itel
logo
  • ঢাকা সোমবার, ০৬ জুলাই ২০২০, ২২ আষাঢ় ১৪২৭

করোনা আপডেট

  •     গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনায় মৃত্যু ৪৪ জন, আক্রান্ত ৩২০১ জন, সুস্থ হয়েছেন ৩৫২৪ জন: স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

কুড়িগ্রামের নদ-নদীতে বৃদ্ধি পেয়েছে পানি, নিম্নাঞ্চল প্লাবিত

কুড়িগ্রাম (উত্তর) প্রতিনিধি
|  ১২ জুলাই ২০১৯, ১৬:০০
টানা তিন দিনের বৃষ্টিপাত এবং উজান থেকে নেমে আসা ঢলে  কুড়িগ্রামের সবকটি নদ-নদীতে পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় প্লাবিত হয়েছে নিম্নাঞ্চল এবং চরাঞ্চল। 

জেলার ধরলা, তিস্তা, ব্রহ্মপুত্র, দুধকুমারসহ গংগাধর ও সংকোষ নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। প্লাবিত হয়েছে নাগেশ্বরী উপজেলার কচাকাটা, বামনডাঙ্গা, কেদার, বল্লভের খাষ, কালিগঞ্জ, নুনখাওয়া নারায়াণপুর এবং ভূরুঙ্গামারী উপজেলার শিলখুড়ি বঙ্গসোনাহাট, বলদিয়া এবং আন্ধারীঝাড় ইউনিয়নের চরাঞ্চল। এছাড়া কুড়িগ্রামে সদর উপজেলাসহ চিলমারী, রৌমারী, রাজিবপুর উপজেলার কিছু চরাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। 

বঙ্গসোনাহাট ইউনিয়নের শাহজাহান আলী জানান, তার ইউনিয়নের গয়নার কুটি, চরবলদিয়া এলাকার ৪টি গ্রাম প্লাবিত হয়েছে। 

কচাকাটা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আব্দুল আউয়াল জানান, কচাকাটা ইউনিয়নের গঙ্গাধর এবং সংকোষ নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে শৌলমারী, ধনিরামপুর, তরিরহাট এলাকা প্লাবিত হয়ে চরবাসী পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। বামনডাঙ্গা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আমজাত হোসেন জানান, দুধকুমার নদের পানি বৃদ্ধি অব্যাহত রয়েছে, এ পর্যন্ত চারটি ওয়ার্ড প্লাবিত হয়েছে।

এদিকে ব্রহ্মপুত্র এবং গংগাধরের পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় নারায়ণপুর ইউনিয়নটি পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। 

পানি উন্নয়ন বোর্ড কুড়িগ্রাম জানায়, ধরলায় ২৬.৪১ সেন্টিমিটার পানির পরিমাপ রেকর্ড করা হয়েছে। যা বিপদসীমার মাত্র ৯ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। ব্রহ্মপুত্র চিলমারী পয়েন্টে ২৩.৫৮ সেন্টিমিটার রেকর্ড করা হয়েছে। যা বিপদসীমার ১২ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এছাড়া তিস্তায় ২৮.৯৯ সেন্টিমিটার, ব্রহ্মপুত্র নুনখাওয়া পয়েন্টে ২৬.০৫ সেন্টিমিটার রেকর্ড করা হয়েছে। 

অপরদিকে দুধকুমার, গংগাধর এবং সংকোষ নদীর পানি অস্বাভাবিকহারে বৃদ্ধি পাচ্ছে। বৃষ্টিপাত হলে পানি আরও বৃদ্ধি পাবে।

এসএস

RTVPLUS
corona
দেশ আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ ১৬৫৬১৮ ৭৬১৪৯ ২০৯৬
বিশ্ব ১১৫৮৪৮৭৪ ৬৫৫২২৯২ ৫৩৭৩৬২
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়
  • দেশজুড়ে এর সর্বশেষ
  • দেশজুড়ে এর পাঠক প্রিয়