itel
logo
  • ঢাকা রোববার, ০৫ জুলাই ২০২০, ২১ আষাঢ় ১৪২৭

করোনা আপডেট

  •     গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনায় মৃত্যু ৫৫ জন, আক্রান্ত ২৭৩৮ জন, সুস্থ হয়েছেন ১৪০৯ জন: স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

ভূমি অধিগ্রহণে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তিদের বাড়িতে পৌঁছে গেলো ক্ষতিপূরণের চেক

স্টাফ রিপোর্টার, মানিকগঞ্জ
|  ২১ জুন ২০২০, ১৫:৫০ | আপডেট : ২১ জুন ২০২০, ১৭:১২
Compensation checks reached homes affected land acquisition
ভূমি অধিগ্রহণে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তিদের বাড়িতে গিয়ে ক্ষতিপূরণের চেক বিতরণ করেন মানিকগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মুছাম্মৎ শাহীনা আকতার।

ভূমি অধিগ্রহণে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তিদের বাড়িতে পৌঁছে গেলো ক্ষতিপূরণের চেক। আজ রোববার সকালে মানিকগঞ্জের সাটুরিয়া উপজেলার গোলড়া-কামতা এলাকায় ক্ষতিগ্রস্তদের বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে তাদের হাতে এই চেক তুলে দেন মানিকগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মুছাম্মৎ শাহীনা আকতার। 

এক ঘণ্টার মধ্যে ১৭টি চেকের মাধ্যমে তিনি ৩ কোটি ২৯ লাখ ৭৫ হাজার ৬১৫ টাকা বিতরণ করেন।  

চেক বিতরণকালে তার সঙ্গে আরও উপস্থিত ছিলেন সাটুরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশরাফুল আলম, জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের ভূমি অধিগ্রহণ কর্মকর্তা মো. মনজুর হোসেন, সাটুরিয়া উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাবিহা ফাতেমাতুজ-জোহরা, হাইওয়ে পুলিশ সাভার সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম, স্থানীয় ধানকোড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান দেওয়ান আব্দুর রউফ।

চেক বিতরণের আগে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মুছাম্মৎ শাহীনা আকতার বলেন, গোলড়া হাইওয়ে থানা পুলিশের অফিস-কাম ব্যারাক ভবন, ডাম্পিং গ্রাউন্ডসহ অন্যান্য স্থাপনা নির্মাণের জন্য ০২/২০২৮-২০১৯ নং এল এ কেসের মাধ্যমে মানিকগঞ্জের সাটুরিয়া উপজেলার কামতা মৌজায় দুই একর জমি অধিগ্রহণ করা হয়। সরকারি নিয়ম অনুযায়ী ভূমি অধিগ্রহণে মোট ক্ষতিপূরণ নির্ধারণ করা হয় ৭ কোটি ৭০ লাখ ৮৬ হাজার ৪১৮ টাকা। 

তিনি বলেন, মোট ৪৪জন দাবীদারের মধ্যে আবেদন পাওয়া গেছে ৩৭টি। এর মধ্যে দেওয়ানী আদালতে মামলা চলমান থাকায় ১২টি আবেদনের অনুকূলে ক্ষতিপূরণ প্রদান করা সম্ভব হয়নি। এছাড়া, আটটি আবেদনে কাগজপত্রের রেকর্ডীয় মালিকানার ধারাবাহিক মিল নেই। 

এ কারণে ৩৭টি আবেদনের মধ্যে ২০টি ব্যতীত অন্য ১৭টি আবেদনের অনুকূলে ৩ কোটি ২৯ লাখ ৭৫ হাজার ৬১৫ টাকা বিতরণ করা হলো। ত্রুটিপূর্ণ কাগজপত্রগুলো ঠিক হলে অন্যদেরও দ্রুততম সময়ের মধ্যে ক্ষতিপূরণের চেক প্রদান করা হবে বলে জানান তিনি।

ক্ষতিপূরণের চেক পেয়ে কয়েকজন বলেন, জমি অধিগ্রহণের সময় বিভিন্ন লোকের কাছে গিয়েছিলাম। যাতে জমি না নেয়। শুনেছিলাম টাকা পাইতে অনেক ঘুরতে হয়। আমাদের সেই ভুল ভেঙ্গেছে। বাজারে জমির যে দাম আছে তার চেয়ে অনেক বেশি পেয়েছি। সরকার কর্মকর্তারা বাড়িতে এসে টাকা দিবেন তা কখনও ভাবিনি।

এজে

RTVPLUS
corona
দেশ আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ ১৬২৪১৭ ৭২৬২৫ ২০৫২
বিশ্ব ১১৩৮২৯৫৪ ৬৪৪০২০৭ ৫৩৩৪৭৭
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • দেশজুড়ে এর সর্বশেষ
  • দেশজুড়ে এর পাঠক প্রিয়