DMCA.com Protection Status
  • ঢাকা শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০১৯, ৭ বৈশাখ ১৪২৬

পুলিশ-দমকলের গাড়ি-অ্যাম্বুলেন্স দেখলে গতি কমাতে হবে যে দেশে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
|  ০৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১:৩৮ | আপডেট : ০৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২১:৫৩

অস্ট্রেলিয়ার নিউ সাউথ ওয়েলস কর্তৃপক্ষ সড়কে নতুন এক নিয়ম চালু করেছে। নতুন নিয়মানুযায়ী রাস্তায় পুলিশ ও দমকল বাহিনী গাড়ি এবং অ্যাম্বুলেন্সের জরুরি গাড়ি দেখলে গতি কমাতে হবে অন্যান্য মোটরযান চালকদের। খবর নিউজ ডট কমের।

গেল শনিবার থেকে এক বছরের জন্য পরীক্ষামূলকভাবে এই নতুন নিয়ম চালু করেছে নিউ সাউথ ওয়েলসের কর্তৃপক্ষ। এসময় ট্র্যাফিক ও সড়ক নিরাপত্তার ওপর কী প্রভাব পড়ে সেটি পুলিশের সঙ্গে মিলে মনিটর করবে তারা।

কর্তৃপক্ষ জানাচ্ছে, নীল ও লাল ফ্লাশ লাইট প্রদর্শনকারী এসব গাড়ি রাস্তায় চললে অন্যান্য মোটরযানের গতি ঘণ্টায় ৪০ কিলোমিটারে নামিয়ে আনতে হবে।

জরুরি পরিস্থিতিতে জরুরি গাড়ি ছাড়াও ওই এলাকার পথচারীদের জন্যও গতি কমাতে বলা হয়েছে এই নতুন নিয়মে।

জরুরি কর্মীদের অতিরিক্ত সুরক্ষা নিশ্চিত করার অংশ হিসেবে এমন পদক্ষেপ নিয়েছে অস্ট্রেলীয় কর্তৃপক্ষ।

নিউ সাউথ ওয়েলস সেন্টার ফর রোড সেফটির বার্নার্ড কার্লন বলেন, রাস্তায় সড়ক দুর্ঘটনা বা অন্য যেকোনো পরিস্থিতিতে সাহায্যকারী জরুরি কর্মীরা এর মাধ্যমে আরও সুরক্ষা পাবেন।

তিনি বলেন, যখন রাস্তার পাশে কোনও জরুরি গাড়িকে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখবেন তখন গাড়ির গতি কমিয়ে দিতে হবে।

কার্লন বলেন, ওই এলাকার সব মানুষ ও জরুরি গাড়ি পার হওয়া পর্যন্ত গাড়ির গতি ঘণ্টায় ৪০ কিলোমিটার রাখতে হবে।

রাস্তার মাঝখানে কোনও ডিভাইডার না থাকলে উভয় পাশে চলাচলকারী মোটরযানের ক্ষেত্রে এই নিয়ম কার্যকর হবে।

এদিকে নিয়ম না মানলে জরিমানার মুখোমুখি হতে হবে গাড়িচালকদের। কোনও চালক এই নিয়ম অমান্য করলে তাকে ৪৪৮ থেকে সর্বোচ্চ দুই হাজার ২০০ অস্ট্রেলিয়ান ডলার জরিমানা গুণতে হবে সঙ্গে পাবেন তিনটি ডিমেরিট পয়েন্ট।

তবে রাস্তায় জরুরি গাড়ি দেখলে গতি কমানোর নিয়ম অস্ট্রেলিয়ায় এটিই প্রথম নয়। ওয়েস্টার্ন অস্ট্রেলিয়া ও ভিক্টোরিয়ার রাস্তায় জরুরি গাড়ি দেখলে গতি ঘণ্টায় ৪০ কিলোমিটার পর্যন্ত নামিয়ে আনতে হয় সব চালকদের।

আর সাউথ অস্ট্রেলিয়ায় এটি আরও কম। সেখানে জরুরি গাড়ি দেখলে গতি ঘণ্টায় ২৫ কিলোমিটার পর্যন্ত নামিয়ে আনতে হয় অন্যান্য গাড়িচালকদের।

আরও পড়ুন :

এ/এমকে

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়