logo
  • ঢাকা বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ২ বৈশাখ ১৪২৮

মধ্যাকাশেই জন্ম নিলো শিশুটি

মধ্যাকাশে জন্ম নিলো শিশু! এ কথা শুনে যেকেউ আঁতকে উঠতে পারেন! অপ্রত্যাশিত হলেও ঘটনাটি সত্য। তাক লাগানো এমন ঘটনা ঘটেছে তুর্কি এয়ারলাইনসের চলন্ত বিমানে।

দ্য সান জানায়, গেলো শুক্রবার ইস্তাম্বুলের উদ্দেশে গিনি থেকে থেকে যাত্রা করে বোয়িং-৭৩৭ নামের বিমান। সেটি ৪২ হাজার ফুট ওপরে ওঠার পর হঠাৎ এক নারী যাত্রী প্রসব বেদনায় ছটফট করতে থাকেন। তা দেখে সঙ্গে সঙ্গে ছুটে আসেন বিমানবালারা। পরে প্রসব বেদনায় কাতর প্রসূতির সেবাশশ্রুষায় এগিয়ে আাসেন অন্য যাত্রীরাও।

সবার সহযোগিতায় মধ্যাকাশে জন্ম নেয় শিশুটি। নবজাতককে পেয়ে ভীষণ খুশি হন বিমানবালারা। জন্মের পরপরই তার নাম নির্ধারণ করে দেয় তারা। শিশুটির নাম রাখা হয়েছে কাদিজু। পরে তাকে কোলে নিয়ে সেলফিও তোলেন বিমানবালারা।

বিমান কর্তৃপক্ষ জানায়, গিনি থেকে বারকিনা ফাসোর রাজধানী ওয়াগাডুগুতে হয়ে ইস্তাম্বুল যাচ্ছিল। ওই বিমানে ২৮ সপ্তাহের গর্ভবতী নাফি দিয়াবি নামের যাত্রী ছিলেন। বিমানটি কিছুটা ওপরে ওঠামাত্রই তার প্রসব বেদনা ওঠে। পরে বিমানবালা ও অন্য যাত্রীদের সহযোগিতায় তিনি কন্যাসন্তানের জন্ম দেন। এতে আনন্দে আটখানা হয় সবাই।

ডেইলি মেইল জানায়, বিমানটি বারকিনা ফাসোর রাজধানী ওয়াগাডুগুতে পৌঁছালে মা এবং শিশুটিকে হাসপাতালে নেয়া হয়। এসময় মা এবং শিশু দু’জনের স্বাস্থ্যই ভালো আছে বলে জানায় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

বিমান কর্তৃপক্ষ সাধারণত ৩৬ সপ্তাহ পূর্ণ না হলে কোনো গর্ভবতী নারীকে বিমানে ভ্রমণের অনুমতি দেয় না। তবে চিকিৎসকের সই করা পত্র নিয়ে ২৮ সপ্তাহের আগে বিমানে ভ্রমণ করা যায়। সেক্ষেত্রে সন্তান জন্মের প্রত্যাশিত তারিখ উল্লেখ থাকা আবশ্যক।

আরকে/ডিএইচ

RTV Drama
RTVPLUS