• ঢাকা সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
logo

অবন্তিকাকে নিয়ে চাঞ্চল্যকর তথ্য দিলেন তার সহপাঠী

আরটিভি নিউজ

  ১৬ মার্চ ২০২৪, ১৭:১২

ফেসবুকে পোস্ট করে আত্মহত্যা করেছেন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) আইন বিভাগের ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী ফাইরুজ অবন্তিকা। শুক্রবার (১৫ মার্চ) রাত ১০টার দিকে ওই শিক্ষার্থী বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর দ্বীন ইসলাম ও সহপাঠী আম্মান সিদ্দিকীকে দায়ী করে ফেসবুকে একটি পোস্ট করেন। পোস্ট করার কিছুক্ষণ পরই ওই শিক্ষার্থী আত্মহত্যা করেন।

অবন্তিকার মৃত্যুর পর তার এক সহপাঠী জানান, আমরা যতটুকু জানি- ওরা (অবন্তিকারা) মেসেঞ্জারে, হোয়াটসঅ্যাপে অশালীন ছবি, ভিডিও আদান প্রদান করতো। অবন্তিকার বাবা একজন প্রফেসর। উনি যখন এই ব্যাপারটা জানতে পেরেছে তখন সে বিষয়টা স্বাভাবিকভাবে নিতে পারে নাই। তার মেয়ে এরকম একটা ঘটনায় জড়িয়ে পড়বে এটা সে মানতে পারেনি। এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে ওর বাবা হার্টঅ্যাটাক করে মারা গেছে।

অবন্তিকা কোনো রাজনীতির সঙ্গে জড়িত ছিলো কিনা এ ব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ক্যাম্পাস রাজনীতিতে সবাই কম বেশি জড়িত থাকে। কেউ অ্যাকটিভ থাকে, কেউ থাকে না। তবে অবন্তিকা ডিবেটিং সোসাইটির সঙ্গে জড়িত ছিল।

এদিকে ফাইরুজ অবন্তিকার মা তাহমিনা শবনমের অভিযোগ, এক বছর আগে থেকে অবন্তিকার এক সহপাঠী নানাভাবে তাকে উৎপীড়ন করতেন। এ নিয়ে তার মেয়ে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর দ্বীন ইসলামের কাছে নালিশ করেন। কিন্তু সহকারী প্রক্টর ঘটনার বিচার করেননি, উল্টো মেয়েকে ডেকে নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্য করেন। ওই ছেলের পক্ষ নেন তিনি। তখন ওই ছেলে আরও বেপরোয়া হয়ে পড়েন। আপত্তিকর মন্তব্য করতেন, হুমকি দিতেন। এসব ঘটনার বিচার চেয়ে না পেয়ে তার মেয়ে আত্মহত্যা করেছেন।

মন্তব্য করুন

daraz
  • দেশজুড়ে এর পাঠক প্রিয়
আরও পড়ুন
গলায় ফাঁস দিয়ে রুয়েট শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা 
‘জীবনযুদ্ধে আমি পরাজিত’ স্ট্যাটাস দিয়ে শিক্ষকের আত্মহত্যা
প্রেমিক মোবাইল ফিরিয়ে নেওয়ায় কিশোরীর আত্মহত্যা
নির্মাতার বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ, আত্মহত্যার হুমকি অভিনেত্রীর
X
Fresh