logo
  • ঢাকা শুক্রবার, ২৪ জানুয়ারি ২০২০, ১১ মাঘ ১৪২৭

ভূঞাপুর-তারাকান্দি সড়ক ভেঙে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি
|  ১৯ জুলাই ২০১৯, ১৩:৫৫ | আপডেট : ১৯ জুলাই ২০১৯, ১৪:৪৫
সড়ক, বন্ধ, যোগাযোগ
ছবি: সংগৃহীত
অস্বাভাবিকভাবে যমুনা নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় টাঙ্গাইলের ভূঞাপুর-তারাকান্দি সড়ক ভেঙে সব ধরনের যান চলাচল বন্ধ রয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার রাত আটটার দিকে ভূঞাপুর উপজেলার টেপিবাড়ি নামক স্থানে বন্যা নিয়ন্ত্রণ বাঁধ হিসেবে ব্যবহৃত সড়কটির ৫০ মিটার অংশ ধসে যায়। এরপর আজ শুক্রবার সকাল থেকে রাস্তাটি মেরামতে কাজ করে যাচ্ছে সেনাবাহিনী।  

এদিকে ভাঙন এলাকা পরিদর্শন করে দ্রুত পদক্ষেপ নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সচিব কবীর বিন আনোয়ার ও ১৯ পদাতিক ডিভিশনের জিওসি  ঘাটাইল এরিয়া কমান্ডার মেজর জেনারেল মিজানুর রহমান শামীম বিপি।

স্থানীয়দের অভিযোগ, প্রশাসনের পক্ষ থেকে বাঁধ রক্ষায় কোনও ধরনের পদক্ষেপ না নেওয়ায় গ্রামবাসী চেষ্টা করেও বাঁধটি রক্ষা করতে পারেনি।

এদিকে আজ শুক্রবার সকালে টাঙ্গাইল অংশে যমুনা নদীর পানি আট সেন্টিমিটার বৃদ্ধি পেয়ে বিপদসীমার ৯৯ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

এতে টাঙ্গাইল সদর, ভূঞাপুর, গোপালপুর, কালিহাতী, নাগরপুর, দেলদুয়ার উপজেলার প্রায় একশ ১১টি গ্রামের তিন লাখ মানুষ পানিবন্দী হয়ে পড়েছে।

বন্যাকবলিত এলাকায় প্রশাসনের পক্ষ থেকে ত্রাণ দেওয়ার কথা বলা হলেও অনেক এলাকাতেই ত্রাণ সহায়তা পায়নি বলে দাবি করেছেন দুর্গতরা।

টাঙ্গাইল জেলা প্রশাসক মো. শহীদুল ইসলাম আরটিভি অনলাইনকে বলেছেন, বন্যাকবলিত এলাকার ৬৭টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। এক হাজার নয়শ ১২ হেক্টর ফসলি জমি পানিতে নিমজ্জিত রয়েছে।

জেবি/পি

  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • দেশজুড়ে এর সর্বশেষ
  • দেশজুড়ে এর পাঠক প্রিয়