logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০, ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি ও হাড় কাঁপানো শীতে বিপর্যস্ত সিরাজগঞ্জের জনজীবন

বৃষ্টি, শীত, বিপর্যস্ত জনজীবন
ফাইল ছবি।

গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি, হাড় কাঁপানো শীত, ঘন কুয়াশা ও কনকনে হিমেল হাওয়ায় বিপর্যস্ত সিরাজগঞ্জের জনজীবন। বিশেষ করে চর ও দুর্গম অঞ্চলের গরিব ও অসহায় মানুষের অবস্থা বেশি শোচনীয়।

আজ বৃহস্পতিবার দিনভর গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি হওয়ায় সূর্যের মুখ দেখা যায়নি। মহাসড়কে দূরপাল্লার বাসসহ বিভিন্ন যানবাহন হেডলাইট জ্বালিয়ে চলাচল করছে। এতে যেকোনও সময় বড় ধরণের দুর্ঘটনার আশঙ্কা রয়েছে। তবে সড়ক পথে পুলিশের টহল ও সিগন্যাল ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে বলে সংশ্লিষ্ট পুলিশ কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

এদিকে গত ৩ দিনে শীতজনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে বিভিন্ন সরকারি হাসপাতাল ও বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতালে শিশুসহ দুই শতাধিক রোগী ভর্তি হয়েছে। এসব রোগীদের মধ্যে নিউমোনিয়া, হাঁপানি ও ডায়রিয়া রোগীর সংখ্যা বেশি রয়েছে বলে সিভিল সার্জন অফিস সূত্রে জানা গেছে।

অন্যদিকে এমন শীত ও কুয়াশায় ধানের বীজতলাসহ মৌসুমি শাকসবজির ক্ষেত নষ্ট হচ্ছে। গ্রামাঞ্চলে কাঠ, খড়ি জ্বালিয়ে শীত নিবারণ করছে শীতার্তরা। এছাড়া সরকারি ও বেসরকারি অফিস আদালতে দরজা ও জানালা আটকিয়ে কাজ করছে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা। জেলার বিভিন্ন স্থানে কৃষকরা মাঠে নামতে পারছেন না।

শীত ও হিমেল হাওয়ায় জেলা উপজেলা শহরে জনসমাগম কম। স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা বলছেন, চাহিদার তুলনায় অপ্রতুল শীতবস্ত্র বিতরণ নিয়েও বিপাকে পড়তে হচ্ছে তাদের।

অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক ফিরোজ মাহমুদ বলেন, জেলা উপজেলা প্রশাসন ও জনপ্রতিনিধিরা অসহায় পরিবারের মাঝে কম্বল বিতরণ করছেন। ইতিমধ্যেই ৬৫ হাজার কম্বল বিতরণ করা হয়েছে। সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ে আরও ৫০ হাজার কম্বল বরাদ্দ চাওয়া হয়েছে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

এজে

RTVPLUS