও ক্ষমতা ছাড়াই আমার মামলা লড়তে চাই।

দেশটির সুপ্রিম কোর্টে ক্ষমতাসীন দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফের(পিটিআই) এই সংসদ সদস্যের বিরুদ্ধে এখন একটি মামলা চলছে। যাতে অভিযোগ করা হয়েছে, জান মোহাম্মাদের বদলিতে প্রভাব খাটিয়েছিলেন তিনি।

আজম স্বাতির ছেলে তাদের পরিবারের জমি দখল করায় একটি বস্তিবাসী পরিবারের বিরুদ্ধে মামলা করার পর এই পুলিশ কর্মকর্তার বদলির ঘটনাটি ঘটে। তখন স্বাতির পরিবারের জমি দখল করায় এবং তার নিরাপত্তাকর্মীকে মারধরের দায়ে দুই নারীসহ পাঁচজনকে আটক করা হয়।

মন্ত্রী ও আটককৃত পরিবার একটি সমঝোতায় পৌঁছালে একদিন পরই তাদেরকে ছেড়ে দেয়া হয়। কিন্তু এরপরই আইজিপির সঙ্গে বাগবিতণ্ডা এবং তার বদলির বিষয়টি গণমাধ্যম এবং শীর্ষ আদালতের নজরে আসে।

একটি যৌথ তদন্ত দল গঠন করে বিষয় খতিয়ে দেখার আগে পাকিস্তানের সংবিধানের ৬২ নং অনুচ্ছেদ অনুসারে পিটিআই’র এই সংসদ সদস্যের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার কথা চিন্তা করে সুপ্রিম কোর্ট।

গত ১৯ নভেম্বর আদালতের গঠন করা যৌথ তদন্ত দল আজম স্বাতির ফার্মহাউজে হওয়া বাগবিতণ্ডা এবং পুলিশ প্রধানের বদলিতে প্রভাব খাটানোর দায়ে তার কর্মীসহ তাকে আটক করে।

আইজিপির বদলি বিষয়ে পিটিআই’র এই সংসদ সদস্য বলেন, ৩৮ বার কল করার পর তিনি আমার কল রিসিভ করেন। তিনি আমার অভিযুক্ত প্রতিবেশীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবেন বলে কথা দিয়েছিলেন। কিন্তু পরের দিন বিষয়টির অগ্রগতি সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, এখনও আপনার সঙ্গে কেউ কথা বলেনি?

মন্ত্রী বলেন, জান মোহাম্মাদের এই আচরণে ক্ষুব্ধ হয়ে আমি প্রধানমন্ত্রী, সিনেট চেয়ারম্যান, সংসদ নেতা এবং স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর কাছে তার বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছিলাম।

কে/এমকে

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়