logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ২২ জানুয়ারি ২০২১, ৮ মাঘ ১৪২৭

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, আরটিভি নিউজ

  ০৮ ডিসেম্বর ২০২০, ১২:৩০
আপডেট : ০৮ ডিসেম্বর ২০২০, ১২:৩৮

নিউজিল্যান্ডে মসজিদে হামলা অনিবার্য ছিল: তদন্ত প্রতিবেদন

Inquiry finds New Zealand govt failures ahead of two mosques attack
সংগৃহীত
নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে গত বছর দুটি মসজিদে ভয়াবহ হামলা ঠেকাতে কর্তৃপক্ষের বেশকিছু ব্যর্থতা ছিল বলে এক তদন্ত প্রতিবেদনে উঠে এসেছে। তবে এই মর্মান্তিক ঘটনা অনিবার্য ছিলে বলেও প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে। খবর বিবিসির।

২০১৯ সালের মার্চ মাসে শ্বেতাঙ্গ আধিপত্যবাদী ব্রেন্টন ট্যারান্টের ভয়াবহ হামলায় ৫১ জন নিহত হওয়ার পর ওই তদন্ত শুরু করা হয়। তদন্তে দেখা যায়, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সঠিকভাবে অস্ত্রের লাইসেন্স পরীক্ষা না করায় ট্যারান্ট বিপুল পরিমাণ অস্ত্রশস্ত্র জড়ো করতে সক্ষম হয়।

এছাড়া নিরাপত্তা কর্মকর্তারা খুব বেশি মাত্রায় ইসলামিস্ট টেরোরিজমের প্রতি মনোনিবেশ করেছিল বলেও তদন্তে উঠে এসেছে। তবে এসব ভুল শুধরে নিলেও ওই হামলা অনিবার্য ছিল বলে তদন্ত প্রতিবেদনে মন্তব্য করা হয়েছে।

নিজের ভুলে গুলিবিদ্ধ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হওয়া এবং চরমপন্থী ওয়েবসাইটে ঘাঁটাঘাটির যে ক্লু পেয়েছিল পুলিশ সেগুলো থেকেই এই হামলা সম্পর্কে অনুমান করা সম্ভব ছিল না বলে উল্লেখ করা হয়েছে প্রতিবেদনে।

এদিকে প্রতিবেদন প্রকাশিত হওয়ার পর নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আর্ডার্ন বলেছেন, সন্ত্রাসবাদী পরিকল্পনা ও প্রস্তুতি সনাক্ত করতে সরকারি কোনও সংস্থা ব্যর্থ হয়েছে, এমনটা খুঁজে পায়নি কমিশন। তবে তারা শেখার মতো অনেক বিষয় চিহ্নিত করেছে এবং গুরুত্বপূর্ণ কিছু বিষয়ে পরিবর্তের বিষয়টিও উঠে এসেছে।

আগ্নেয়াস্ত্র লাইসেন্স এবং ইসলামিস্ট হুমকির ব্যাপারে পূর্ব ধারণার কারণে ‘অপ্রয়োজনীয় মনোনিবেশের’ মতো বিষয়গুলোকে হাইলাইট করেছেন আর্ডার্ন। এসব ইস্যু হামলা ঠেকাতে পারতো এমনটা খুঁজে পায়নি কমিশন, তারপরও এসব ব্যর্থতা এবং এর জন্য আমি সরকারের পক্ষ থেকে ক্ষমা চাচ্ছি।

RTV Drama
RTVPLUS