logo
  • ঢাকা সোমবার, ১২ এপ্রিল ২০২১, ২৯ চৈত্র ১৪২৭

আয়কর সচেতনতা বাড়াতে সাংবাদিকদের ভূমিকা রাখতে হবে

দেশের উন্নয়নের স্বার্থে কর ফাঁকির প্রবণতা থেকে বেরিয়ে আসতে হবে। কর দিতে জনগণকে সচেতন করতে সাংবাদিকদের ভূমিকা রাখতে হবে। বললেন অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান।

শনিবার সকালে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে (ডিআরইউ) আয়কর সচেতনতা কর্মশালায় তিনি এসব কথা বলেন। যৌথভাবে এর আয়োজন করে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি ও গোল্ডেন বাংলাদেশ।

ডিআরইউ সভাপতি জামাল উদ্দীনের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এনবিআর সদস্য মীর মুস্তাক আলী, ডিআরইউ সাধারণ সম্পাদক রাজু আহমেদ, গোল্ডেন বাংলাদেশের নির্বাহী পরিচালক মো. জাহাঙ্গীর আলম বক্তব্য রাখেন।

অর্থ প্রতিমন্ত্রী বলেন, বর্তমানে আয়কর রিটার্নের জন্য যে ফরম ব্যবহার করা হয় তা বেশ কঠিন। করদাতারা সহজে বুঝতে পারেন না। সরকার সহজ করতে কাজ করছে।

সাংবাদিকদের উদ্দেশে তিনি বলেন, নতুন ভ্যাট আইন সম্পর্কে মানুষের মাঝে ধোঁয়াশা আছে। লিখনির মাধ্যমে আপনারা তা পরিষ্কার করে তুলবেন। আপনারা কর দেবেন এবং অন্যদের কর দিতে উৎসাহিত করবেন।

গোল্ডেন বাংলাদেশের নির্বাহী পরিচালক জাহাঙ্গীর আলম বলেন, মানুষ কেন কর দিতে চায় না, এ বিষয়ে জানতে এনবিআরের গবেষণা সেল উন্নত করা উচিত। একই সঙ্গে এনবিআরের নীতি গ্রহণ সহজ করা দরকার। যাতে সহজে এবং দ্রুত নীতি গ্রহণ করা যায়।

ডিআরইউ সভাপতি জামাল উদ্দীন বলেন, আমরা সবাই কর দিতে চাই। এক্ষেত্রে এনবিআরকে মানবিক হতে হবে। বর্তমানে করমুক্ত আয়ের যে সীমা নির্ধারিত আছে। সেই আয়ে জীবন যাপন করা যায় কি না তা এনবিআরকে বিবেচনা করতে হবে।

ডিএইচ/

RTV Drama
RTVPLUS