logo
  • ঢাকা সোমবার, ৩০ মার্চ ২০২০, ১৬ চৈত্র ১৪২৬

করোনাভাইরাস: লকডাউন শিবচরের বাড়িতে খাদ্য পৌঁছে দিচ্ছে প্রশাসন

মাদারীপুর প্রতিনিধি, আরটিভি অনলাইন
|  ২৩ মার্চ ২০২০, ১৮:০৭
করোনাভাইরাস: লকডাউন শিবচরের বাড়িতে খাদ্য পৌঁছে দিচ্ছে প্রশাসন
হোম কোয়ারেন্টিনে থাকা ব্যক্তিদের বাড়িতে লাল পতাকা টানিয়ে দেওয়া হয়। ছবি: সংগৃহিত
মাদারীপুরের শিবচর উপজেলা করোনাভাইরাসের কারণে লকডাউন করে দেওয়ায় সেখানকার মানুষের জন্য উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে বাড়িতে বাড়িতে প্রয়োজনীয় খাদ্য দ্রব্য সরবরাহ করা হচ্ছে।

আজ সোমবার দুপুরে উপজেলার ঝুঁকিপূর্ণ এলাকাগুলোতে উপজেলা চেয়ারম্যান শামসুদ্দিন খান ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. আসাদুজ্জামানের নেতৃত্বে বাড়ি বাড়ি এসব খাবার বিতরণ করা হয়।

উপজেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, গত চারদিন শিবচরের চারটি এলাকার প্রায় ৭০ হাজার মানুষ অবরুদ্ধ অবস্থায় রয়েছেন। করোনাভাইরাস ছড়াতে পারে এমন আশঙ্কায় সেখানে লকডাউন করে দেওয়া হয়েছে। সাধারণ মানুষ যাতে স্বাভাবিকভাবে চলাফেরা না করতে পারে সেই জন্য সেখানে ২৫০ পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এসব এলাকার ১৬টি পয়েন্টে পুলিশ পাহারায় রেখে প্রবেশাধিকার সংরক্ষিত করা হয়েছে।


 
লকডাউন এলাকাগুলো হলো শিবচর পৌরসভার দুটি ওয়ার্ড, পাঁচ্চর ইউনিয়নের দুটি গ্রাম ও দক্ষিণ বহেরাতলা ইউনিয়নের দুটি গ্রাম। এসব গ্রামে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকা পরিবার ও নিম্নআয়ের মানুষের বাড়িতে চাল, ডাল, তেল, পেঁয়াজ, লবণ, সাবান ও ওষুধসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় খাবার পৌঁছে দেয়া হয়।

একই সঙ্গে মাদারীপুর জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকা ব্যক্তিদের বাড়ির দেয়ালে স্টিকার ও লাল পতাকা টাঙিয়ে দেয়া হয়েছে। প্রশাসনের কঠোর নজরদারি রয়েছে। দোকান খোলা রাখলেই জরিমানা করা হচ্ছে।

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে মাদারীপুরের শিবচর উপজেলা লকডাউন করা হয়। উপজেলার ছয়টি এলাকাকে পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণ করছে স্থানীয় প্রশাসন ও পুলিশ। প্রাথমিকভাবে ৭০ হাজার মানুষকে চিহ্নিত করে নজরদারিতে রাখা হয়েছে। এতে রাস্তাঘাটে নেই লোকজনের সমাগম, ব্যবসা প্রতিষ্ঠানও বন্ধ রয়েছে। অতিপ্রয়োজনীয় দোকানপাট খোলা থাকলেও ক্রেতারা আসছেন না।

জানা গেছে, লকডাউন এলাকাগুলোতে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকা ব্যক্তি ও গরিব অসহায় ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী এমন পাঁচশ পরিবারকে ২০ কেজি চাল, দুই কেজি ডাল, এক লিটার তেল, এক কেজি লবণ, দুই কেজি আলু ও একটি করে সাবানের প্যাকেট দেয়া হয়।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. আসাদুজ্জামান বলেন, লকডাউন এলাকাগুলোতে ঘরে ঘরে খাদ্যসামগ্রী পৌঁছে দেওয়া হয়েছে। নিরাপদ দূরত্বে থেকে আমরা তাদের খাবার পৌঁছে দিচ্ছি।

প্রসঙ্গত, গত বৃহস্পতিবার (১৯ মার্চ) মাদারীপুর জেলা প্রশাসন, স্বাস্থ্য বিভাগ ও পুলিশ বিভাগের সমন্বয়ে শিবচরের চারটি এলাকা লকডাউন করা হয়। এসব এলাকায় ১৬টি পয়েন্টে পুলিশ টহল দিচ্ছে।

এজে

সংশ্লিষ্ট সংবাদ : করোনাভাইরাস

আরও
corona
দেশ আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ ৪৮ ৩০
বিশ্ব ৭২১৫৮৪ ১৪৯১২২ ৩৩৯৫৮
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • দেশজুড়ে এর সর্বশেষ
  • দেশজুড়ে এর পাঠক প্রিয়