Mir cement
logo
  • ঢাকা শনিবার, ১৬ অক্টোবর ২০২১, ১ কার্তিক ১৪২৮

ঋণ মেটাতে ঠাকুরের গয়না বিক্রি, এরপর যা হলো

ঋণ মেটাতে ঠাকুরের গয়না বিক্রি, এর পর যা হলো
ফাইল ছবি

প্রতিনিয়ত পাওনাদারের চাপ ও হুমকি। বাধ্য হয়ে সম্প্রতি ঠাকুরের গয়না বিক্রি করে ঋণের বোঝা হালকা করার চেষ্টা করেছিলেন দেবীপ্রসাদ আইচ (৫২)। কিন্তু গয়না বিক্রির বিষয়টি মেনে নিতে পারেননি তিনি। মহাপঞ্চমীর দিনেই কলকাতার বাড়ি থেকে উদ্ধার করা হয় তার মরদেহ।

ঘটনাটি ঘটে ভারতের দক্ষিণ কলকাতার গল্ফগ্রিন এলাকার বিজয়গড়ে। পুলিশ জানিয়েছে, ওই এলাকাতেই গ্রিলের কারখানা ছিল দেবীপ্রসাদ আইচের। লকডাউনের পর থেকেই তার ব্যবসার অবস্থা খারাপ হতে শুরু করে। এদিকে বাজারে প্রচুর টাকা ঋণ। গত কয়েক মাস ধরে টাকা ফেরত পেতে পাওনাদাররা তার ওপর চাপ দিতে থাকেন। এমনকি তাকে হুমকিও দেওয়া হয় বলে খবর পাওয়া যায়।

জানা গেছে, পাওনাদারের চাপ সহ্য করতে না পেরে কিছুদিন আগে তিনি বাড়ির ঠাকুরঘরে গিয়ে প্রতিমার গয়না খুলে নেন। সেই গয়না বিক্রি করে পাওনাদারের টাকার একটি অংশ শোধ করেন। কিন্তু তারপর থেকেই মানসিক অবসাদে ভুগছিলেন। পরিবারের লোকেদের সঙ্গেও ভালো করে কথা বলতেন না।

তার পরিবারের দাবি, একেই পাওনাদাররা হুমকি দিতেন। তারওপর ঠাকুরের গয়না বিক্রি করে পাওনাদারের টাকা মেটানোর বিষয়টি দেবীপ্রসাদ মেনে নিতে পারছিলেন না।

রোববার অর্থাৎ মহাপঞ্চমীর দিনে দীর্ঘক্ষণ তার সাড়া পাচ্ছিলেন না পরিবারের লোকেরা। ঘরের দরজা ভেতর থেকে বন্ধ ছিল। তারা ঘরের দরজা ভেঙে ভেতরে ঢুকে দেখেন গলায় ফাঁস দিয়ে ঝুলছেন দেবীপ্রসাদ আইচ। পুলিশের ধারণা, তিনি আত্মহত্যা করেছেন। পুরো ঘটনাটির তদন্ত চলছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন।

এসএস/টিআই

মন্তব্য করুন

RTV Drama
RTVPLUS