logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০, ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

সাভার প্রতিনিধি, আরটিভি অনলাইন

  ১৬ জানুয়ারি ২০২০, ১২:৫৯
আপডেট : ১৬ জানুয়ারি ২০২০, ১৩:১০

গণধর্ষণের আগে স্বর্ণের অলঙ্কার খুলে নেয় বাড়ির মালিক

ধর্ষণ গৃহবধূ পোশাক
প্রতীকী ছবি
সাভারের আশুলিয়ায় বাড়ি ভাড়া পরিশোধ করতে না পারায় স্বামীকে আটক রেখে স্ত্রীকে গণধর্ষণ করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

এ ঘটনায় অভিযান চালিয়ে এ ঘটনার মূলহোতা বাড়ির মালিককে আটক করেছে আশুলিয়া থানা পুলিশ।

গতকাল বুধবার দুপুরে আশুলিয়া পশ্চিম জামগড়া এলাকার ফকির বাড়ি থেকে অভিযুক্ত বাড়ির মালিক কালামকে (৪০) আটক করে পুলিশ। এর আগে মঙ্গলবার দিনগত গভীর রাতে এই গণধর্ষণের ঘটনা ঘটে।

নির্যাতিত নারী শ্রমিকের অভিযোগ থেকে জানা যায়, তিনি পশ্চিম জামগড়া এলাকায় মো. কালামের বাড়ির একটি কক্ষ ভাড়া নিয়ে পোশাক কারাখানায় কাজ করেন। গেল মঙ্গলবার রাতে পরিবহন চালক স্বামী ও তিনি নিজ কক্ষেই ছিলেন। রাত ১২টার দিকে বাড়ির মালিক কালাম তার সঙ্গীদের নিয়ে ডিসেম্বর মাসের বকেয়া দুই হাজার টাকার জন্য তাদের ঘরে আসেন।

এ সময় নির্যাতনের শিকার গৃহবধূ জানান, কারখানা থেকে বেতন দিতে দেরি হওয়ায় ভাড়া পরিশোধে দেরি হচ্ছে। এ কথা শুনে চড়াও হয়ে বাড়ির মালিক কালামের সহযোগী দুইজন গৃহবধূর স্বামীকে পাশের কক্ষে আটকে রাখে। পরে জোরপূর্বক তার স্বর্ণের চেইন, কানের দুল, হাতের চুরিসহ নাকের ফুল খুলে নেয় তারা।  একপর্যায়ে  তিনজন গৃহবধূর হাত-পা চেপে ধরে এবং বাড়ির মালিক কালাম তাকে ধর্ষণ করে। বাকি তিনজন ভোর চারটা পর্যন্ত তাকে ধর্ষণ করে চলে যায়।

এ ঘটনায় বুধবার সকালে ধর্ষিতা শ্রমিক আশুলিয়া থানায় এসে অভিযোগ করলে পুলিশ অভিযুক্তদের ধরতে ওই এলাকায় অভিযান চালিয়ে মূল ধর্ষণকারী কালামকে আটক করতে সক্ষম হয়।

আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক সেলিম রেজা আরটিভি অনলাইনকে জানান, ভুক্তভোগী ওই নারী শ্রমিকের অভিযোগ পাওয়ার পরপরই অভিযুক্ত বাড়ির মালিক কালামকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় অন্য অভিযুক্তদের আটকের চেষ্টা চলছে বলেও তিনি জানান।

জেবি

RTVPLUS