logo
  • ঢাকা বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ২ বৈশাখ ১৪২৮

মিয়ানমারে সেনাশাসন নিয়ে যা বললো ভারত

What India said against the junta government of Myanmar
ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র অরিন্দম বাগচি

প্রতিবেশী দেশ মিয়ানমারে দুই মাস আগে সেনা অভ্যুত্থান হয়। কিন্তু এতদিন ধরে অনেকটা নীরবই ছিল ভারত। অবশেষে নীরবতা ভেঙে বিবৃতি দিয়েছে ভারত। শুক্রবার দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র অরিন্দম বাগচি বলেছেন, অবিলম্বে সব অরাজকতা দূর করতে হবে। সাধারণ নাগরিকদের স্বার্থে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করতে হবে।

গত ১ ফেব্রুয়ারি অভ্যুত্থান ঘটিয়ে মিয়ানমারের শাসন ক্ষমতা দখল করে নেয় দেশটির সেনাবাহিনী। এরপর গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠার দাবিতে রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ দেখাচ্ছে মিয়ানমারের সাধারণ মানুষ। কিন্তু শুরু থেকেই কঠোর অবস্থান নিয়েছে জান্তা সরকার। মিছিলে নির্বিচারে গুলি চালিয়ে মানুষ হত্যা করছে নিরাপত্তা বাহিনী। এরই মধ্যে বিক্ষোভে অন্তত ৫২১ জন নিহত হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ বিশ্বের ৬১ দেশ থেকে বাংলাদেশ প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা কার্যকর

এমন পরিস্থিতিতে দেশটিতে শান্তি ফেরাতে অ্যাসোসিয়েশন অব সাউথইস্ট এশিয়ান নেশনস বা আসিয়ান-কে উদ্যোগী হওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন অরিন্দম বাগচি। তিনি বলেন, এর আগে মিয়ানমারে স্বাভাবিক অবস্থা ফেরাতে আসিয়ানকে যথাসম্ভব সাহায্য করেছিল ভারত। আগামী দিনেও মানবিক দৃষ্টিতে তাদের পাশে থাকবে দিল্লি।

আরও পড়ুনঃ রাব্বানীর অবস্থার অবনতি, আবেগঘন স্ট্যাটাস

ভারতীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র আরও বলেন, আমরা যেকোনো ধরনের সহিংসতার নিন্দা জানাই। আমরা আইনের শাসনে বিশ্বাস করি। আমরা মিয়ানমারে গণতন্ত্র পুনরায় ফেরানোর পক্ষে। বন্দি রাজনৈতিক নেতাদের মুক্তি দেয়ারও আহ্বান জানিয়েছি আমরা।

RTV Drama
RTVPLUS