logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

চুরি যাওয়া ল্যাপটপ দিয়েই রোহিঙ্গাদের জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরি (ভিডিও)

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি
|  ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১১:২৮ | আপডেট : ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১১:৫৭
জাতীয় পরিচয়পত্র নিবন্ধন বিভাগের সব তথ্যই ছিলো রোহিঙ্গাদের পরিচয়পত্র তৈরি করা চক্রের হাতের মুঠোয়। জাতীয় সার্ভারে প্রবেশ করে তথ্য সংগ্রহ এবং জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরি করে আঙুলের ছাপ ছবিসহ সার্ভারে যুক্ত করে দিতে পারতো এই চক্রটি। কয়েকস্তরে দালালদের মাধ্যমে রোহিঙ্গাদের হাতে পৌঁছাতো বাংলাদেশের জাতীয় পরিচয়পত্র। আর নির্বাচন কমিশনের চুরি যাওয়া ল্যাপটপ দিয়েই চলতো রোহিঙ্গাদের নিবন্ধনের কাজ।

চট্টগ্রাম নির্বাচন কমিশন অফিসের ফারুক, জয়নাল ও ঢাকার একট চক্র অবৈধভাবে জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরি করে রোহিঙ্গাদের সরবরাহ করত। আর তথ্যগুলো আপলোড করতো জাতীয় সার্ভারে। আঙুলের ছাপ থেকে শুরু করে সব ধরনের কাজ সম্পন্ন করে জাতীয় সার্ভারে যুক্ত করে রোহিঙ্গাদের জাতীয় পরিচয়পত্র বানিয়ে দিতো। বিনিময়ে নিত ৫০ থেকে ৬০ হাজার টাকা।

চট্টগ্রাম কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের উপপুলিশ কমিশনার মোহাম্মদ শহীদুল্লাহ বলেন, নির্বাচন কমিশন থেকে হারিয়ে যাওয়া ল্যাপটপ দিয়েই রোহিঙ্গাদের জাতীয় পরিচয়পত্র পাইয়ে দেওয়ার কাজ করা হতো।

দুর্নীতি দমন কমিশন সমন্বিত জেলা কার্যালয় চট্টগ্রাম-২ এর উপপরিচালক মুহ. মাহবুবুল আলম বলেন, অনিয়মের অভিযোগ পাওয়া নির্বাচন কমিশনের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সম্পদের অনুসন্ধানের অনুমতি চেয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

তবে এ বিষয়ে চট্টগ্রামের সিনিয়র জেলা নির্বাচন অফিসার মো: মুনীর হোসাইন খান ক্যামেরার সামনে কথা বলতে রাজি হননি।

পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • দেশজুড়ে এর সর্বশেষ
  • দেশজুড়ে এর পাঠক প্রিয়