logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

এবার এরদোয়ানকে বিদ্রূপ করে ফ্রান্সে কার্টুন, তুরস্কের ক্ষুদ্ধ প্রতিক্রিয়া

Charlie Hebdo caricatures Recep Erdogan sparks Turkish fury
সংগৃহীত
ইসলাম ও মুহাম্মদ (সা.) কে নিয়ে আপত্তিজনক ব্যঙ্গচিত্র নিয়ে বিশ্বজুড়ে তীব্র বিতর্কের আগুনে নতুন করে ঘি ঢেলেছে ফ্রান্সের ব্যঙ্গ ম্যাগাজিন শার্লি এবদো। বুধবার তাদের নতুন সংখ্যার প্রচ্ছদ ছবিতে এবার তুর্কি প্রেসিডেন্ট এরদোয়ানের ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশ করেছে তারা। মঙ্গলবার রাতে অনলাইনে ওই প্রচ্ছদ ছবি প্রকাশ করা হয়। খবর উইওনের।

শার্লি এবদোর এমন প্রচ্ছদ প্রকাশের পর তীব্র প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছে তুরস্ক। এরদোয়ানের শীর্ষ প্রেস উপদেষ্টা ফেহরেত্তিন আলতুন এক টুইট বার্তায় লিখেছেন, সাংস্কৃতিক বর্ণবাদ এবং বিদ্বেষ ছড়িয়ে দেয়ার সবচেয়ে ঘৃণ্য প্রচেষ্টা হিসেবে আমরা এই প্রকাশনার নিন্দা করি।

তিনি বলেন, ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁর মুসলিম বিরোধী এজেন্ডা ফল দিচ্ছে! আমাদের প্রেসিডেন্টের ঘৃণ্য ছবি দিয়ে তথাকথিত কার্টুন সিরিজ প্রকাশ করেছে শার্লি এবদো।

মতপ্রকাশের অধিকার ব্যাখ্যা করতে গিয়ে মহানবী (সা.) এর কার্টুন দেখিয়ে হত্যাকাণ্ডের শিকার হন ফরাসি শিক্ষক স্যামুয়েল প্যাটি। এ ঘটনায় এরদোয়ান, ম্যাক্রোঁ ও অন্যান্য ইউরোপীয় নেতাদের মধ্যে বাকযুদ্ধের মধ্যেই এ ধরনের ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশ করলো শার্লি এবদো।

ওই হত্যাকাণ্ডের আগেই গ্রিস এবং আর্মেনিয়া ও আজারবাইজানের সংঘাত নিয়ে সম্পর্ক খারাপ হতে শুরু করে এরদোয়ান ও ম্যাক্রোঁর মধ্যে। তবে সবশেষ ইসলাম বিদ্বেষীয় মনোভাব ও শার্লি এবদোর পক্ষে অবস্থান নেয়ায় ম্যাক্রোঁর ‘মানসিক চিকিৎসা’ দরকার বলে মন্তব্য করেন এরদোয়ান।

এরপরই এরদোয়ানের বিতর্কিত কার্টুন এগিয়ে ম্যাক্রোঁর সমর্থনে এগিয়ে এলো শার্লি এবদো। এর আগে মুহাম্মদ (সা.) এর বিতর্কিত কার্টুন আঁকাকে কেন্দ্র করে ২০১৫ সালে ম্যাগাজিনটির অফিসে হামলার ঘটনা ঘটে। ওই ঘটনায় অন্তত ১২ জন নিহত হয়।

RTVPLUS